‘আসন্ন বিশ্বকাপে পাকিস্তানই ফেবারিট’

ইংল্যান্ডে ২০১৯ সালের ওয়ানডে বিশ্বকাপের এক বছরেরও কম সময়। এরইর মধ্যে শুরু হয়েছে আইসিসির টিকিট বিষয়ক তোড়জোড়। বিশ্বকাপে অংশগ্রহণকারী ১০টি দলও নিজেদের প্রস্তুতির মূল লক্ষ্য হিসেবে রাখছে ক্রিকেট বিশ্বকাপকেই।

 

ইংল্যান্ডে অনুষ্ঠেয় সবশেষ আইসিসি টুর্নামেন্ট তথা ২০১৭ সালের চ্যাম্পিয়নস ট্রফিতে শিরোপা জিতেছিল পাকিস্তান। দেশটির সাবেক অধিনায়ক মোহাম্মদ ইউসুফের বিশ্বাস ২০১৯ সালে একই দেশে হতে যাওয়া ওয়ানডে বিশ্বকাপেও পাকিস্তানই শিরোপা জয়ের জন্য ফেবারিট।

 

ঢালা মন্তব্য করেই দায়সারা হননি ইউসুফ। নিজের এমন দাবির পক্ষে সুনির্দিষ্ট ব্যাখ্যাও দেন তিনি। পাকিস্তানের সংবাদ মাধ্যমে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, ‘আমার মনে পাকিস্তানই বিশ্বকাপ জয়ে ফেবারিট। আমি এটা বলতে পারছি কারণ আমি বুঝতে পারছি বর্তমানে আমাদেরই বিশ্বের সেরা বোলিং আক্রমণ রয়েছে, সেটা উইকেট যেমনই হোক না কেন।’

 

নিজেদের বোলিং আক্রমণকে সেরা বলার কারণ হিসেবে ৪৩ বছর বয়সী এই সাবেক ক্রিকেটার বলেন, ‘আমি কোন বোলিং আক্রমণকে সেরা বলি যখন সেটি সবদিক মিলিয়ে ভারসাম্যপূর্ণ হয়। এমন একটা আক্রমণ যা কিনা নিয়মিত বিরতিতে উইকেট নিতে পারে এবং প্রতিপক্ষ ব্যাটিং লাইনআপকে অস্থিতিশীল করে রাখে।’

 

তিনি আরও বলেন, ‘আরো একটি বড় ব্যাপার হচ্ছে পাকিস্তান কোন খণ্ডকালীন বোলারদের উপরে ভরসা করে থাকবে না। তাদের ৬-৭ জন বিশেষজ্ঞ বোলার রয়েছে। যা কিনা বিশ্বকাপে অংশ নিতে যাওয়া অনেক দলেরই নেই। ইংল্যান্ডের ফ্ল্যাট ট্র্যাকে সফল হতে হলে বোলিং আক্রমণ শক্তিশালী হতে হবে। আমি বিশ্বাস করি সেই সেরা বোলিং আক্রমণটা পাকিস্তানেরই রয়েছে।’

 

পাকিস্তানকে বিশ্বকাপের ফেবারিট ঘোষণা দিলেও চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতের সম্ভাবনাও বাতিল করে দেননি ইউসুফ। একইসাথে তার মতে ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ারও আসন্ন বিশ্বকাপে ভাল সুযোগ রয়েছে।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published.