নিউইয়র্ক থেকে সাপ্তাহিক নবযুগ প্রকাশিত হচ্ছে শুক্রবার

প্রকাশিত:বুধবার, ০৮ জানু ২০২০ ০৩:০১

নিউইয়র্ক থেকে সাপ্তাহিক নবযুগ প্রকাশিত হচ্ছে শুক্রবার

নিউইয়র্ক : নিউইয়র্ক থেকে আগামী ১০ জানুয়ারি, শুক্রবার প্রকাশিত হচ্ছে নতুন পত্রিকা ‘সাপ্তাহিক নবযুগ’। পত্রিকার সম্পাদক শাহাব উদ্দিন সাগর। তিনি জানিয়েছেন, পত্রিকা প্রকাশের সব প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। নির্দিষ্ট সময়ে বাজারের আসবে সাপ্তাহিক নবযুগ। উদ্বোধনী সংখ্যা হবে ১৪৪ পাতার। এর মধ্যে ১০৪ পাতা রঙিন ও ৪০ পাতা সাদা কালো। তবে এর পরিধি আরো বাড়তে পারে।
শাহাব উদ্দিন সাগর জানান, নবযুগ’র উদ্বোধনী সংখ্যা লিখেছেন ঢাকা ও নিউইয়র্কের খ্যাতিমান সম্পাদক, সাংবাদিক, কবি ও লেখকরা। ৪০ বা ৪৮ পাতা আকারে প্রতি শুক্রবার প্রকাশিত হবে সাপ্তাহিক নবযুগ। নিয়মিত থাকবে অভিবাসন, ধর্ম, পাঁচমিশালি, সাহিত্য, খেলাধুলা, বিনোদন, স্বাস্থ্য, পাতাসহ নতুন চমক। ট্যাবলয়েড সাইজের এ পত্রিকা পাওয়া যাবে নিউইয়র্কের কুইন্স, ব্রঙ্কস, ব্রুকলিনের মসজিদ ও গ্রোসারিগুলোতে। এটি হবে ফ্রি পত্রিকা।
উল্লেখ্য, শাহাব উদ্দিন সাগর সাংবাদিকতা শুরু করেন ১৯৯৭ সালে। বাংলাদেশে তিনি একজন কূটনৈতিক সাংবাদিক হিসেবে অধিক পরিচিত। যুক্তরাষ্ট্রে পাড়ি দেয়ার আগ তিনি ঢাকায় কূটনৈতিক সাংবাদিক হিসেবে কাজ করেছেন দৈনিক মানবকন্ঠ, দৈনিক অর্থনীতি প্রতিদিন, দৈনিক যায়যায়দিনসহ বিভিন্ন পত্রিকায়। এছাড়া কাজ করেছেন দৈনিক আজকের কাগজ, এনটিভি, দৈনিক আজাদীসহ বিভিন্ন পত্রিকায়ও। তিনি ছাত্র জীবনের শেষে নিজ এলাকায় দৈনিক চকোরি ও সাপ্তাহিক মাতামুহুরী নামে দু’টি পত্রিকা প্রকাশনার সঙ্গে সামনে থেকে নেতৃত্ব দেন। এই দুই পত্রিকার তিনি বার্তা সম্পাদক ছিলেন।
নিউইয়র্কে আসার পর তিনি সাপ্তাহিক বাংলা পত্রিকায় মিড়িয়া কনসালটেন্ট হিসেবে কিছুদিন দায়িত্ব পালন করেন। পরে তিনি বাংলা ওয়াল্ড নামের একটি অনলাইনের নির্বাহী সম্পাদক এবং পরে তিনি নিজেই মুক্তিবার্তা ২৪ ডটকম আরো একটি অনলাইন প্রতিষ্ঠা করেন। সেখান থেকে তিনি যোগ দেন প্রথম আলোর ডেপুটি বোরো চীফ হিসেবে। প্রথম আলো উত্তর আমেরিকা প্রকাশের সঙ্গে তিনি ঘনিষ্টভাবে সম্পৃক্ত ছিলেন। পরে তিনি সাপ্তাহিক আজকাল’র নির্বাহী সম্পাদক হিসেবে যোগ দেন এবং গত ১৯ ডিসেম্বর পর্যন্ত সেখানেই কর্মরত ছিলেন। এখন তিনি নিজেই সাপ্তাহিক নবযুগ প্রকাশ করার উদ্যোগ নিয়েছেন। তিনি সাপ্তাহিক নবযুগ’র সম্পাদক এবং প্রকাশক। এছাড়া তিনি আমেরিকা- বাংলাদেশ প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক। আশা নৈরাশ্যের সঞ্চয় ও চোখে দেখা চকরিয়া নামে তাঁর দুটি বই রয়েছে। ২০০৪ সালে বই দুটি প্রকাশিত হয়।
প্রসঙ্গত: নবযুগ পত্রিকাটি প্রকাশিত হয়েছিল ১৯২০ সালে। জাতীয় কবি ও বিদ্রোহী কবি কাজী নজরুল ইসলাম এবং রাজনীতিবিদ কমরেড মুজফ্ফর আহমদের যুগ্ম সম্পাদনায়। এটি ১৯২০ সালের ১২ জুলাই সান্ধ্য পত্রিকা হিসেবে যাত্রা শুরু করে। এর প্রতিষ্ঠাতা সম্পাদক ছিলেন শের-এ-বাংলা এ. কে. ফজলুক হক। তিনি নিজ অর্থে এই পত্রিকাটি প্রকাশ করেন। ইংরেজ সরকারের বিরুদ্ধে এ পত্রিকায় প্রতিবাদী অনেক কবিতা ছাপা হয়। এক পর্যায়ে ব্রিটিশ সরকার এ পত্রিকার জামানত বাজেয়াপ্ত করলে এটি বন্ধ হয়ে যায। শের-এ-বাংলা এ. কে. ফজলুলক হকের চেষ্টায় নবযুগ আবার প্রকাশিত হয়। পরে ফজলুল হকের সঙ্গে মতবিরোধের কারণে নজরুল ও মুজফ্ফর আহমদ সম্পাদকের পদ থেকে পদত্যাগ করলে পত্রিকাটি আবার বন্ধ হয়ে যায়।
১৯৪২ সালে শেরে বাংলা এ কে ফজলুল হক বাংলার প্রধানমন্ত্রী হলে তাঁর উদ্যোগে এবং কবি নজরুলের সম্পাদনায় পুনরায় নবযুগ প্রকাশিত হয়। এ সময় কাজী নজরুল ইসলাম দুরারোগ্য ব্যাধিতে আক্রান্ত হলে খুলনার আহমদ আলী সম্পাদনার দায়িত্ব গ্রহণ করেন। দু’বছর পত্রিকাটি চালু থাকার পর চিরতরে বন্ধ হয়ে যায়।
শাহাব উদ্দিন সাগর বলেন, আমি নবযুগ নামটি বেছে নিয়েছি ; একটি শতককে কেন্দ্র করে। নবযুগ বের হয়েছিল ১৯২০ সালে। ২০২০ সালে আমি নিউইয়র্ক থেকে নবযুগ প্রকাশ করলে বিষয়টি দাঁড়াবে নবযুগ সৃষ্টির একশো বছর পর নিউইয়র্ক থেকে নতুন ধারা নিয়ে প্রকাশিত হবে নবযুগ।

এই সংবাদটি 1,226 বার পড়া হয়েছে

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন।
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ