পর্তুগালে ভয়াবহ দাবানল, আগুন নেভাতে নেমেছে ১,০০০ কর্মী

প্রকাশিত:সোমবার, ২২ জুলা ২০১৯ ০৫:০৭

পর্তুগালে ভয়াবহ দাবানল, আগুন নেভাতে নেমেছে ১,০০০ কর্মী

পর্তুগালের মধ্যাঞ্চলের পাহাড়ি এলাকায় দাবানল ছড়িয়ে পড়েছে। লোকজন বাড়িঘর ছেড়ে পালাচ্ছে। দাবানল নিয়ন্ত্রণে আনতে কাজ করছে অগ্নিনির্বাপন বাহিনীর এক হাজারেরও বেশি কর্মী।

 

বিবিসি জানায়, দাবানলে অন্তত একজন গুরুতর আহত হয়েছেন। এছাড়া সাত দমকলকর্মী দগ্ধ হয়েছে।

 

ক্যাস্তেলো ব্রনকো অঞ্চলের পাহাড়ে অন্তত তিনটি দাবানল জ্বলছে। ওই এলাকায় একটি গ্রামের সব মানুষকে নিরাপদ আশ্রয়ে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে।

 

ওই দাবানলগুলোর দু’টি রোববার নাগাদ নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হয়েছে বলে জানিয়েছেন কর্মকর্তারা।

 

বিবিসি জানায়, শনিবার বিকালে জঙ্গলে আগুন লাগে এবং ঝড়ো বাতাসে তা দ্রুত ছড়িয়ে পড়ে দাবানলে রূপ নেয়। বাতাসের কারণে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনা কঠিন হয়ে পড়েছে। চারটি বুলডোজারসহ শতাধিক যান আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ করছে।

 

অগ্নিনির্বাপন বাহিনী হেলিকপ্টার ও ছোট উড়জাহাজও ব্যবহার করছে। সেনাবাহিনীও আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ করছে।

 

দাবানলের কারণে গুরুত্বপূর্ণ অনেক সড়কে যান চলাচল বন্ধ হয়ে গেছে। আগুনে গুরুতর দগ্ধ এক ব্যক্তিকে হেলিকপ্টারে করে রাজধানী লিসবনের একটি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

 

রোববার ক্যাস্ত্রেলো ব্রনকো অঞ্চলে গড় তাপমাত্রা ছিল ৩১ ডিগ্রি সেলসিয়াস। দেশটির মধ্য ও দক্ষিণের আরো ছয়টি অঞ্চলে তাপমাত্র বৃদ্ধির কারণে দাবানলের সর্বোচ্চ সতর্কতা জারি করেছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

 

পর্তুগালের উষ্ণ আবহাওয়া, ঘন জঙ্গল এবং আটলান্টিক মহাসাগর থেকে উঠে আসা ঝড়ো বাতাসের কারণে প্রায়ই দাবানলের সৃষ্টি হয়।

 

২০১৭ সালে দেশটিতে ভয়াবহ দাবানলে বহু মানুষ প্রাণ হারিয়েছিল।

 

এই সংবাদটি 1,225 বার পড়া হয়েছে

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন।
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ