বরিশালে ভুমিদস্যুদের বিরুদ্ধে বীরমুক্তিযোদ্ধার সাংবাদিক সম্মেলন

প্রকাশিত:শনিবার, ৩০ জুলা ২০১৬ ০৭:০৭

বরিশালে ভুমিদস্যুদের বিরুদ্ধে বীরমুক্তিযোদ্ধার সাংবাদিক সম্মেলন

মোঃআরিফ সুমন,বরিশাল ব্যুরো ঃ
বরিশালে ঘড়বাড়ী সহ উৎখাতের ষড়যন্ত্রে লিপ্ত ভূমিদস্যুদের বিরুদ্ধে সাংবাদিক সম্মেলন করেছেন একটি মুক্তিযোদ্ধা পরিবার।শনিবার দুপুর ১২ টায় বরিশাল রিপোৃর্টাস ইউনিটিতে আয়োজীত উক্ত সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ বজলুর রহমান খান। এ সময় তিনি জানান, ৮৩ বছর বয়ষে তিনি ভ’মিদস্যুদের অত্যাচারে দুর্বিসহ জীবন যাপন করছেন। এমন কি ভুমিদস্যুরা তাকে ঘায়েল করতে তার কর্মজীবি চার পুত্রের বিরুদ্ধে চাদাবাজী মামলা দিয়ে হয়রানী করছে। নগরীর নবগ্রাম রোডে তার শ্বশুড় মৃতঃরমিজুল হক চৌধুরী তার ২য় কন্যা এবং আমার স্ত্রী মরহুম আফরোজা বেগ কে দানপত্রের মাধ্যমে ৬৪ শতাংশ্যের একটি বাড়িটি দান করে যায়। কিন্তু ২৭ নং ওর্য়াডের কাউন্সিলর নুরুল ইসলাম ২০০৫ সালে আমার বাড়িটি ক্রয় করার প্রস্তাব রাখে। পরবর্তিতে তাকে আমি ফিরিয়ে দিলে নানা ফন্দিফিকির করে।পেশাগত কারনে আমি কিছু দিন চট্রগ্রামে অবস্থান করায় আমার অজান্তে আমার বড় ছেলে মোঃ মোস্তফা খান ভূমিদস্যুদের সাথে মিশে বাড়িটির কিয়দংশ জনৈক শহিদুল ইসলামের কাছে বিক্রি করে দেয়।পরে আমার বড় ছেলে মোস্তফা খান বাড়িতে বসবাসের কথা বলে একটি টিনশেড ঘড় উত্তোলন করে। কিছুদিন পর টিনশেড ঘড়টি জনৈক শহিদুল ইসলাম দখল করতে আসলে জমি বিক্রির বিষয়টি ফাস হয়ে যায়।প্রসঙ্গত আমার স্ত্রী আমার শ্বাশুড়ির জীবিত অবস্থায় মৃত্যুবরন করলে শ্বাশুড়ি ওয়ারিস হন। পরিতাপের বিষয় হচ্ছে আমার ছেলে মোস্তফা খান বৃদ্ধ শ্বাশুড়ির কাছ থেকে জমি হাতিয়ে নিয়ে ভুমিদস্যুদের সহায়তায় পরের দিন শহিদুল ইসলামের কাছে বিক্রি করে। আমার অন্য ছেলেররা জমিটি ফেরত নেয়ার জন্য শহিদুল ইসলামের সাথে স্থানীয় গন্যমান ব্যক্তিবর্গরদের নিয়ে সমঝোতায় বসে। উল্টো শহিদুর ইসলাম আমার কর্মজীবি ছেলেদের বিরুদ্ধে চাদাবাজী মামলা দায়ের করে।আমি মনে করছি একটি ভূমিদস্যু চক্র আমাদের বাড়িঘড় সহ উৎখাতের ষড়যন্ত্রে লিপ্ত। আমাদের জীবন বিপন্ন। আমাদের পুরো বাড়ি দখলের লোলুপ দৃষ্টি পড়েছে ভূমিদস্যু চক্রের। আমরা আমাদের জানমালের নিরাপর্ত্তা চাই।
এ সময় বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক্স্র মিডিয়ার সংবাদকর্মীরা ও তার দুই ছেলে সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিল।

এই সংবাদটি 1,227 বার পড়া হয়েছে

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন।
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •