বাংলাদেশকে মৌলবাদী রাষ্ট্রে পরিচিত করার জন্যে চক্রান্ত করেছে – প্রধানমন্ত্রীর তথ্য উপদেষ্টা ইকবাল সোবাহান চৌধুরী

প্রকাশিত:মঙ্গলবার, ০৯ আগ ২০১৬ ১১:০৮

বাংলাদেশকে মৌলবাদী রাষ্ট্রে পরিচিত করার জন্যে চক্রান্ত করেছে – প্রধানমন্ত্রীর তথ্য উপদেষ্টা ইকবাল সোবাহান চৌধুরী

 

গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি:
প্রধানমন্ত্রীর তথ্য উপদেষ্টা ইকবাল সোবাহন চৌধুরী বলেছেন, সকল অর্জনকে স্লান করে দেওয়া জন্য ও বাংলাদেশকে মৌলবাদী রাষ্ট্রে পরিচিত করার জন্য নতুন করে চক্রান্ত করেছে। কালো ছায়া ও অশুভ শক্তি বিস্তার করতে চেষ্ঠা করেছিল। সেটি সাময়িক সংকট তা কেটে উঠবে। আগামী ২০ আগষ্ট রাজধানী ঢাকাসহ সারা দেশের প্রেসক্লাবের সামনে সর্বস্তরের সাংবাদিক বৃন্দ সকাল ১১ টা থেকে ১২ পর্যন্ত জঙ্গিবাদ মৌলবাদের বিরুদ্ধে প্রতিবাদি মানববন্ধন কর্মসুচী ঘোষনা করা হয়। তিনি আরো বলেন, জাতীয় বেৈক্যর ভিত্তিতে এ অশুভ শক্তির পরাজয় হবে এবং তারা পরাভূত হবে। বাংলাদেশ অর্থনৈতিক ভাবে, রাজনৈতিক ভাবে, সামাজিক ভাবে যে ভাবে এগিয়ে যাচ্ছে এবং দেশে আপামর সাধারণ মানুষ তাদের সংগ্রাম, আন্দোলন ও তাদের মমনের মাধ্যমে দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছে। বাংরাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউুনিয়ন এবং এর অংগ সংগঠন সম্মিলিত ভাবে এ্ই কর্মসুচী পালন করেব। ইিকবাল সোবাহান চৌধুর আরও বলেন আমাদের উত্তরসুরীরা ভাষা আন্দোলন করেছে, সস্বাধীনতার আন্দোলন করেছে। এই মুহুর্তে দেওশ জঙ্গিবাদ, সন্ত্রাসবাদ আন্দোরনে আমাদের পিছিয়ে থাকলে চলবে না। এজন্য এই কর্মসুচী দেয়া হলো।
প্রধান মন্ত্রীর তথ্য উপদেষ্টা আরও বলেন এই সরকার সাংবাদিক বান্ধব সরকার। সরকার দায়িত্ব নেয়ার পরই তত্য অধিকার আইন পাশ করেছে, সাংবাদিকদের হররানী মুলক ৫০১, ৫০২ ধারার অপব্যবহার বন্ধ করেছে। সাংবাদিদের অর্তনৈতিক উন্নয়নের জন্য ওয়েজ বোর্ড ঘোষানা করেছে।

এর আগে মঙ্গলবার দুপুরে টুঙ্গিপাড়ায় পৌছে প্রথমে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধীতে প্রথমে প্রধানমন্ত্রীর তথ্য উপদেষ্টা ইকবাল সোবাহন চৌধুরী শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। পরে প্রেস ইনিষ্টিউটের চেয়ারম্যান ও মহা পরিচালক, জাতীয় প্রেসক্লাব, বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন, ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নসহ বিভিন্ন সাংবাদিক সংগঠন ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান। শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে ফাতেহা পাঠ ও বিশেষ মোনাজাতে অংশ নেন।

এসময় সাংবাদিক ইউনিয়নের নব নির্বাচিত সভাপতি মঞ্জুরুল আহসান বুলবুল বলেন, ফরিদপুরের সাংবাদিক গৌতম হত্যার বিচার হয়েছে। আমরা সাগর-রুনি, খুলনার বালু, মানিক সাহা, যশোরের শামসুর রহমান ক্যাবলসহ সকল সাংবাদিক হত্যার বিচার চাই।

সমকাল সম্পাদক গোলাম সারোয়ার বলেন, তথাকথিত নিরপেক্ষতার নামে দেশেকে বিপদের দিকে ঠেলে না দেওয়া যাবে না। সবার উপরে দেশ তার উপরে কিছুই নেই, আমার যে যে পেশায় আছি না কেন। আমরা সজাগ থাকব যতদিন পর্যন্ত বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন বাস্তবায়ন করতে না পারি।

পরে বিকালে গোপালগঞ্জ জেলা সার্কিট হাউজে সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময় করেন সাংবাদিক নেতৃবৃন্দ। এ কর্মসূচিতে বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থার ব্যবস্থাপনা পরিচালক আবুল কালাম আজাদ, প্রেস ইনস্টিটিউট অব বাংলাদেশের (পিআইবি) চেয়ারম্যান গোলাম সারোয়ার, মহাপরিচালক শাহ আলমগীর, জাতীয় প্রেসক্লাব সভাপতি শফিকুর রহমান, বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের (বিএফইউজে) সভাপতি মঞ্জুরুল আহসান বুলবুল, মহাসচিব ওমর ফারুক, ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি শাবান মাহমুদ, সাধারণ সম্পাদক সোহেল হায়দারসহ সাংবাদিক নেতা স্বপন সাহা, বিএফইউজে সহসভাপতি শহীদুল আলম, ডিইউজে ইসি মেম্বার এম শাজাহান মিয়া, দেবাশীষ রায়, মোল্যা জালাল, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সাংবাদিক কমান্ড, স্বাধীনতা সাংবাদিক ফোরাম, নারায়ণগঞ্জ, খুলনা ও যশোর সাংবাদিক ইউনিয়নসহ বিভিন্ন সাংবাদিক সংগঠনের নেতারা অংশ নেন।

এই সংবাদটি 1,226 বার পড়া হয়েছে

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন।
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •