বাংলাদেশী আমেরিকান কালচারাল এসোসিয়েশন ইনক’র বর্ষবরণ উৎসব

মাহফুজ আদনান ::: বাঙ্গালীর প্রাণের উৎসব, আনন্দের উৎসব, নতুনের চেতনায় জাগ্রত হওয়ার উৎসব বাংলা বর্ষবরণ উৎসব । বাংলা বর্ষবরণ উৎসবকে ঘিরে বাঙ্গালীদের মনে উন্মাদনার কমতি থাকে না । বাংলা সংস্কৃতি, কৃষ্টি কালচারকে ভিনদেশীদের কাছে তুলে ধরতে প্রতিবছরই বিশ্বের বিভিন্ন প্রবাসী অধ্যুষিত শহরগুলোতে বাঙ্গালীরা তৎপর থাকেন । পান্তা ইলিশসহ নানাআয়োজন আর সাংস্কৃতিক পরিবেশনার আয়োজনকে ঘিরে বাঙ্গালীদের কৌতুহলের শেষ নেই । সারাবছর এদিন বা এই উৎসবকে সামনে রেখে নানান বয়সী শ্রেণি পেশার কমিউনিটি ব্যক্তিত্বরা তাদের নিজেদের সেরাটা তুলে ধরার বা উপস্থাপন করার চেষ্টা করেন । নিউইয়র্কে বাংলাদেশী কমিউনিটির লিডাররা এবারও ব্যতিক্রম করেননি । নগরের বিভিন্ন এলাকায় বাংলা বর্ষবরণকে ঘিরে করেছেন নানান আয়োজন । নগরের ব্রংকসের গোল্ডেন প্যালেসে গত ১৫ এপ্রিল বাংলাদেশী আমেরিকান কালচারাল এসোসিয়েশন ইনক’র বাংলা বর্ষবরণ এবং বৈশাখী মেলা ছিলো অন্যতম একটি আয়োজন । সাত সমু্দ্র তের নদী, বাঙ্গালীয়ানা নিরবধি এই শ্লোগানকে ধারণ করে অনুষ্ঠানের বৈশাখী গান আর ছোট্ট শিশু কিশোরদের মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক পরিবেশনা উপস্থিতদের মুগ্ধ করে । সংগঠনের সভাপতি আবুল হাশিম হাসনুর সভাপতিত্ব এবং সাধারণ সম্পাদক আহবাব চৌধুরী খোকনের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন, নিউইয়র্ক কনসাল জেনারেল শামীম আহসান, ঠিকানার চেয়ারম্যান, সাবেক সাংসদ এম এম শাহীন, টাইম টিভির সিইও আবু তাহের, কমিউনিটি লিডার জে মোল্লা সানী প্রমুখ । আলোচনা অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, আমরা দেশের বাইরে থাকলেও মন পড়ে থাকে দেশে । তাইতো এখানে আমরা দেশের কৃষ্টি কালচারকে লালন করি । এখানের বিশাল কমিউনিটির উন্নয়ন আর নতুন প্রজন্মকে বাংলাদেশ এবং বাংলা সংস্কৃতির সাথে আবদ্ধ করে রাখার ক্ষেত্রে এ ধরণের আয়োজনের বিকল্প নেই । সামনের দিনগুলোতে আরো ব্যতিক্রমি, প্রাণবন্ত আয়োজনের জন্য সকলের সহযোগীতার হাত প্রসারিত করতে হবে । উল্লেখ্য, সকাল থেকে রাত অবধি বর্ষবরণ উৎসব এবং বৈশাখি মেলায় বাংলাদেশী কমিউনটির অংশগ্রহণ ছিলো চোখে পড়ার মত ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *