বিদেশী শ্রমিকদের জন্য দরজা খুলেছে পোল্যান্ড

বিদেশী শ্রমিকদের জন্য দরজা উন্মুক্ত করে দিয়েছে পোল্যান্ড। তাই বাংলাদেশ, ভারত ও নেপাল থেকে হাজার হাজার শ্রমিক সেখানে কাজে যাওয়ার জন্য চেষ্টা চালাচ্ছেন। অনলাইন রেডিও পোল্যান্ড এ খবর দিয়েছে। এতে বলা হয়েছে, বাংলাদেশ ভারত ও নেপাল থেকে বহু হাজার শ্রমিক নিয়োগ দিয়েছে পোলিশ কোম্পানিগুলো। তাদেরকে ওয়ার্ক পারমিট ইস্যু করেছে পোল্যান্ডের স্থানীয় কর্তৃপক্ষ। স্থানীয় একটি দৈনিক পত্রিকাকে উদ্ধৃত করে এ খবর দেয়া হয়। এতে বলা হয়, পোল্যান্ড দরজা খুলে দেয়ার কারণে শুধু ভারতেই পোল্যান্ডের ভিসা চেয়ে আবেদন করেছেন ২৫ হাজার মানুষ। তাদের ভিসার বিষয়টি এখনও চূড়ান্ত হয় নি।

এত মানুষ এই ভিসার জন্য অপেক্ষায় আছে। রিপোর্টে বলা হয়েছে, ভারতের নয়াদিল্লিতে পোল্যান্ডের দূতাবাসে এতবেশি আবেদন জমা পড়েছে যে কর্মকর্তারা তা মোকাবিলা করতে সক্ষম হচ্ছেন না। সোমবারের রিপোর্টে বলা হয়েছে, অনেকে আট মাস আগে ভিসার জন্য আবেদন করেছেন। কিন্তু এখনও তারা ভিসার জন্য রেজিস্টার হতে পারেন নি। স্টাফ সঙ্কটের কারণে এ বছর শুরুর পর মাত্র ৩৫০০ ভিসা ইস্যু করতে পেরেছে ওই দূতাবাস। যে পরিমাণ চাপ বাড়ছে সেখানে তাতে দূতাবাসের আইটি সিস্টেম অক্ষমতা প্রকাশ করে। ওদিকে পোল্যান্ডের চাকরিদাতারা বলছেন, তারা ইউক্রেন থেকে শতকরা ২১ ভাগ শ্রমিককে নিয়োগ করেন। উল্লেখ্য, আগস্টে পোল্যান্ডে বেকারত্বের হার ছিল শতকরা ৫.৮ ভাগ। জুলাইতে ছিল ৫.৯ ভাগ। ইউরোপীয় ইউনিয়নের পরিসংখ্যান ভিত্তিক এজেন্সি ইউরোস্ট্যাটের হিসাব মতে, পোল্যান্ডে জুলাইতে বেকারত্বের হার ছিল শতকরা ৩.৮ ভাগ।