বেনাপোল দিয়ে ভারতে গেল ১০ লাখ কেজি ইলিশ

প্রকাশিত:মঙ্গলবার, ০৬ অক্টো ২০২০ ০৫:১০

বেনাপোল দিয়ে ভারতে গেল ১০ লাখ কেজি ইলিশ

এম এ রহিম,বেনাপোল :
বেনাপোল স্থলবন্দর দিয়ে ভারতে রফতানি হচ্ছে সুস্বাদু ইলিশ মাছ। ১০লাখ১৬ কেজি(১হাজার টন) ইলিশ রফতানি হয়েছে ভারতে। এদিকে এলসিতে ইলিশ রফতানি হওয়ায় বাজারে কমেছে মাছের আমদানি,বেড়ে গেছে দাম। প্রতি কেজিতে বেড়েছে ৩শ থেকে৪শ টাকা।১হাজারের নিচে মিলছেনা ইলিশ ফলে ক্রেতা বিক্রেতারা পড়ছেন বিপাকে।
উল্লেখ্য,দূর্গা পূজাসহ বানিজ্যকে গতিশীল করতে বন্ধুপ্রতিম দেশ ভারতে১৪৪৫মে:টন ইলিশ মাছ রফতানির সিদ্ধান্ত নেয় সরকার। ১৪সেপ্টম্বর থেকে শুরু হয় পদ্মার রুপালি ইলিশ রফতানি। ৬থেকে ১০ ডলারে রফতানি হচ্ছে প্রতিকেজি ইলিশ। ২৯সেপ্টম্বর পর্যন্ত গত ১৬দিনে ভারতে গেছে ৯৩০মে:টন ১০০ কেজি ইলিশ। অর্জিত হয়েছে ৯কোটি১৩হাজার১২০ডলার।যার রফতানিকারক রিফা ইন্টারপ্রাইজ-সেভেন ষ্টার ফিস লি:,মহিমা ইন্টারপ্রাইজ। আমদানিকারক ভারতের সেভেন ষ্টার ফিস লি:,সিফুট ফিস লি:।
১হাজার টাকার নিচে মিলছে না ইলিশ।১কেজি ওজনের মাছের দাম নেওয়া হচ্ছে ১২শথেকে১৮শ টাকা। মাছের সংকট দেখিয়ে বেশী দামে ইলিশ বিক্রির অভিযোগ ভুক্তভোগীদের। ছোট সাইজের ইলিশ সংকট বাজারে।ভারতে এলসিতে ইলিশ রফতানিতে মাছের সংকট ও দাম বেড়েছে বলে জানান ক্রেতা ও বিক্রেতারা,সুরাহা চান তারা-ভারতের বাজারেও আমদানিকরা ইলিশ বিক্রি হচ্ছে বেশী দামে জানান ভারত থেকে আসা ট্রাক ড্রাইভাররা। বাংলাদেশী ইলিশের স্বাদ ভাল হওয়ায় বেশী দামেই ইলিশ কিনেও খুশি ভারতীয় বাবুরা।
স্থানীয় ক্রেতা ও বিক্রেতা বলেন মাছ আসছে কম সেজন্য দাম নাগালের বাহিরে। ভারতে মাছ রফতানি বন্ধের দাবী জানান তারা।
বেনাপোল স্থলবন্দর-মৎস্য পরিদর্শক আসওয়াদুল আলম জানান,ভারতে ইলিশ রফতানি হওয়ায় অর্জিত হচ্ছে বৈদেশিক মুদ্রা। তবে মাছের উৎপাদন ও মজুত বাড়লে দাম কমে যাবে বলে আশা করেন তিনি।

এই সংবাদটি 1,235 বার পড়া হয়েছে

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন।
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •