Tue. Jan 28th, 2020

BANGLANEWSUS.COM

-ONLINE PORTAL

মসজিদের দানবাক্সে এক কোটি ১৫ লাখ টাকা!

1 min read

এবার কিশোরগঞ্জের পাগলা মসজিদের দান সিন্দুক থেকে এক কোটি ১৪ লাখ ৭৪ হাজার ৪৫০ টাকা পাওয়া গেছে। শনিবার বিকেলে এই টাকার হিসাব পাওয়া যায়।

 

এদিন গণনা শেষে দান সিন্দুক থেকে বিপুল পরিমাণ এই নগদ টাকা ছাড়াও বিভিন্ন বৈদেশিক মুদ্রা ও দান হিসেবে বেশ কিছু স্বর্ণালঙ্কার পাওয়া গেছে।

 

সাধারণত ঐতিহাসিক পাগলা মসজিদের দান সিন্দুক তিন মাস পর পর খোলা হয়। এর আগে গেল ১৩ এপ্রিল দান সিন্দুক খোলা হয়েছিল। সে সময় এক কোটি ৮ লাখ ৯ হাজার ২শ’ টাকা পাওয়া গিয়েছিল। এর আগে ১৯ জানুয়ারি পাওয়া গিয়েছিল এক কোটি ১৩ লাখ ৩৩ হাজার ৪৭৩ টাকা।

 

 

 

এছাড়া গেল বছরের ১৩ অক্টোবর পাওয়া যায় এক কোটি ১৩ লাখ ৯৬ হাজার ৬৮৫ টাকা। অর্থাৎ গত এক বছরে পাগলা মসজিদে দান হিসেবে চার কোটি ৫০ লাখ ১৩ হাজার ৮০৮ টাকা পাওয়া গেছে। সে হিসেবে প্রতিদিন গড়ে সোয়া লাখ টাকা মসজিদটিতে দান করা হয়েছে।

 

জানা গেছে, শনিবার সকালে জেলা প্রশাসনের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তাদের উপস্থিতিতে মসজিদের আটটি দান সিন্দুক খোলা হয়। এরপর দিনব্যাপী টাকা গণনা করা হয়। গণনায় মসজিদ মাদরাসার ৬০ জন ছাত্র-শিক্ষক ছাড়াও রূপালী ব্যাংকের কর্মকর্তারা অংশ নেন।

 

এ টাকা গণনার কাজ তদারকি করেন কিশোরগঞ্জের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট জাকির হোসেন এর তত্ত্বাবধানে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. মনোয়ার হোসেন ও মীর মো. আল কামাহ তমাল।

 

প্রতিদিনই দূর-দূরান্ত থেকে অসংখ্য মানুষ মসজিদটির দানসিন্দুকগুলোতে নগদ টাকা-পয়সা ছাড়াও স্বর্ণালঙ্কার, গবাদিপশু, হাঁস-মুরগীসহ বিভিন্ন জিনিসপত্র দান করেন। কথিত আছে, খাস নিয়তে এই মসজিদে দান করলে মনোবাঞ্চা পূর্ণ হয়।

 

 

 

কিশোরগঞ্জ জেলা শহরের নরসুন্দা নদীর তীরে মসজিদটির অবস্থান। এ মসজিদের আয় দিয়ে পাগলা মসজিদ ইসলামী কমপ্লেক্স নামে বিশাল ভবন নির্মাণ করা হয়েছে। এছাড়া বিভিন্ন সেবামূলক খাতে অর্থ সাহায্য করা হয়।

Copyright © Banglanewsus.com All rights reserved. | Newsphere by AF themes.