মাধ্যমিকের প্রশ্নপত্রে কোহলি জীবনী

পরীক্ষার হলে বিরাট কোহলিকে পেয়ে খুশি মাধ্যমিকের শিক্ষার্থীরা। ভারতীয় ক্রিকেট দলের অধিনায়ক বিরাট কোহলির জীবনী লিখতে তেমন অসুবিধা হয়নি বলে জানিয়েছে অনেক পরীক্ষার্থী। মঙ্গলবার কলকাতার মাধ্যমিকের ইংরেজি পরীক্ষায় বিরাট কোহলির জীবনী লিখতে বলা হয়।

১১ লাখ ২৯২১ জন পরীক্ষার্থীর প্রশ্নে কোহলির জীবনী লেখা ছিল বাধ্যতামূলক। প্রশ্নের মান ১০। এই মুহূর্তে ভারতীয় ক্রিকেটের ‘ফার্স্ট ম্যান’ কোহলির জনপ্রিয়তার শিখরে।

১৯৮৮ সালের ৫ নভেম্বর দিল্লির পাঞ্জাবি পরিবারে জন্ম বিরাট কোহলির। বাবা প্রেম কোহলি ছিলেন একজন আইনজীবী। মা সরোজ কোহলির হলেন গৃহিণী। কিন্তু জতীয় দলে খেলার আগে বাবাকে হারান বিরাট। ২০০৬ সালের ১৮ ডিসেম্বর বাবা মারা যাওয়ার পরও দিল্লির হয়ে রঞ্জি ট্রফি খেলে এসে বাবার সৎকার করেছিলন ১৮ বছরের সাহসী কোহলি।

এর দুই বছর পর ২০০৮ সালে ভারতীয় দলের জার্সি পরেন কোহলি। জাতীয় দলে সুযোগ পাওয়ার পর থেকে আর পেছনে তাকাতে হয়নি বিরাট কোহলিকে। মাত্র তিন বছরের অভিজ্ঞতায় টিম ইন্ডিয়ার টেস্ট দলের কান্ডারি হয়ে ওঠেন কোহলি। ২০১৪ ভারতের অস্ট্রেলিয়া সফরের মাঝে মহন্দ্রে সিং ধোনির টেস্ট অবসরে ভারতীয় টেস্ট দলের নেতৃত্বের ব্যাটিংটা ওঠে বিরাটের হাতে। দুই বছর পর ধোনি ওয়ানডে এবং টি-২০ ফরম্যাটের নেতৃত্ব ছাড়ার পর বিরাটের হাতে ওঠে টিম ইন্ডিয়ার নেতৃত্ব।

Leave a Reply

Your email address will not be published.