Fri. Dec 6th, 2019

BANGLANEWSUS.COM

-ONLINE PORTAL

লন্ডনে ২০তম রেইনবো চলচ্চিত্র উৎসব

1 min read

যুক্তরাজ্যের লন্ডনে অনুষ্ঠিত হয়ে গেলো সপ্তাহব্যাপী ‘২০তম রেইনবো চলচ্চিত্র উৎসব’।

 

পূর্ব লন্ডনের জেনেসিস সিনেমা হলে ২১ জুলাই শুরু হওয়া এ চলচ্চিত্র উৎসব চলেছে ২৮ জুলাই পর্যন্ত। এতে ৩০টি ছায়াছবি প্রদর্শিত হয়।

 

এবারের উৎসবে শ্রেষ্ঠ চলচ্চিত্রের পুরস্কার জিতেছে মোহাম্মদ হামজার পরিচালনায় নির্মিত ইরানের ছায়াছবি ‘আজার’, শ্রেষ্ঠ পরিচালকের পুরস্কার পেয়েছেন ভারতের ছায়াছবি ‘এক যে ছিল রাজা‘ এর পরিচালক শ্রীজিৎ মুখার্জি, বিশেষ পুরস্কার পেয়েছে তৌকির আহমদের পরিচালনায় নির্মিত বাংলাদেশের ছায়াছবি ‘ফাগুন হাওয়ায়‘।

 

জুরি বোর্ডে ছিলেন ক্রিয়েটিভ ডিরেক্টর অমিতা শঙ্কর, ফিল্ম মেকার ইয়েশিম গুজেলপিনার, জানান্স সালিহ, পুলক গুপ্ত ও ফেরদৌস খান।

 

নাদিয়া লোদী ওহাবের উপস্থাপনায় ২৮ জুলাই পূর্ব লন্ডনের রিচ মিক্স সেন্টারে  উৎসবের সমাপনি ও সম্মাননা প্রদান অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিলের স্পিকার কাউন্সিলর ভিক্টোরিয়া ওবাজি।

 

‘রেইনবো সোসাইটির’ মালিক মোস্তফা কামাল বলেন, “আমাদের সীমিত রিসোর্স দিয়ে কষ্টসাধ্য হলেও দুই দশক ধরে চলচ্চিত্র উৎসব করে যাচ্ছি। আমরা দর্শকদের ভালোবাসা পেয়েছি এবং প্রাণের তাগিদে এই উৎসব চালিয়ে যাব।”

 

উদ্বোধনী অনুষ্ঠান:

 

 

২১ জুলাই জেনেসিসে চলচ্চিত্র উৎসবের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিলের নির্বাহী মেয়র জন বিগস, কাউন্সিলার মতিন উজ্জামান, কাউন্সিলার সাবিনা আখতার, কাউন্সিলার ডনিস জোন্স, চলচ্চিত্র সাংবাদিক ডেরেক ম্যালকম, বাংলাদেশ হাই কমিশনের শ্যামল চৌধুরী, ভারত থেকে আসা চলচ্চিত্র পরিচালক দেবানিক কুন্ডু, চলচ্চিত্রকার সৈয়দ জোবায়ের বাবু, বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত মিস আয়ারল্যান্ড খ্যাত মাকসুদা আকতার প্রিয়তি, ফিল্ম লন্ডন প্রতিনিধি স্টেফানি রোডারস, ইস্ট অ্যান্ড হোমসের চিফ এক্সিকিটিভ পল ব্লস, জেনেসিস সিনেমা হলের ক্রিস্টিন ওয়াকার হেবর্ন, এটিএন বাংলা ইউরোপের অন্যতম পরিচালক হাফিজ আলম বক্স, কাউন্সিলার সৈয়দা সায়মা আহমেদ, নাদিয়া লোদি ওহাব ও উৎসব পরিচালক মোস্তফা কামাল।

নাদিয়া ওহাবের সঞ্চালনায় উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে রেইনবোর ২০ বছর পূর্তি উপলক্ষে উপস্থিত অতিথিদের সম্মাননা ক্রেস্ট দেওয়া হয়। নিবার্হী মেয়র জন বিগস ও রেইনবোর মালিক মোস্তফা কামাল অতিথিদের হাতে এ সম্মাননা তুলে দেন।

 

অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় পর্বে তৌকির আহমেদ পরিচালিত ইমপ্রেস টেলিফিল্মের ছায়াছবি ‘ফাগুন হাওয়ায়’ প্রদর্শিত হয়। তৎকালীন পাকিস্তান সরকার কর্তৃক উর্দুকে রাষ্ট্রভাষা ঘোষণা করার প্রেক্ষিতে যে ভাষা আন্দোলন হয় তার ওপর এ চলচ্চিত্রটি নির্মিত হয়। এতে অভিনয় করেন নুসরাত ইমরোজ তিশা, সিয়াম আহমেদ, আবুল হায়াত ও ফজলুর রহমান বাবু।

 

ওমেন্স ফিল্ম কনফারেন্স:

 

চলচ্চিত্র নির্মাণ, স্ত্রিপ্ট লেখা ও সম্পাদনায় নারীদের সম্পৃক্ত করতে রেইনবো ফিল্ম সোসাইটির উদ্যোগে ২৩ জুলাই পূর্ব লন্ডনের বার্ডি আর্টস সেন্টারে অনুষ্ঠিত হয়েছে ‘ওমেন্স ফিল্ম কনফারেন্স’।

 

কাউন্সিলর সৈয়দা সায়েমা আহমেদ ও নাদিয়া লোদি ওহাবের সঞ্চালনায় এতে আলোচনায় অংশ নেন ভারত থেকে আসা চলচ্চিত্র পরিচালক দেবানিক কুন্ডু, চলচ্চিত্রকার সৈয়দ জোবায়ের বাবু, ক্রিয়েটিভ ডিরেক্টর অমিতা শঙ্কর, ফিল্ম মেকার ইয়েশিম গুজেলপিনার ও রেইনবোর মালিক মোস্তফা কামাল।

 

এবারের উৎসবে প্রদর্শিত বাংলাদেশের ছায়াছবিগুলো হলো- ‘ফাগুন হাওয়ায়‘, ‘আলতা বানু‘, ‘সি ইউ‘, ‘কমলা রকেট‘, ‘সনাতান গল্প‘, ‘আমার জন্মভূমি‘, ‘টু বি কন্টিনিউড‘, ‘যুদ্ধটা ছিল স্বাধীনতার‘, ‘মিথাস ড্রিম‘, ‘গিল্মস অব ঢাকা‘, জীবন ও জীবিকা‘, ‘নোনা জলের মেয়েটি‘ ও ‘অদেখা দাস‘।

 

অনুষ্ঠানে প্রতিবারের মতো এবারও কাজ করেছে ফ্যাস্টিভ্যাল কমিটি। কমিটির সদস্যরা হলেন ড্যারেক ম্যালকম, মোস্তফা কামাল, জয়শ্রী কবির, শামীমা ফেরদৌস, জোবায়ের বাবু, কবিরুল ইসলাম খান, আহমেদ মুজতবা জামিল, আবু মুসা হাসান, বদরুল হক, বুলবুল হাসান, ফরিদা কামাল, নাদিয়া লোদি ওহাব, নিলুফা ইয়াসমীন হাসান, সৈয়দা সাইমা আহমেদ, সেলিনা আহমেদ, ফেরদোস খান, আনয়ারুল কবীর, সৈয়দ মকিব আহমেদ, লিপি হালদার, নজরুল ইসলাম, মেহের আহমেদ, শাহনাজ বেগম মণি ও ইমরান খান।

 

‘ভালো ছবি, ভালো দর্শক এবং ভালো সমাজ’ এ শ্লোগান নিয়ে ১৯৯১ সালে লন্ডনে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল রেইনবো ফিল্ম সোসাইটি। শুরুতে ‘বাংলাদেশ চলচ্চিত্র উৎসব’ হিসেবে আত্মপ্রকাশ করলেও পরবর্তিতে ২০০০ সাল থেকে ‘রেইনবো আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব’ হিসেবে নিয়মিত আয়োজিত হয়ে আসছে এটি।

Copyright © Banglanewsus.com All rights reserved. | Newsphere by AF themes.