শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে সংহতি লন্ডন প্রবাসীদের

নিরাপদ সড়কের দাবিতে বাংলাদেশে চলমান আন্দোলনের সাথে সংহতি প্রকাশ করেছে যুক্তরাজ্যে বসবাসরত প্রবাসী বাংলাদেশিরা।

 

রোববার পূর্ব লন্ডনের আলতাব আলী পার্কে বাংলাদেশের শিক্ষার্থীদের নয় দফা দাবি মেনে নিয়ে সরকারকে দ্রুত বাস্তবায়নের জোর দাবি জানিয়ে প্রতিবাদ কর্মসূচিতে অংশ নেয় প্রবাসীরা।

 

এ সময় বিভিন্ন স্লোগান সম্বলিত ব্যানার ও প্ল্যাকার্ড হাতে নিরাপদ সড়কের পাশাপাশি শিশুদের জন্য নিরাপদ ভবিষ্যৎ নিশ্চিতের আহ্বান জানানো হয় মানববন্ধন ও অবস্থান কর্মসূচি থেকে।

 

প্রবাসী বাংলাদেশি ছাড়াও যুক্তরাজ্যের খ্যাতনামা বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের তরুণ শিক্ষার্থীরা অরাজনৈতিক ব্যানারে অংশ নেন এ মানববন্ধনে। স্কুল-শিক্ষার্থীদের উপর চালানো নিপীড়নের বিরুদ্ধে নিন্দা জানানো হয় এ কর্মসূচি থেকে।

 

 

‘বাংলাদেশি স্টুডেন্টস অ্যাসোসিয়েশন’-এর প্রতিষ্ঠাতা ব্যারিস্টার শরীফ হায়দারের ও ‘লেট ভয়েজ বি হিয়ার্ড’-এর প্রতিষ্ঠাতা শাকুর হক অনুষ্ঠান পরিচালনায় ছিলেন।

এ সময় অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ও ‘ইউনিভার্সিটি অব ওয়েলস’-এর প্রাক্তন অধ্যাপক কে এম এ মালেক, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তন সিনেট সদস্য নাসরুল হামিদ জোনায়েদ, ‘লেট ভয়েজ বি হিয়ার্ড’-এর নেতা তারেক চৌধুরী, সেলিম মাহমুদ ও আতাউর রহমান, ভিকারুন্নেসা নুন স্কুল অ্যান্ড কলেজ ইউকে অ্যালামনাইর গাজী আশা, ইউকে বেঙ্গলি ডিভার সাদিয়া টুম্পা, তাহমিনা হাসান, শহীদ নিশু হাসান, মঞ্জুরা মঞ্জু এবং কুইন মেরি ইনিভার্সিটি বাংলা সোসাইটির ছাত্র প্রতিনিধি।

 

এছাড়া বক্তব্য দেন ইউনিভার্সিটি অফ কেমব্রিজ বাংলাদেশি সোসাইটির রাশেখ, লন্ডন ইয়ং লেবার চেয়ার মার্ক্স বার্নার, টাওয়ার হেমলেট কাউন্সিলর এহতাশন হক ও সাবিনা আক্তার, সোসালিস্ট পার্টি নিয়র্কের নেতা লিজা রায় ও এডগার, জাগ্রত বাংলাদেশের প্রেসিডেন্ট ওয়াকী আব্দুল্লাহ, রেসিডেন্সিয়াল মডেল কলেজ অ্যালামনাই ইউকের ছাত্র প্রতিনিধি, মাহবুবুর রহমান, আহমেদ ফুয়াদ, জামিল ভূঁইয়া, আব্দুল আলিম মুসা, সেলিম মাহমুদ, আতিউর রহমান, ইয়াহিয়া, জ্যাকি, আহমেদ ,মুসলিমা এশা ও ফুয়াদ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.