সম্প্রীতির বাংলাদেশে শারদীয় দূর্গোৎসব অন্যতম জাতীয় উৎসব ……… অধ্যাপক রজত কান্তি ভট্টাচার্য্য

বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদের কেন্দ্রীয় সদস্য অধ্যাপক রজত কান্তি ভট্টাচার্য্য বলেছেন, সম্প্রীতির বাংলাদেশে শারদীয় দূর্গোৎসব অন্যতম জাতীয় উৎসব। তিনি বলেন, মহান মুক্তিযুদ্ধের মধ্য দিয়ে অর্জিত বাংলাদেশের মানুষ বিশ্বাস করে ধর্ম যার যার, রাষ্ট্র সবার, উৎসব সবার। আর তাই প্রতিটি জাতীয় উৎসবে এই দেশের মানুষ একাত্ম হয়ে অংশ গ্রহণ করে। তিনি আরও বলেন, মানুষে মানুষে সম্প্রীতি বন্ধন যত দৃঢ় হবে। দেশের উন্নতি ও অগ্রগতি তত তাড়াতাড়ি হবে। অধ্যাপক রজত কান্তি ভট্টাচার্য্য শুক্রবার (৫ অক্টোবর) বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ সিলেট সদর উপজেলা শাখার বর্ধিত সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথাগুলো বলেন।
সংগঠনের সভাপতি নীলেন্দু দে অনপু এর সভাপতিত্বে এবং জোতিষ দত্ত এবং প্রহল্লাদ দেবনাথে যৌথ পরিচালনায় বিশেষ অতিথি ছিলেন সংগঠনের জেলা সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট রঞ্জন ঘোষ, মহানগর শাখার সাধারণ সম্পাদক রজত কান্তি গুপ্ত।
সভায় বক্তারা বলেন, শারদীয় দূর্গোৎসবকে ৩ দিনের সরকারি ছুটি ঘোষণা করতে হবে। বক্তারা আরো বলেন, সর্বক্ষেত্রে সমঅধিকার ও সম মর্যাদানিশ্চিত করার লক্ষ্যে হিন্দু কল্যাণ ট্রাস্ট বাতিল করে পৃথক পৃথক ফাউন্ডেশন গঠন করতে হবে।
সভায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন, সাধারণ সম্পাদক রাজু গোয়ালা।
অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, ডা. জীবন কৃষ্ণ গোস্বামী, কানাই লাল বিশ্বাস, লিটন পাল, মুক্তিযোদ্ধা বারিন্দ্র সূত্রধর, ডা. কৌশিক চন্দ্র নাথ, সত্যেন্দ্র পাত্র, মিলন ওরাও, দোলন কর্মকর্তা, অর্জ দে, অসিত রায়, অভিজিত দে, সুমন, অমর সূত্রধর, সুজন দে, প্রণয় পাল, সত্যেন্দ্র দাস, নান্টু রঞ্জন সিংহ, অরুণ মাল, রথীন্দ্র বিশ্বাস, জীতেন সরকার, নির্মল পাত্র, উপেন্দ্র পাত্র, অর্চনা রানী পুরকায়স্থ প্রমুখ।