Sat. Jan 25th, 2020

BANGLANEWSUS.COM

-ONLINE PORTAL

২১ ঘণ্টার মাথায় কুলাউড়ায় আবারও ট্রেন লাইনচ্যুত

1 min read

২১ ঘণ্টার মাথায় কুলাউড়ায় আবারো আন্তনগর ট্রেন লাইনচ্যুত হয়েছে।

 

শুক্রবার দুপুরে কুলাউড়া আউটার সিগন্যালের (প্লাটফর্মের উত্তরপার্শ্বে) যে স্থানে জয়ন্তিকা এক্সপ্রেস ট্রেনটি লাইনচ্যুত হয়েছিল সেই একই স্থানে আজ শনিবার সকাল ৭টায় সিলেট থেকে ছেড়ে আসা ঢাকাগামী আন্তনগর কালনী এক্সপ্রেস ট্রেনটি ৯টা ২০ মিনিটে লাইনচ্যুত হয়। এ সময় ট্রেনে থাকা যাত্রীরা আতঙ্কিত হয়ে পড়েন।

 

একদিনের ব্যবধানে একইস্থানে দুইবার ট্রেন লাইনচ্যুত হওয়ায় রেল মেরামতের লোক দেখানো কাজ নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন ট্রেনে থাকা যাত্রী ও স্থানীয় এলাকাবাসী। তারা মনে করছেন,  রেল বিভাগের অবহেলা ও চরম গাফিলতির কারণে বার বার ট্রেন লাইনচ্যুত হচ্ছে।  সিলেট-আখাউড়া রেলপথ কেন এত ঝুঁকিপূর্ণ, তার কারণ তারা জানতে চান।

 

স্টেশন এলাকার বাসিন্দা আতিকুর রহমান আখই ও মামুন রহমান রাইজিংবিডিকে জানান, এই ক্রসিং পয়েন্টের সমস্যা আমরা এলাকাবাসীরা অনেক আগে থেকেই রেল কর্তৃপক্ষকে জানিয়েছি। তারা এটি মেরামতের স্থায়ী কোনো উদ্যোগ নিচ্ছেন না। লোক দেখানো ঢিলেঢালা মেরামত করছেন যার কারণে প্রতিনিয়ত ট্রেন লাইনচ্যুত হচ্ছে। ভয়ে মানুষ ট্রেনে চলাচল বন্ধ করে দেবে। রেল কর্তৃপক্ষের চরম গাফিলতির কারণে কুলাউড়াবাসী আবারো বড়ধরনের রেল দুর্ঘটনার আশঙ্কায় রয়েছেন।

 

কুলাউড়া স্টেশন মাস্টার মো. মুহিব উদ্দিন রাইজিংবিডিকে জানান, কালনী ট্রেনের চাকাটি হঠাৎ করে লাইনচ্যুত হয়। চাকাটি লাইনে তোলা হয়েছে। কেন যে বারবার লাইনচ্যুত হয়েছে তা একমাত্র প্রকৌশল বিভাগের কর্মকর্তারা বলতে পারবেন। লাইনচ্যুত ট্রেনটি মেরামত শেষে ‌১১টার দিকে কুলাউড়া রেল স্টেশন ছেড়ে গেছে।

 

উল্লেখ্য, ১৯ জুলাই শুক্রবার দুপুরে কুলাউড়া রেলওয়ে স্টেশনের প্রবেশমুখে ঢাকাগামী জয়ন্তিকা ট্রেন লাইনচ্যুত হয়। এর আগে গত ২৩ জুন রাতে কুলাউড়ার বরমচাল ইসলামাবাদ এলাকার বড়ছড়া ব্রিজে ঢাকাগামী উপবন ট্রেনটি দুর্ঘটনায় পতিত হলে ঘটনাস্থলে চারজন নিহত হন ও আহত হন শতাধিক যাত্রী।

Copyright © Banglanewsus.com All rights reserved. | Newsphere by AF themes.