Day: July 24, 2018

কামরানের সমর্থনে পরিবহন শ্রমিকদের সভা  শ্রমজীবী মানুষের কল্যাণে  নৌকাকে বিজয়ী করুন   —— মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ

কামরানের সমর্থনে পরিবহন শ্রমিকদের সভা শ্রমজীবী মানুষের কল্যাণে নৌকাকে বিজয়ী করুন —— মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ বলেছেন, আওয়ামী লীগ গণমানুষের সংগঠন। শ্রমজীবী মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে আওয়ামী লীগ সবসময় প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। নৌকা দেশের মানুষের শান্তি এবং মুক্তির প্রতীক। আগামী সিলেট সিটি নির্বাচনে শ্রমজীবী মানুষের কল্যাণে নৌকাকে বিজয়ী করার জন্য পরিবহন শ্রমিকসহ সকলের প্রতি তিনি আহবান জানান। মেয়র প্রার্থী বদর উদ্দিন আহমদ কামরানের নৌকা প্রতীকের সমর্থনে মঙ্গলবার দুপুরে নগরীর দক্ষিণ সুরমায় পরিবহন শ্রমিক ঐক্য পরিষদের উদ্যোগে সংগঠনের কার্যালয়ে পরিবহন শ্রমিকদের বিভিন্ন সংগঠনের নেতৃবৃন্দ ও প্রতিনিধিদের নিয়ে আয়োজিত সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন। সড়ক পরিবহন শ্রমিক ঐক্য পরিষদের সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা সেলিম আহমদ ফলিকের সভাপতিত্বে এবং শ্রমিক নেতা জাকারিয়া আহমদের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সভায় মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ বলেন, দেশ ও দেশের জনগণের উ
একই স্থানে একই অনাচারের পুনরাবৃত্তি রুদ্র মাহমুদ

একই স্থানে একই অনাচারের পুনরাবৃত্তি রুদ্র মাহমুদ

একযুগ আগে আর পরে, সেই একই অনাচারের পুনরাবৃত্তি। দুটি ঘটনা একই রকম, ঘটনাস্থলও সেই কুষ্টিয়াই। ২০০৬ সালের ২৯ মে যে জিঘাংসার শিকার হয়েছিলেন ইকবাল সোবহান চৌধুরী, ১২ বছর পর ২০১৮ সালের ২২ জুলাই একই জিঘাংসার শিকার হলেন মাহমুদুর রহমান । এক যুগ আগে আর পরে হলেও হামলার ঘটনা দুটোর মধ্যে যোগসাযুয্য আছে।   রোববার (২২ জুলাই )  কুষ্টিয়ায় একটি মানহানি মামলায় জামিন নিতে যান বিএনপির চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার উপদেষ্টা এবং আমার দেশ পত্রিকার ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক মাহমুদুর রহমান। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও টিউলিপ সিদ্দিককে নিয়ে কটূক্তি করে বক্তব্যে দেওয়ায় আমার দেশ পত্রিকার ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক মাহমুদুর রহমানের বিরুদ্ধে কুষ্টিয়া জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ইয়াসির আরাফাত ওরফে তুষারের দায়ের করা মানহানি মামলায় তার জামিন মঞ্জুর করেন আদালত। মামলায় জামিন পেলেও আদালত চত্বরে তিনি অবরুদ্ধ হয়ে পড়েন। একপর্যায়ে আদালত
জেলে থেকেও নির্বাচনী আলোচনায় নওয়াজ

জেলে থেকেও নির্বাচনী আলোচনায় নওয়াজ

দুর্নীতি মামলায় ১০ বছরের জেল হয়েছে পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফ। বর্তমানে তিনি কারাগারে রয়েছেন। তবুও দেশটির সাধারণ নির্বাচনে তাকে ঘিরেই আলোচনা হচ্ছে। অভিযোগ উঠেছে, আইএসআই নওয়াজ ও তার মেয়ে মরিয়মকে নির্বাচনের আগে জেল থেকে বের হতে দিতে চায় না। সম্প্রতি দেশটির প্রধান বিচাপতির কাছে এমন চাপ এসেছে বলেও জানিয়েছেন ইসলামাবাদ হাইকোর্টের এক বিচারপতি।   পাকিস্তানের সাধারণ নির্বাচনে জয়ের আশাবাদী তেহরিক-এ-ইনসাফের প্রধান ইমরান খানও তাকে নিয়ে কথা বলছেন। করাচিতে এক নির্বাচনী সভায় তিনি বলেন, নাগাড়ে ভারতের স্বার্থরক্ষা করে চলেছেন নওয়াজ। জেলে বসেও ষড়যন্ত্র করে চলেছেন, কিভাবে ভোট ভেস্তে দেয়া যায়। ভোটে ‘রিগিং’ হবে বলে অমূলক প্রচার চালিয়ে যাচ্ছেন। সবই নির্বাচনের বিশ্বাসযোগ্যতা নষ্ট করতে।       ইমরান আরও বলেন, আন্তর্জাতিক স্তরে দেশের সেনাবাহিনীকে গালমন্দ করাটা
ইতালিতে বরিশাল বিভাগ সমিতির বার্ষিক বনভোজন

ইতালিতে বরিশাল বিভাগ সমিতির বার্ষিক বনভোজন

ইতালিতে পিরোজপুর জেলা সমিতি, বরিশাল বিভাগ যুব সমিতি ও বরিশাল জেলা সমিতির সার্বিক সহযোগিতায় বার্ষিক বনভোজন ও শিক্ষা সফর অনুষ্ঠিত হয়েছে। প্রতি বছরের মতো এবারও বনভোজনের আয়োজন করে ইতালির বরিশাল বিভাগ সমিতি। ‘সম্প্রীতির ভ্রাতৃত্বের বন্ধনে আমরা’ স্লোগানকে সামনে রেখে রোববার (২২ জুলাই) এ বনভোজনের আয়োজন করা হয়। এতে রোম থেকে চারটি বাসযোগে প্রায় তিন শতাধিক প্রবাসী অংশগ্রহণ করেন।   প্রবাসে শত ব্যস্ততার মাঝে একটু প্রশান্তির জন্য ইতালি প্রবাসী বরিশাল বিভাগ সমিতি ছুটে চলে প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আর সবুজের সমারোহে ঘেরা পিয়েডিলুকো লেক তেরনিতে। প্রকৃতির এই অজানা মনোমুগ্ধকর সৌন্দর্য উপভোগ করে মন যেন অজানা গন্তব্যে হারিয়ে যায়। মনোমুগ্ধকর পরিবেশ, নানা রকম খেলাধুলা আর কৌতুক, হাসি, আনন্দ, আড্ডায় মেতে ছিলেন বনভোজনে আসা অতিথিগণ। দিনব্যাপী এ বনভোজনে মধ্যাহ্নভোজ শেষে র‍্যাফেল ড্র, ক্রীড়া প্রতিযোগিতা, আলোচনা ও
মাটির নিচে ভিন্ন জগৎ!

মাটির নিচে ভিন্ন জগৎ!

আমি কলকাতার বেশ কয়েকটি স্থান ঘুরে এলাম। স্মৃতিতে গেঁথে রাখা সেখানকার কিছু কথা বলব আজ। রিমঝিম বৃষ্টির দুপুর। কলকাতার বোটানিক্যাল ও নন্দন ঘুরে পাতাল রেলের সন্ধান করতে লাগলাম। অবশ্য কিছুক্ষণের মধ্যেই জানতে পারলাম, আমি যেখানে দাঁড়িয়ে আছি তার পাশেই পাতাল রেলের স্টেশন! তারপর গেলাম স্টেশনের প্রবেশ পথে।   সিঁড়ি দিয়ে মাটির নিচে নামতে শুরু করলাম। কিছুক্ষণ যেতেই পেয়ে গেলাম স্টেশন। স্টেশনে পৌঁছেই অবাক হলাম! কারণ গভীর মাটির নিচে স্টেশনটি দেখে মনে হয়েছে, যেন আরেকটি জগতে চলে এলাম। এজন্য এমন অবাক হওয়াটা খুব অস্বাভাবিক নয়।   সেখানকার টিকিট কাউন্টারে শত শত মানুষের ভিড়। লোকে লোকারণ্য স্টেশনের প্লাটফর্ম দেখে বোঝার উপায় নেই যে, মাটির উপরে আছি নাকি নিচে! মাটির উপরের রেল স্টেশনগুলোতে যেমন ভিড় দেখেছি, মাটির নিচেরও ঠিক তেমনটি দেখলাম।   লাইনে দাঁড়িয়ে টিকিট কাটলাম। সেখানে টিকিটের দাম
সৌন্দর্য বাড়াতে বাদামের ফেসপ্যাক

সৌন্দর্য বাড়াতে বাদামের ফেসপ্যাক

বাদাম দিয়ে বানানো যায় এমনকিছু ফেসপ্যাক, যা নিয়মিত মুখে লাগালে স্কিন টোনের উন্নতি তো ঘটবেই, সেইসঙ্গে আরও নানাবিধ উপকার মিলবে। শুধু তাই নয়, দূরে থাকা সম্ভব হবে জটিল সব ত্বকের রোগের থেকেও। চলুন জেনে নেই বাদামের ফেসপ্যাক তৈরি ও ব্যবহারের নিয়ম-   আরও পড়ুন: রিবন্ডেড চুলের যত্ন নেবেন যেভাবে নিয়মিত বাদাম খেলে ও বাদামের ফেসপ্যাক মুখে মাখলে ত্বকে এমনকিছু উপাদানের মাত্রা বৃদ্ধি পেতে শুরু করবে যে ত্বকের হারিয়ে যাওয়া আর্দ্রতা তো ফিরে আসবেই, সেইসঙ্গে সৌন্দর্যও বৃদ্ধি পাবে চোখে পরার মতো। এই ফেসপ্যাকটি বানাতে প্রয়োজন পরবে অল্প পরিমাণে গুঁড়ো বাদাম, ওটস এবং দুধের। এই তিনটি উপাদান একসঙ্গে মিশিয়ে বানিয়ে ফেলতে হবে একটি পেস্ট। তারপর সেটি মুখে লাগিয়ে ১০-১৫ মিনিট অপেক্ষা করে ভালো করে ধুয়ে ফেলতে হবে। এইভাবে সপ্তাহে ৩-৪ দিন ত্বকের পরিচর্যা করলেই দেখবেন ফল মিলতে শুরু করেছে।   ত্বকে
ছন্নছাড়া দলটিই মাশরাফি ম্যাজিকে আবার ‘টিম বাংলাদেশ’

ছন্নছাড়া দলটিই মাশরাফি ম্যাজিকে আবার ‘টিম বাংলাদেশ’

‘তবে কি তিনি জাদু জানেন? তার হাতে কি তাহলে আলাদিনের চেরাগ আছে, কিংবা এমন কোনো জাদুর কাঠি? যার পরশে বদলে যায় একটি দলের পুরো চালচিত্র, চেহারা। নাহ, জাদু জানবেন কি করে? তিনি তো আর জাদুকর নন। ক্রিকেটার। সখেও জাদু-টাদু দেখান- শুনিনি কখনো। তাহলে, কেন তার স্পর্শে বারবার টিম বাংলাদেশের চেহারা বদলে যায়? এর রহস্যই বা কি?’   সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এক অনুজ প্রতিমের স্ট্যাটাস! সত্যিই তাকে নিয়ে এখন কত কথা! নানা প্রশ্ন। রাজ্যের কৌতুহল। তিনি কি শুধুই একজন মানুষ কিংবা একজন ক্রিকেটার? মূলতঃ তিনি তো একজন পেস বোলার। যার নিচের দিকে একটু আধটু ব্যাট করার ক্ষমতাও আছে। সে সঙ্গে তার আরও একটি বড় পরিচায়, তিনি বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের ওয়ানডে অধিনায়ক।       ব্যাস এইটুকুতেই কি শেষ? না নড়াইলের চিত্রা নদীর পাড়ে বেড়ে ওঠা ৩৪ বছরের সাহসী, উচ্ছল, প্রাণখোলা, সহজ-সরল জীবন যাপনে অভ্যস্ত অথচ বল