এশিয়া

কলকাতা পেল প্রথম মুসলিম মেয়র

কলকাতা পেল প্রথম মুসলিম মেয়র

ভারতের পশ্চিমবঙ্গের কলকাতা পৌর করপোরেশনের প্রথম মুসলিম মেয়র হলেন ফিরহাদ হাকিম। তিনি মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায় ও তার ভাতিজা অভিষেকের বেশ ঘনিষ্ঠ বলে জানা গেছে।-খবর এনডিটিভি পশ্চিমবঙ্গের পৌর ও নগর উন্নয়নমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম বৃহস্পতিবার মেয়র হিসেবে দায়িত্ব পান। সাবেক মেয়র ও মন্ত্রী শোভন চট্টোপাধ্যায় পদত্যাগের পর পরই তাকে এ দায়িত্ব দেয়া হয়। একই সঙ্গে শহরটির ডেপুটি মেয়র ইকবাল আহমেদের স্থানে আনা হচ্ছে অতীন ঘোষকে। পৌর করপোরশনের কাউন্সিলর না হওয়া সত্ত্বেও ফিরহাদকে মেয়র বানানো হয়েছে। এজন্য বৃহস্পতিবার বিধানসভায় পৌর করপোরেশন আইনে সংশোধনী আনা হয়। সংশোধনীতে বলা হয়, কাউন্সিলর ছাড়াও অন্য কাউকে মেয়র পদে বসানো যাবে। তবে তাকে পরবর্তী ছয় মাসের মধ্যে করপোরেশনের কোনো এলাকা থেকে কাউন্সিলর হয়ে আসতে হবে।  
কলকাতায় বাংলাদেশ বইমেলা শুরু ২ নভেম্বর

কলকাতায় বাংলাদেশ বইমেলা শুরু ২ নভেম্বর

কলকাতায় বাংলাদেশ বইমেলা শুরু হচ্ছে ২ নভেম্বর শুক্রবার থেকে। ৯ দিনব্যাপী এই মেলা চলবে ১১ নভেম্বর পর্যন্ত। মেলা এবারেরও বসবে কলকাতার রবীন্দ্র সদনের কাছে ঐতিহ্যবাহী মোহরকুঞ্জ প্রাঙ্গণে। বাংলাদেশে প্রকাশিত বিভিন্ন বই নিয়ে প্রতিবছর আয়োজিত এই বইমেলা এবার ৮ম বারের মতো আয়োজিত হচ্ছে। এবারের বইমেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন বাংলাদেশের অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। থাকবেন পশ্চিমবঙ্গের বিদ্যুৎমন্ত্রী শোভন দেব চট্টোপাধ্যায়, বাংলা একাডেমির সাবেক মহাপরিচালক শামসুজ্জামান খান। সভাপতিত্ব করবেন কলকাতায় নিযুক্ত বাংলাদেশের উপ-হাইকমিশনার তৌফিক হাসান। থাকবেন পশ্চিমবঙ্গের শিল্পসাহিত্য মহলের অনেকেই। প্রতিদিন এই মেলা চলবে বেলা ২টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত। তবে শনি ও রোববার মেলা চলবে রাত সাড়ে ৮টা পর্যন্ত। বাংলাদেশের বিভিন্ন শীর্ষস্থানীয় সৃজনশীল প্রকাশনা প্রতিষ্ঠান এই মেলায় অংশগ্রহণ
বিএনপি নেতা সালাউদ্দিনকে বেকসুর খালাস দিয়েছেন ভারতের আদালত’

বিএনপি নেতা সালাউদ্দিনকে বেকসুর খালাস দিয়েছেন ভারতের আদালত’

ভারতের শিলংয়ের একটি আদালত বিএনপি নেতা সালাউদ্দিন আহমেদকে বেকসুর খালাস দিয়েছেন বলে জানিয়েছেন বিএনপি নেতারা। বেআইনিভাবে ভারতে প্রবেশের অভিযোগ ছিল তার বিরুদ্ধে। আজ শুক্রবার শিলংয়ের আদালত ফরেনার্স অ্যাক্টের ওই মামলায় তাকে খালাস দেন। বিএনপি চেয়ারপারসনের মিডিয়া উইংয়ের সদস্য শায়রুল কবির খান বাংলা ট্রিবিউনকে এই তথ্য জানান। ২০১৫ সালের মার্চে ঢাকার উত্তরা থেকে নিখোঁজ হওয়ার প্রায় দুই মাস পর মে মাসে ভারতে মেঘালয়ের রাজধানী শিলংয়ের একটি রাস্তায় উদভ্রান্ত অবস্থায় উদ্ধার করা হয় সালাউদ্দিন আহমেদকে। তবে কে বা কারা তাকে ওখানে নিয়ে এসেছিল বা কীভাবে তিনি ঢাকা থেকে শিলংয়ে এসে উপস্থিত হলেন, সে ব্যাপারে সালাউদ্দিন আহমেদ কিছুই জানাতে পারেননি। তবে পরিবারের অভিযোগ ছিল, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা তাকে উত্তরার বাসা থেকে তুলে নিয়ে গেছে। ভারতে অনুপ্রবেশের অভিযোগে ২০১৫ সালের মার্চে বিএনপির এই নেতার বিরুদ্ধে মাম
হাতের বাজে লেখার জন্য তিন চিকিৎসককে ৫ হাজার টাকা করে জরিমানা

হাতের বাজে লেখার জন্য তিন চিকিৎসককে ৫ হাজার টাকা করে জরিমানা

হাতের বাজে লেখার জন্য ভারতের এলাহাবাদ হাইকোর্ট তিন চিকিৎসককে ৫ হাজার টাকা করে জরিমানা করেছেন। চিকিৎসকদের বাজে হাতের লেখার বিষয়টি আশ্চর্যের কিছু না হলেও উত্তর প্রদেশে বিষয়টি এখন আদালত আমলে নেয়ার নির্দেশ দিয়েছেন বলে জানিয়েছে টাইমস অব ইন্ডিয়া। গত সপ্তাহে তিনটি মামলার শুনানিকালে চিকিৎসকদের হাতের লেখার বিষয়টি আদালতের নজরে আসে। ভুক্তভোগিদের হাসপাতাল থেকে যে রিপোর্ট দেয়া হয়েছিল তাতে চিকিৎসকদের হাতের লেখা ছিল পড়ার অযোগ্য। আদালতের বেঞ্চটি বিষয়টিকে আদালত কার্যক্রমের ক্ষেত্রে বাধা হিসেবে বিবেচনা করে তিন চিকিৎসককে তলব করেন। এই তিন চিকিৎসক হলেন উনানো নামের একটি হাসপাতালের চিকিৎসক ডাঃ টিপি জায়িসওয়াল, সীতাপুর হাসপাতালের চিকিৎসক ডাঃ পিকে গোয়েল এবং গোন্ডা হাসপাতালের চিকিৎসক ডাঃ আশীষ সাকসেনা। পরে আদালত তাদের ৫ হাজার টাকা করে আদালতের পাঠাগারে জরিমানা দিতে বলেছেন। চিকিৎসকরা আদালতে জবানবন্দি দিয়েছেন, ভবিষ্যতে

মহাত্মা গান্ধী ছিলেন মানবতার প্রতীক

ভারতীয় স্বাধীনতা আন্দোলনের মহাপুরুষ, বিশ্ব শান্তির দূত মহাত্মা গান্ধীর ১৫০তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত সেমিনারে বক্তারা বলেছেন, মহাত্মা গান্ধী ছিলেন সত্যাগ্রহ আন্দোলনের প্রতিষ্ঠাতা। সারা বিশ্বে মুক্তিকামী মানুষের অন্যতম প্রেরণার উৎস ছিলেন মহাত্মা গান্ধী। মহাত্মা গান্ধী ছিলেন মানবতার প্রতীক। তার আদর্শ, জীবন ও শিক্ষা সবার জন্য অনুকরণীয়। তিনি ছিলেন সারা বিশ্বের শান্তিপ্রিয় মানুষের প্রেরণার উৎসব। সোমবার সন্ধ্যায় রাজধানীর সিরডাপ মিলনায়তনে বাংলাদেশ-ভারত মৈত্রী সমিতির উদ্যোগে ‘মহাত্মা গান্ধী এবং বিশ্ব শান্তি’ শীর্ষক সেমিনারে বক্তারা এসব কথা বলেন। সমিতির সভাপতি বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিসি অধ্যাপক ড. এ কে আজাদ চৌধুরী’র সভাপতিত্বে সেমিনারে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, ভারতীয় হাইকমিশনের প্রথ
‘ভারতের সঙ্গে যুদ্ধ কোনো সমাধান নয়’

‘ভারতের সঙ্গে যুদ্ধ কোনো সমাধান নয়’

ভারতের সঙ্গে যুদ্ধ কোনো সমাধান নয়। এ ছাড়া ভারত ও যুক্তরাষ্ট্রের মতো দুটি গুরুত্বপূর্ণ দেশের সঙ্গে উত্তেজনাকর সম্পর্ক উত্তরাধিকার সূত্রে পেয়েছে পাকিস্তানের বর্তমান সরকার। দক্ষিণ এশিয়ায় শান্তি প্রতিষ্ঠার জন্য কাজ করার জন্য পাকিস্তানের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের একজন সিনিয়র কর্মকর্তা। তার জবাবে এসব কথা বলেছেন পাকিস্তানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী শাহ মেহমুদ কুরেশি। তবে বলেছেন, ভারত ও যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে সম্পর্ক উন্নত করার জন্য কাজ করে যাচ্ছে পাকিস্তানের নতুন সরকার। এর আগে বিবিসি উর্দুকে একটি সাক্ষাতকার দেন যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণ ও মধ্য এশিয়া বিষয়ক প্রিন্সিপাল ডেপুটি সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যালিস ওয়েলস। তিনি ওই সাক্ষাতকারে বলেন, দক্ষিণ এশিয়ার শান্তির জন্য আঞ্চলিক সমৃদ্ধি গুরুত্বপূর্ণ। একই সঙ্গে তিনি এ লক্ষ্যে কাজ করতে আহ্বান জানান পাকিস্তানের প্রতি। ২৬ শে জুলাই ভারতের প্রতি প্রধানমন্ত্র
কাশ্মীরে সেনাসদস্য ও বেসামরিক নাগরিক নিহত

কাশ্মীরে সেনাসদস্য ও বেসামরিক নাগরিক নিহত

ভারতনিয়ন্ত্রিত জম্মু ও কাশ্মীরে ভারতীয় নিরাপত্তা বাহিনীর অভিযানে এক সেনাসদস্য, এক বেসামরিক নাগরিক এবং গুলিবিদ্ধ হয়ে এক বিচ্ছিন্নতাবাদী নিহত হয়েছেন। রাজধানী শ্রীনগর থেকে ৬৫ কিলোমিটার দূরে অনন্তনাগের ধারুতে বৃহস্পতিবার ভোর হওয়ার আগেই এ সংঘর্ষে তারা নিহত হয়েছেন। সূত্র জানায়, লস্কর-ই-তৈয়বার শীর্ষ নেতা নাভিদ জাত নিরাপত্তা বাহিনীর ফাঁদে পড়লেও পালিয়ে যেতে সক্ষম হয়েছেন। গত ফেব্রুয়ারিতে কারাগার থেকে তাকে হাসপাতালে পরীক্ষার জন্য নেয়ার সময় দুই পুলিশকে গুলি করে তিনি পালিয়ে গিয়েছিলেন। এ ঘটনার সঙ্গে পরিচিত লোকজনরা বলেন, গত দুই সপ্তাহের মধ্যে দ্বিতীয়বারের মতো নিরাপত্তা ব্যূহভেদ করে বেরিয়ে গেছেন নাভিদ জাত। তবে পুলিশ বলছে, পলায়নের সময় তার শরীরে গুলিবিদ্ধ হয়েছিল। জ্যেষ্ঠ পুলিশ কর্মকর্তা মুনির আহমেদ খান বলেন, আমার মনে হয়েছে, তার শরীরে গুলি লেগেছে এবং তিনি আহত হয়েছেন। কিন্তু তিনি পালিয়ে য
মালদ্বীপে নির্বাচন চীনকে হারিয়ে জিতল ভারত!

মালদ্বীপে নির্বাচন চীনকে হারিয়ে জিতল ভারত!

ভারত মহাসাগরের দেশ মালদ্বীপ। ১২০০ ছোট ছোট দ্বীপ নিয়ে গঠিত দেশটির স্থলভাগের মোট আয়তন মাত্র ২৯৮ বর্গ কিলোমিটার। এই দেশটি নিয়েই কূটনৈতিক মহারণে দুই পরাশক্তি ভারত ও চীন। সম্প্রতি দেশটিতে অনুষ্ঠিত নির্বাচনে হেরে গেছেন চীনের পছন্দের আবদুল্লাহ ইয়ামিন। আবার শক্তিশালী হয়ে উঠছে ভারতপন্থী রাজনৈতিক দল। তবে কি মালদ্বীপে জিতেই গেল ভারত? বিশ্লেষকেরা বলছেন, এই প্রশ্নের নিখুঁত উত্তর এত সহজে মিলবে না। কারণ, চীনের ঋণের ফাঁদে আটকে পড়েছে মালদ্বীপ। সেই বৃত্ত থেকে মালদ্বীপকে পুরোপুরি বের করতে হলে মিলিয়ন মিলিয়ন ডলারের বস্তা নিয়ে হাজির হতে হবে ভারতকে। তবে সাম্প্রতিক নির্বাচনে বিরোধী প্রার্থী ইব্রাহিম মোহাম্মদ সলিহ জিতে যাওয়ায় ভারত যে কূটনৈতিক দ্বন্দ্বে বিজয়ী হয়েছে, তাতে কোনো সন্দেহ নেই। গত রোববার মালদ্বীপে প্রেসিডেন্ট নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এতে ৫৮ শতাংশ ভোট পেয়ে জিতেছেন ইব্রাহিম মোহাম্মদ সলিহ। নির্বাচনের ফল প
গুলিবিদ্ধ ভারতীয় বিমান বাহিনীর উপপ্রধান হাসপাতালে

গুলিবিদ্ধ ভারতীয় বিমান বাহিনীর উপপ্রধান হাসপাতালে

ভারতীয় বিমান বাহিনীর উপপ্রধান এয়ার মার্শাল এস বি ডিও গুলিবিদ্ধ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন। আজ বৃহস্পতিবার এ খবর দিয়েছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস। সূত্রের উদ্ধৃতি দিয়ে ভারতীয় এ দৈনিকটি বলছে, ধারণা করা হচ্ছে তিনি ভুলবশত নিজের গুলিতেই বিদ্ধ হয়েছেন। বুধবার গুলিবিদ্ধ হওয়ার পর বিমানবাহিনীর উপপ্রধানকে নয়াদিল্লির একটি সামরিক হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে তার অস্ত্রোপচার সম্পন্ন হয়েছে। বর্তমানে এয়ার মার্শাল এস বি ডিও’র অবস্থা স্থিতিশীল। তিনি চলতি বছরের জুলাইয়ে ভারতীয় বিমান বাহিনীর উপপ্রধান হিসেবে দায়িত্ব নেন ।
ভারতের সঙ্গে জনগণ কোনো গোপন চুক্তি মেনে নেবে না: বিএনপি

ভারতের সঙ্গে জনগণ কোনো গোপন চুক্তি মেনে নেবে না: বিএনপি

ভারতের সঙ্গে সামরিক চুক্তি হলে তা আত্মঘাতী এবং জাতীয় স্বাধীনতা বিরোধী হবে বলে দাবি করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। তিনি বলেছেন, ‘বাংলাদেশের নিরাপত্তা যদি ভারতের ওপর নির্ভরশীল হয় এবং ভারতের ইচ্ছা অনুযায়ী যদি প্রতিরক্ষা নীতি গ্রহণ করতে হয়, তাহলে দেশের স্বাধীনতা ও স্বার্বভৌমত্ব বলে কিছু থাকবে না।’ বুধবার দুপুরে রাজধানীর নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন রিজভী। জনগণ কোনো গোপন চুক্তি মেনে নেবে না জানিয়ে বিএনপির এই জ্যেষ্ঠ নেতা বলেন, প্রধানমন্ত্রীর আসন্ন ভারত সফরে ভারতের প্রধান চাহিদা প্রতিরক্ষা চুক্তি। এছাড়াও আরও দুই চুক্তির কথা শোনা যাচ্ছে। তাই জনগণকে অবহিত না করে কোনো গোপন চুক্তি করলে কেউ তা মেনে নেবে না। সর্বশক্তি দিয়ে দাসত্বের শৃঙ্খলে বাধার এমন চুক্তি জনগণ, রাজনৈতিক দল ও বিভিন্ন সংগঠন প্রতিহত করবে। রিজভী বলেন, ‘আমরা আগেই বলেছি, ভার