কানাডা

চাকুরী প্রার্থীদের তথ্য দিয়ে টরন্টোয় বিজয় দিবস উদযাপন

চাকুরী প্রার্থীদের তথ্য দিয়ে টরন্টোয় বিজয় দিবস উদযাপন

কানাডায় সরকারী চাকুরী পেতে হলে কী করতে হবে? পেশাগত চাকুরী পেতে রেজ্যুমেটা কেমন হওয়া দরকার? জব সার্চে সফল হওয়ার কৌশলগুলো কী কী এসব তথ্য প্রদানের মাধ্যামে টরন্টোতে বিজয় দিবস উদযাপন করেছে বেঙ্গলী ইনফরমেশন এন্ড এমপ্লয়মেন্ট সার্ভিসেস (বায়েস)। বাংলাদেশের ৪৬তম বিজয় দিবস উপলক্ষ্যে  টরন্টোর ডেনফার্থস্থ এক্সেস পয়েন্টে ১৬ ডিসেম্বর এক আলোচনা অনুষ্ঠান ও কর্মাশালার আয়োজন করে বায়েস।   বায়েসের নির্বাহী পরিচালক ইমাম উদ্দিন এর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানের শুরুতে বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধের বীর শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে বক্তব্য রাখেন মিডিয়া ব্যক্তিত্ব আসমা আহমেদ। শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন বায়েসের সিনিয়র গ্রুফের সদস্য ফখরুদ্দিন আহমেদ। আসমা আহমেদ বলেন, বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে মুক্তিযোদ্ধারা আমাদের একটি দেশ দিয়েছে। এমনকি একাত্তরের পনেরই ডিসেম্বর আমরা জানতাম না যে স্বাধীন বাংলাদেশ আমরা পাবো। স্বাধীনতার সে স্বাধ নিয়ে
নিজ বাড়ী থেকে কানাডার অন্যতম শীর্ষ ধনাঢ্য দম্পতির মৃতদেহ উদ্ধার

নিজ বাড়ী থেকে কানাডার অন্যতম শীর্ষ ধনাঢ্য দম্পতির মৃতদেহ উদ্ধার

কানাডার অন্যতম শীর্ষ ধনী দম্পতি  বেরি শারম্যান এবং হানি শারম্যানের  মৃতদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বেভিউ এলাকায় অবস্থিত তাদের ‘ম্যানসন’ থেকে দুজনের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়। এটি হত্যা না কি কোনো ধরনের দুর্ঘটনা সে ব্যাপারে পুলিশ কিছুই জানাতে সম্মত হয়নি। পুলিশ বলেছে, নিশ্চিত না হওয়া পর্যন্ত পুলিশ এই ব্যাপারে কোনো মন্তব্য করবে না। পুলিশ বলেছে, কোনো কিছু নিশ্চিত না হওয়া পর্যন্ত ঘটনার গোপনীয়তা রক্ষা করা পরিবারের অধিকারের মধ্যে পরে।   ৪.৬  বিলিয়ন সম্পদের মালিক কানাডার ১৫তম ধনাঢ্য ব্যক্তি ৭৫ বছর বয়স্ক বেরি শারম্যান খ্যাতিমান জেনেরিক ওষুধ প্রস্তুতকারক কোম্পানি ‘অ্যাপোটেক্স’ এর প্রতিষ্ঠাতা মালিক।  প্রতিষ্ঠানটিতে বিপুল সংখ্যক বাংলাদেশি কাজ করেন।   পুলিশ জানায়, মৃত্যুর পারিপার্শ্বিক পরিবেশ তাদের কাছে সন্দেহজনক। তবে এই মহির্তে তারা কোনো সন্দেভাজনের সন্ধান করছেন না। বেরি শারম্যানের বাড়ীর
সিআরইএ’র পূর্বাভাষ: আগামী বছর বাড়ী বিক্রি ৫.৩ শতাংশ কমবে

সিআরইএ’র পূর্বাভাষ: আগামী বছর বাড়ী বিক্রি ৫.৩ শতাংশ কমবে

নতুন বছরে কানাডায় বাড়ী বিক্রির পরিমান ৫.৩ শতাংশ কমে যাবে বলে ধারনা করা হচ্ছে।  কানাডা রিয়েল এস্টেট এসোসিয়েশন (সিআরইএ) ২০১৮ সালের বিক্রির লক্ষমাত্রার  প্রক্কলন পর্যালোচনা করে তাদের পূর্বাভাষের পরিবর্তন করেছে।সংস্থাটি তাদের  আগের পূর্বাভাষের চেয়ে ৮ হাজার ইউনিট কমিয়ে  নতুন বছরে ৪৮৬,৬০০ বাড়ী বিক্রি হবে বলে পূর্বাভাষ দিচ্ছে।   একই সাথে ২০১৮ সালে বাড়ীর দর ১.৪ শতাংশ কমে যাবে বলে পূর্বাভাষ  দিয়েছে সংস্থাটি।   আগামী ১ জানুয়ারি থেকে চালু হওয়ার অপেক্ষায় থাকা  মর্টগেজের নতুন নিয়মের সম্ভাব্য প্রতিক্রিয়া বিবেচনায় নিয়ে সিআরইএ  পূর্বাভাষ পরিবর্তনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলে বৃহস্পতিবার এক ঘোষনায় জানিয়েছে।   কানাডা রিয়েল  এস্টেট এসোসিয়েশন বলছে,   ক্রেতাদের একটি অংশ মর্টগেজের নতুন নিয়ম কার্যকর  হওয়ার  আগেই বাড়ী কেনার সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত করার চেষ্টা করছে। আরেকটি অংশ আবার ধীরে চলার স
কানাডার নতুন প্রধান বিচারপতি হলেন রিচার্ড ওয়াগনার

কানাডার নতুন প্রধান বিচারপতি হলেন রিচার্ড ওয়াগনার

কুইবেকের আপিল আদালতের বিচারক রিচার্ড ওয়াগনার কানাডার নতুন  প্রধান বিচারপতি হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন। মঙ্গলবার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো রিচার্ড ওয়াগনারকে প্রধান বিচারপতি হিসেবে মনোনয়নের ঘোষনা দিয়ে বলেন, তাকেঁ প্রধান বিচারপতি হিসেবে পাওয়া কানাডার জন্য সম্মানের ব্যাপার।   দীর্ঘ ২৮ বছরের বিচারক জীবনের ১৮ বছর প্রধানবিচারপতি হিসবে দায়িত্ব পালনের পর বেভারলি ম্যাকলাকলিন অবসরে যাওয়ায়  রিচার্ড ওয়াগনার  তাঁর স্থলাবিষিক্ত হচ্ছেন।   কানাডায় প্রধান বিচারপতি নিয়োগের ক্ষেত্রে  কমন ল এবং সিভিল ল বিচারকদের মধ্যে থেকে একেক বছর একেজনকে বাছাই করা হয়। বেভারলি ম্যাকলাকলিন এর পর এবার ফরাসী ভাষী  বিচারক  হিসেবে কুইবেকের বিচারকদের কেউ একজন প্রধান বিচারপতিদের দায়িত্ব পাবেন- এটা প্রায় নিশ্চিতই  ছিলো। প্রথান অনুসরন করতে গিয়ে জাস্টিন ট্রুডোকে তার শাসনামলের পুরো মেয়াদের জন্যই একজন ‘আধুনিক রক্ষণশীল’
৭ মার্চের ভাষণের স্বীকৃতিতে কানাডায় শোভাযাত্রা

৭ মার্চের ভাষণের স্বীকৃতিতে কানাডায় শোভাযাত্রা

বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণের আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি উপলক্ষে কানাডায় আনন্দ শোভাযাত্রা করেছে বাংলাদেশ দূতাবাস।   স্থানীয় সময় রোববার বাংলাদেশ হাইকমিশন কার্যালয় থেকে এ আনন্দ শোভাযাত্রা বের করা হয়।   কানাডায় নিযুক্ত বাংলাদেশের হাইকমিশনার মিজানুর রহমানের নেতৃত্বে র‍্যালিটি ৩৫০ স্পার্কস স্ট্রিট থেকে লায়ন স্ট্রিট অতিক্রম করে কানাডিয়ান ডিপার্টমেন্ট অব জাস্টিস ভবনের পাদদেশ হয়ে কেন্ট স্ট্রিট পেরিয়ে স্পার্কস ও ব্যাংক স্ট্রিটের সম্মেলনস্থলে গিয়ে শেষ হয়।     শোভাযাত্রার শুরুর আগে বক্তব্য দেন নাগরিক সমাজের প্রতিনিধি মমতা দত্ত, অধ্যাপক নূরুল হক, অটোয়া আওয়ামী লীগের সভাপতি অধ্যাপক ওমর সেলিম শের ও বাংলাদেশ হাইকমিশনের মিনিস্টার নাঈম উদ্দিন আহমেদ। হাইকমিশনার মিজানুর রহমান বলেন, “বাঙালি জাতির জীবনে ১৯৭১ হচ্ছে সবচাইতে গুরুত্ব ও তাৎপর্যপূর্ণ মাহেন্দ্রক্ষণ । স্বাধীনতা সংগ্র
জালালাবাদ এসোসিয়েশন অফ টরোন্টোর ট্রাস্টী-উপদেষ্টামণ্ডলীর পরিচিতি সভা

জালালাবাদ এসোসিয়েশন অফ টরোন্টোর ট্রাস্টী-উপদেষ্টামণ্ডলীর পরিচিতি সভা

টরোন্টোর বার্চমাউন্ট রোডস্থ গ্রান্ড প্যালেস কনভেনশনহলে গত ১০ই ডিসেম্বর (রবিবার) জালালাবাদ এসোসিয়েশন অফ টরোন্টোর কার্যকরী কমিটির উদ্যোগে অনুষ্ঠিত হলো এসোসিয়েশনের ট্রাস্টি ওউপদেষ্টামন্ডলীদের পরিচিতি সভা এবং তাঁদের সম্মানার্থে এক বিশেষ নৈশভোজের।টরন্টো এবং জি,টি,এ তে বসবাসরতজালালাবাদ কম্যুনিটির উল্লেখযোগ্য সংখ্যক বিশিষ্ট ও সর্বজনশ্রদ্ধেয় ব্যাক্তিবর্গ উক্ত নৈশভোজে অংশগ্রহণ করেন।অনেকে স্বপরিবারেও অংশগ্রহণ করেন। অনুষ্ঠান শুরুর পূর্বে আগত অতিথিদের সুস্বাদু এপেটাইজার দিয়ে আপ্যায়নকরা হয়।অনুষ্ঠানের শুরুতেই কানাডা ও বাংলাদেশের জাতীয় সংগীত পরিবেশন করা হয়।এরপর এসোসিয়েশনেরপ্রেসিডেন্ট দেবব্রত দে (তমাল) এবং সাধারণ সম্পাদক মাহবুব চৌধুরী (রনি) আগত অতিথিদের ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেস্বাগত বক্তব্য রাখেন।পরবর্তীতে জালালাবাদ এসোসিয়েশন অফ টরোন্টোর পূর্ববর্তী কার্যকরী কমিটির প্রেসিডেন্ট ওসাধারণ সম্পাদক যথাক্রমে
কানাডায় প্রগতিশীল গণতান্ত্রিক উদ্যোগের শোকসভা

কানাডায় প্রগতিশীল গণতান্ত্রিক উদ্যোগের শোকসভা

প্রয়াত মুক্তিযোদ্ধা আ ফ ম মাহবুবুল হক ও মেয়র আনিসুল হক স্মরণে শোকসভা করেছে ‘প্রগতিশীল গণতান্ত্রিক উদ্যোগ (পিডিআই), কানাডা শাখা’।   স্থানীয় সময় ৩ ডিসেম্বর রোববার বিকালে কানাডার টরন্টোতে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।   সভায় বাংলাদেশের সাম্প্রতিক রাজনৈতিক পরিস্তিতি নিয়ে আলোচনা ও সংগঠনের ভবিষ্যৎ কর্মসূচি নিয়েও আলোচনা করা হয়।   সভায় গৃহীত শোকপ্রস্তাবে বলা হয়, “মুক্তিযোদ্ধা ও রাজনীতিবিদ আ ফ ম মাহবুবুল হকের জীবন ছিল শ্রমজীবী মানুষের মুক্তির রাজনীতি, সমাজতন্ত্রের জন্য নিবেদিত। তিনি প্রবাসে বসেও মানুষের মুক্তির স্বপ্ন থেকে পিছিয়ে আসেননি এবং তিনি রাজনীতির সাথে যুক্ত থাকতেন। তাঁর মৃত্যুতে দেশের প্রগতিশীল আন্দোলন ও শ্রমজীবী মানুষের আন্দোলন ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে।”   এছাড়াও সংগঠনটি ঢাকা উত্তরের মেয়র ব্যবসায়ী আনিসুল হকের মৃত্যুতে শোক জানিয়েছে।   পিডিআই-এর পক্ষ থেকে
ম্যানিটোবায় কানাডার বাংলাদেশ হাইকমিশনের বিশেষ কন্স্যুলার সেবা

ম্যানিটোবায় কানাডার বাংলাদেশ হাইকমিশনের বিশেষ কন্স্যুলার সেবা

ম্যানিটোবাস্থ বাংলাদেশিদের প্রতিনিধিত্বকারী সংগঠন কানাডা-বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন (সিবিএ) এবং অটোয়াস্থ বাংলাদেশ হাইকমিশনের যৌথ ব্যবস্থাপনায় ম্যানিটোবায় বসবাসরত বাংলাদেশি প্রবাসী ও অভিবাসীদের জন্য তিনদিনব্যপী বিশেষ কন্স্যুলার সেবা প্রদান করা হয়।   কানাডায় নিযুক্ত বাংলাদেশের হাইকমিশনার জনাব মিজানুর রহমানের নেতৃত্বে ছয় সদস্যবিশিষট কন্স্যুলার সেবা প্রদানকারী দল ৪ ডিসেম্বত হতে ৬ ডিসেম্বর পর্যন্ত ম্যানিটোবাস্থ বাংলাদেশীদের প্রত্যক্ষ সহায়তা দেন। এই সর্বাংগীন সেবা কার্যক্রমের মধ্যে ছিল হাতে লেখা পাসপোর্ট প্রতিস্থাপন,  নতুন মেশিন রিডেবল পাসপোর্ট প্রাপ্তি ও নবায়ন, এবং নাগরিকত্ব, জন্ম-নিবন্ধন ও  ভোটার কার্ড এর আবেদনপত্র গ্রহণ, ফরম পুরণের খুঁটিনাটি সরাসরি তত্ত্বাবধান, প্রয়োজনীয় পরামর্শ দান, এবং আবেদনকারীদের ছবি ও আঙ্গুলের ছাপ গ্রহণ বা বায়োমেট্রিক তথ্য নিবন্ধন।   সিবিএ সভাপতি মিসেস ন
হাইকমিশনারের সম্মানে উইনিপেগে ম্যানিটোবা আওয়ামী লীগ ও কানাডা ছাত্রলীগের মধ্যাহ্নভোজ

হাইকমিশনারের সম্মানে উইনিপেগে ম্যানিটোবা আওয়ামী লীগ ও কানাডা ছাত্রলীগের মধ্যাহ্নভোজ

কানাডায় নিযুক্ত বাংলাদেশের  হাইকমিশনার  মিজানুর রহমানের  উইনিপেগ সফর উপলক্ষ্যে মানিটোবা আওয়ামীলীগ ও কানাডা ছাত্রলীগ এক মধ্যান্মভোজনের আয়োজন করে ।   এতে আরও উপস্থিত ছিলেন  সম্মানিত ফার্স্ট সেক্রেটারি (কমার্স) জনাব দেওয়ান মাহমুদ, মানিটোবা আওয়ামীলীগের আহবায়ক সারোয়ার মিয়া, যুগ্ন আহবায়ক মনিরুজ্জামান সজল , সদস্য শাহনেওয়াজ শাহীন, কানাডা ছাত্রলীগের সহসভাপতি পূজনদাশ, যুগ্ন সাধারন সম্পাদক সাজ্জাদ হোসেন, ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক তিহামী চৌধুরী, আপ্যায়ন বিষয়ক সম্পাদক জয়নাল আবেদিন, পাঠাগার সম্পাদক আরাফাতুর রহমান সহ প্রমূখ।   অনুষ্ঠানে  হাই কমিশনার মিজানুর রহমান  বঙ্গবন্ধুর আত্মস্বীকৃত খুনি নূর চৌধুরিকে দেশে ফেরত পাঠানোর ব্যপারে করনীয় সম্পর্কে আলোকপাত করেন ও কিভাবে বাঙালী কমিউনিটিকে সম্পৃক্ত করে এই বিষয়টিকে কানাডা সরকারের নজরে আনা যায় সে ব্যপারে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিতে দিকনির্দেশনা দেন।
টরোন্টোর প্রথম বাঙালী সিনিয়রদের প্রোগ্রাম হারমনি হল- এর দশ বৎসর পূর্তি উদযাপন

টরোন্টোর প্রথম বাঙালী সিনিয়রদের প্রোগ্রাম হারমনি হল- এর দশ বৎসর পূর্তি উদযাপন

টরোন্টোর প্রথম বাঙালী সিনিয়রদের হারমনি হল -(২০০৭-২০১৭) পূর্ণ করলো এর দশ বৎসর। অত্যন্ত জাকজমক পূর্ণ ভাবে গত ২৫শে নভেম্বর  দশ বৎসর পূর্তি উদযাপন করা হলো ২ গাওয়ার স্ট্রিটে হারমনি হল এর অডিটোরিয়ামে।বরণ করে নেয়া হলো স্বীকৃতি সনদপত্র দিয়ে এর প্রতিষ্ঠাতা সদস্যদের এবং যারা গত দশ বৎসর ধরে হারমনি হল এর সাথে আছেন ।   এই মিলন মেলায় উপস্থিত ছিলেন সাউথ রিভারডেল কমিউনিটি হেলথ সেন্টারে এর সি.ই.ও লিন রাসকিন, ম্যানেজার ডেভিড লিভিংস্টোন লু,  বিচেস ও  ইস্ট ইয়র্ক এম পি নেথেনিয়েল এরকিন্সন স্মিথ, সিটি কাউন্সিলর জ্যানেট ডেভিস, বাঙালী কমুনিটির গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ এবং হারমনি হল এর সদস্যবৃন্দ।   যার নেতৃত্বে এই সিনিয়র প্রোগ্রাম এর সূচনা প্রোগ্রাম কোঅর্ডিনেটর নাজলী সুলতানা গত দশ বছরে গৃহীত কার্যক্রমের সফলতার দিক গুলো সুন্দর ভাবে তুলে ধরেন। নাজলী সুলতানা বলেন, “ আমাদের সবচেয়ে পরম পাওয়া হলো এই প