পলিটিকস

ক্ষমতায় গেলে যেসব কাজ করবে ঐক্যফ্রন্ট, জানালেন জাফরুল্লাহ

ক্ষমতায় গেলে যেসব কাজ করবে ঐক্যফ্রন্ট, জানালেন জাফরুল্লাহ

বাংলাদেশে ক্ষমতার বাতাস বদলে গেছে এবং নৌকার পাল ইতিমধ্যে ফিরে গেছে বলে মন্তব্য করেছেন গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী। গতকাল রাজধানীর গুলশানে এক আলোচনা সভা শেষে মানবজমিনের সঙ্গে একান্ত আলাপচারিতায় তিনি এ মন্তব্য করেন। এ সময় তিনি ঐক্যফ্রন্ট ক্ষমতায় গেলে যেসব উদ্যোগ নেবে  তার বিস্তারিত তুলে ধরেন। ডা. জাফরুল্লাহ বলেন, আমাদের জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট নির্বাচনে জয়ী হলে কে প্রধানমন্ত্রী হবেন সেটা জানি না। সেটা আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেয়ার বিষয়। তবে এটা বলতে পারি সুন্দর বাংলাদেশ হবে। পরিবর্তন আসছে। বাতাস বদলে গেছে। নৌকার পাল এবার ফিরে গেছে। তিনি বলেন, আমরা বাস্তবমূখী কাজ করতে চাই। আজগুবি কথা বলতে চাই না। যেমন ধরুন, জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট ক্ষমতায় আসলে তিন মাসের মধ্যে ওষুধের দাম অর্ধেক হয়ে যাবে। ডায়াগনসিস করতে এখন যতো টাকা খরচ হয় তার চেয়ে অর্ধেক হয়ে যাবে। একটা কিডনির অপারেশন করতে
বিএনপির মনোনয়ন প্রত্যাশীদের সাক্ষাৎকার কাল

বিএনপির মনোনয়ন প্রত্যাশীদের সাক্ষাৎকার কাল

বিএনপির মনোনয়ন প্রত্যাশীদের সাক্ষাৎকার শুরু হচ্ছে কাল। সকাল ৯টা থেকে বিএনপি চেয়ারপারসনের গুলশান রাজনৈতিক কার্যালয়ে এ সাক্ষাৎকার পর্ব শুরু হবে। প্রতিদিন দুই পর্বে চারদিনে সম্পন্ন করা হবে এ সাক্ষাৎকার। প্রথমদিন দলের মনোনয়ন বোর্ডের কাছে সাক্ষাৎকার দেবেন রংপুর ও রাজশাহী বিভাগের মনোনয়ন প্রত্যাশীরা। সাক্ষাৎকার পর্বে প্রথম মনোনয়ন বোর্ডের মুখোমুখি হবেন পঞ্চগড়-১ আসনের মনোনয়ন প্রত্যাশী বিএনপির আন্তর্জাতিক সম্পাদক ব্যারিস্টার নওশাদ জমির। তার পিতা ওই আসনের সাবেক এমপি ও দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার জমিরউদ্দিন সরকার এবার নির্বাচন করছেন না। তবে স্থায়ী কমিটির সদস্য হিসেবে তিনি দলের মনোনয়ন বোর্ডে থাকবেন। প্রথম দিন সকাল ৯টা থেকে দেড়টা পর্যন্ত রংপুর বিভাগ ও বেলা আড়াইটা থেকে রাজশাহী বিভাগের সাক্ষাৎকার হবে। ১৯শে নভেম্বর সোমবার সকালে খুলনা ও বিকালে বরিশাল বিভাগের, ২০শে নভেম্বর মঙ্গলবার সকালে চট্টগ্রা
কুলাউড়ায় সুলতান মনসুরের বিপরীতে কে?

কুলাউড়ায় সুলতান মনসুরের বিপরীতে কে?

মৌলভীবাজার-২ আসনেই লড়ছেন জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের শীর্ষ নেতা ডাকসুর সাবেক ভিপি সুলতান মোহাম্মদ মনসুর আহমেদ । পরিস্থিতি বিবেচনায় নিজের জন্মস্থানেই তিনি লড়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। এদিকে এ আসনে মহাজোটের প্রার্থী নিয়ে নতুন মেরূকরণ তৈরি হয়েছে। বিএনপির সাবেক নেতা ও সাবেক এমপি এমএম শাহীন গতকাল বি. চৌধুরীর নেতৃত্বাধীন যুক্তফ্রন্টে যোগ দেয়ার পর তিনি এ আসনে মহাজোটের প্রার্থী হচ্ছেন এ নিয়ে জোরালো আলোচনা এলাকায়। জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের কেন্দ্রীয় নেতাদের সিগন্যাল পেয়েই সুলতান মনসুর মৌলভীবাজারে নির্বাচনে লড়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। নির্বাচনের বিষয়ে জানতে চাইলে গতকাল তিনি মানবজমিনকে বলেন, নির্বাচনে লড়তে হলে কুলাউড়া থেকেই লড়ব। তিনি বলেন এখানে কে কোন দলের প্রার্থী হলো এটা আমার বিবেচ্য বিষয় নয়। সবাই প্রার্থী। আমি কুলাউড়ার মানুষের সঙ্গে আছি। এলাকার মানুষই আমাকে মূল্যায়ণ করবে। তিনি বলেন, জাতীয় বৃহত্তর স্বার্থে জাতীয়
তালিকা চূড়ান্তে আরো সময় নেবে আওয়ামী লীগ  টেনশনে প্রার্থীরা

তালিকা চূড়ান্তে আরো সময় নেবে আওয়ামী লীগ টেনশনে প্রার্থীরা

এবার রেকর্ড ৪০২৩টি দলীয় মনোনয়নপত্র বিতরণ করেছে আওয়ামী লীগ। এক আসনে সর্বোচ্চ ৫২ জন দলীয় মনোনয়নপত্র নিয়েছেন। তৃণমূলের মতামতের ভিত্তিতে প্রার্থী চূড়ান্ত করার নিয়ম থাকলেও নানা কারণে এবার বিভিন্ন সংস্থা ও সাংগঠনিক জরিপের ভিত্তিতে প্রার্থী মনোনয়ন দিচ্ছে ক্ষমতাসীন দল। এজন্য প্রার্থীদের আলাদা সাক্ষাৎকার নেয়া হচ্ছে না। এ কারণে মনোনয়ন প্রত্যাশী নেতাদের গণভবনে ডেকে দলীয় প্রার্থীর পক্ষে তাদের কাজ করার ওয়াদা নিয়েছেন আওয়ামী লীগ সভানেত্রী। জোটবদ্ধ নির্বাচনের কারণে মহাজোটের শরিক দলগুলোকে অন্তত ৬৫ থেকে ৭০টি আসন ছেড়ে দিচ্ছে আওয়ামী লীগ। এই আসন বাদ দিয়ে বাকি আসনে দলীয় প্রার্থীর নাম ঘোষণা হবে। এখনও জোটের শরিক দলগুলোর সঙ্গে প্রার্থিতা নিয়ে চূড়ান্ত আলোচনা হয়নি। এ ছাড়া যুক্তফ্রন্টসহ আরো কিছু দল ও প্রার্থী আওয়ামী লীগের সঙ্গে জোটবদ্ধ নির্বাচন করতে চায়। তাদের নিয়েও আলোচনা চলছে। এ অবস্থায় দলীয় প্রার্থী
নির্বাচনে প্রার্থী হচ্ছেন ইমরান এইচ সরকার

নির্বাচনে প্রার্থী হচ্ছেন ইমরান এইচ সরকার

একাদশ জাতীয় নির্বাচনের প্রার্থী হচ্ছেন গণজাগরণ মঞ্চের মুখপাত্র ইমরান এইচ সরকার। তার গ্রামের বাড়ি কুড়িগ্রাম-৪ আসন থেকে তিনি নির্বাচন করবেন বলে জানা গেছে। রৌমারী, রাজিবপুর ও চিলমারী এই তিন উপজেলা মিলে কুড়িগ্রাম-৪ আসন। তবে কোনো দলের হয়ে নয়, স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করছেন তিনি। ইমরান বলেন, গণজাগরণ মঞ্চের আন্দোলনের পর আমার গ্রামের অনেকে চেয়েছেন আমি যেন জাতীয় নির্বাচনে এলাকার সংসদ সদস্য হওয়ার জন্য নির্বাচন করি। এ বিষয়ে তরুণ থেকে বয়োজ্যেষ্ঠ সবাই উৎসাহ দিয়েছেন। মূলত তাদের আগ্রহের কারণে কুড়িগ্রাম-৪ আসন থেকে নির্বাচন করার কথা ভাবছি। আমি কাজ করলে তাদের জন্যই করব বলেই তাদের এত উৎসাহ। ইমরান বলেন, আমি পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে কথা বলেছি। তারা নির্বাচন করার বিষয়ে আমাকে সম্মতি দিয়েছেন। আমি যেহেতু কোনো দলের নই তাই কোনো দল থেকে নির্বাচন করার প্রশ্নই আসে না। আমি নির্বাচন করলে স্বতন্ত্র প
একপক্ষ নির্বাচন করবে, আর আমরা আদালতে আসবো তা হতে পারে না

একপক্ষ নির্বাচন করবে, আর আমরা আদালতে আসবো তা হতে পারে না

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে দায়ের করা নাইকো দুর্নীতি মামলার পরবর্তী শুনানী ৩রা জানুয়ারী। আজ আংশিক শুনানী নিয়ে ঢাকার বিশেষ জজ আদালতের বিচারক মো. মাহমুদুল কবির এ দিন ধার্য করেন। আদালতে হাজির হয়ে খালেদা জিয়া নির্বাচনের জন্য শুনানি পেছাতে সময়ের আর্জি জানান। আদলতে খালেদা জিয়া বলেন, একদল নির্বাচন করবে আর আমরা আদালতে আসবে, এটা তো হতে পারে না। তিনি বলেন, যেহেতু এখন সবাই মাঠে নির্বাচনের কাজ করছে, কেউ আমার জন্য, কেউ তার জন্য। যেখানে ইলেকশন নিয়ে সবাই ব্যস্ত, সেখানে আমাদের আদালতে আটকে রাখা হয়েছে। অনেক প্রতিবন্ধকতার মধ্যে আমাদের এগুলি (নির্বাচনী কাজ) করতে হচ্ছে। তারপরও যদি আমাদের কোর্টের মধ্যেই আটকে রাখা হয়, তাহলে বলে দিক, নির্বাচন করো না। মামলার শুনানির  তারিখ পিছিয়ে দেয়ার আবেদন জানিয়ে খালেদা জিয়া বলেন, যেহেতু সামনে নির্বাচন, সকলেই যে যার মতো এলাকায় চলে যাবে, কেউ আসতে পারব
নির্বাচন পিছানোর পক্ষে নয় আ’লীগ: এইচ টি ইমাম

নির্বাচন পিছানোর পক্ষে নয় আ’লীগ: এইচ টি ইমাম

আওয়ামী লীগ একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন আবারো পিছানোর পক্ষে নেই বলে জানিয়েছেন দলটির নির্বাচন পরিচালনা বোর্ডের কো-চেয়ারম্যান ও প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা এইচ টি ইমাম। আজ বুধবার সন্ধ্যায় নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে আওয়ামী লীগের একটি প্রতিনিধি দলের বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের এ কথা জানান তিনি। তিনি বলেন, আমরা নির্বাচন কমিশনকে পরিষ্কার জানিয়েছি, ৩০শে ডিসেম্বর পর্যন্ত নির্বাচন পিছিয়েছেন, তবে আর নয়। একদিনও নয়, একঘণ্টাও নয়। এর আগে দুপুরে ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের একটি প্রতিনিধি দল ইসির সঙ্গে বৈঠক করে নির্বাচন আরো তিন সপ্তাহ পেছানোর দাবি জানান। তবে, ঐক্যফ্রন্টের এই দাবিকে হাস্যকর উল্লেখ করে এইচ টি ইমাম বলেন, পৃথিবীর এমন কোনো দেশ নেই, যারা বিদেশিদের সুযোগ-সুবিধার কথা ভেবে নিজেদের জাতীয় নির্বাচনের তারিখ নির্ধারণ করে। একটি স্বাধীন সার্বভৌম দেশ হিসেবে আমরা আমাদের সুযোগ-সুবিধা দেখবো। নির্বাচন পিছানো
নির্বাচনে যাওয়ার দরকার নেই, বলে দেয়া হোক: আদালতে খালেদা জিয়া

নির্বাচনে যাওয়ার দরকার নেই, বলে দেয়া হোক: আদালতে খালেদা জিয়া

নাইকো দুর্নীতি মামলার অভিযোগ গঠনের শুনানিতে বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়া বলেছেন, ‘মামলা দিয়ে কোর্টের মাধ্যমে আমাদের আটকে রাখা হচ্ছে। তাহলে আমাদের বলে দেয়া হোক যে, আমাদের নির্বাচনে যাওয়ার দরকার নেই।’ তিনি বলেন, ‘একদিকে মামলা চলবে, অন্যদিকে তারা (ক্ষমতাসীন দল) নির্বাচন করবে -এটা তো হতে পারে না।’ নাইকো দুর্নীতি মামলার অভিযোগ গঠনের শুনানির জন্য বুধবার বেলা ১১টা ৫৮ মিনিটে পুরান ঢাকার নাজিমউদ্দিন রোডের পুরনো কেন্দ্রীয় কারাগারে অবস্থিত ঢাকার ৯নং বিশেষ জজ মাহমুদুল কবিরের আদালতে খালেদা জিয়াকে হাজির করা হয়। হুইল চেয়ারে বসে তিনি আদালতে আসেন। শুনানিতে অংশ নিয়ে বিএনপি চেয়ারপার্সন প্রশ্ন রাখেন, ‘আমার মামলাগুলো কেন এত দ্রুত বিচার করা হচ্ছে? কয়টা মামলা দ্রুত বিচারে নিষ্পত্তি করা হয়েছে? সেভেন মার্ডার (নারায়ণগঞ্জের সাত খুন) কি দ্রুত বিচার আইনে হয়েছে?’ ‘বর্তমান রাজনীতির সঙ্গে সবকিছু চলছে’ বলেও
তিন আসনে লড়বেন এরশাদ

তিন আসনে লড়বেন এরশাদ

জাতীয় পার্টি (জাপা)-এর দলীয় মনোনয়ন ফরম বিতরণ শুরু হয়েছে। সকালে রাজধানীর গুলশানের ইমানুয়েলস মিলনায়তনে পার্টির চেয়ারম্যান ও সাবেক প্রেসিডেন্ট হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করে কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন। এরশাদের পরপরই জাপার সিনিয়র নেতারা দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেন। মনোনয়ন বিতরণ কার্যক্রম উদ্বোধনকালে এরশাদ বলেন, ক্ষমতায় যাওয়ার জন্য আমরা সম্পূর্ণভাবে প্রস্তুত। সকলের পূর্ণ সমর্থন পেলে জাপা ক্ষমতায় যাবে। এসময় নির্বাচনী লড়াইয়ে সবাইকে একসঙ্গে থাকারও অনুরোধ করেন এরশাদ। এদিকে পূর্ব নির্ধারিত দলীয় মনোনয়ন ফরম তিনি নিজে ৩০ হাজার টাকায় সংগ্রহ করে পার্টির নেতাকর্মীদের জন্য ১০ হাজার টাকা কমিয়ে ২০ হাজার টাকা করে দেন । এরশাদ এ বছর তিনটি আসনে থেকে নির্বাচন করতে চান। এগুলো হচ্ছে ঢাকা-১৭, রংপুর-৩ ও সাতক্ষীরা-৪। গতকাল তিনি ঢাকা-১৭ আসনের জন্য দলীয় মনোনয়ন ফরম কিনেন।।
দাবি না মানলে নির্বাচন হতে দেয়া হবে না: রাজশাহীতে মির্জা ফখরুল

দাবি না মানলে নির্বাচন হতে দেয়া হবে না: রাজশাহীতে মির্জা ফখরুল

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের অন্যতম শরিক দল বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, ঐক্যফ্রন্টের সাত দফা দাবি না মানলে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন হতে দেয়া হবে না। শুক্রবার বিকালে রাজশাহীর আলিয়া মাদ্রাসার মাঠে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের বিভাগীয় জনসভায় এ কথা বলেন তিনি। নির্বাচনের সমান মাঠ তৈরি না হওয়ায় ঘোষিত তফসিল গ্রহনযোগ্য নয় বলে মন্তব্য করেছেন মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।একাদশ নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার পর বিকালে মাদ্রাসা মাঠে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের জনসভায় বিএনপি মহাসচিব এই মন্তব্য করেন।তিনি বলেন, ‘‘ আমাদের কথা খুব পরিস্কার নির্বাচনের সমান মাঠ তৈরি করতে হবে, সকল দলকে সমান অধিকার দিতে হবে, দেশনেত্রীকে মুক্তি দিয়ে তাকে কাজ করতে দিতে হবে।” ‘‘ অন্যথায় কোনো নির্বাচন তফসিল গ্রহনযোগ্য হবে না।’’ জনসভার প্রধান অতিথি ফ্রন্টের শীর্ষ নেতা ড. কামাল হোসেন অসুস্থতার জন্য রাজশাহী যেতে না পারলেও মোবাইলে জনসভার উ