মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র

আমেরিকায় ঘনিয়ে আসছে প্রেসিডেন্ট নির্বাচন,বাড়ছে মুসলিমদের উপর হামলা

ফয়জুল ইসলাম চৌধুরী নয়ন, নিউইয়র্ক: আমেরিকার প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের দিন যত ঘনিয়ে আসছে, ততই মুসলিম কমিউনিটির উপর বাড়ছে হামলার ঘটনা। ক্রমাগত বৃদ্ধি পাওয়া হামলার ঘটনায় চরম আতংকে দিনাতিপাত করছেন বাঙালী সহ মুসলিম কমিউনিটির লোকজন। উল্লেখ্য যে, সম্প্রতি আমেরিকার নিউইয়র্কস্থ ওজোন পার্ক এলাকায় নির্মমভাবে খুন হওয়া ইমাম মাওলানা আলাউদ্দিন আখঞ্জি ও তারা উদ্দিনের খুনী হিসেবে পুলিশের হাতে আটক হওয়া অস্কার মোরেলকে গত বৃহষ্পতিবার দ্বিতীয়বারের মতো আদালতে হাজির করা হয়েছিলো। পুলিশের তথ্য মতে মোরেল হত্যাকান্ডের কথা স্বীকার করলেও আদালতে সে নিজেকে নির্দোষ দাবী করেছে। অপরদিকে নিউইয়র্কে বসবাসরত বাঙালী কমিউনিটির লোকজন সংবাদ সম্মেলন করে অভিযোগ করেন পুলিশ এখন পর্যন্ত এই হত্যার মোটিভ উদ্ঘাটন করতে পারেনি। এ নিয়ে তারা এখনও বিভ্রান্তিতে রয়েছে। নিউইয়র্কের সর্বস্তরের মানুষ এই জোড়া খুনের ঘটনাকে স্পষ্টতই ‘হেইট ক্রাইম’ হিসাবে
যুক্তরাষ্ট্র থেকে ১ কোটি ১০ লক্ষ অবৈধ অভিবাসী বিতাড়িত করতে অটল ডনাল্ড ট্রাম্প

যুক্তরাষ্ট্র থেকে ১ কোটি ১০ লক্ষ অবৈধ অভিবাসী বিতাড়িত করতে অটল ডনাল্ড ট্রাম্প

  ডেস্ক নিউজ: রিপাবলিকান দলের প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী ডনাল্ড ট্রাম্প বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্রে যে ১ কোটি ১০ লক্ষ অবৈধ অভিবাসী আছে, তাদের বিতাড়িত করার বিষয়ে তার যে মতামত, তা অটল রয়েছে। নভেম্বরের নির্বাচনে ডেমোক্রাট দলের প্রার্থী হিলারি ক্লিন্টানের বিরুদ্ধে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় তার নির্বাচনী প্রতিশ্রুতির একটি প্রধান বিষয়ই হচ্ছে সেটি। ট্রাম্পের নতুন ক্যাম্পেইন ম্যানেজার কেলিঅ্যান কনওয়ে এক সাক্ষাৎকারে বলেছেন ট্রাম্পের অভিবাসী বহিষ্কার পরিকল্পনা এখনও ঠিক হয়নি। এর একদিন পর ট্রাম্প ‘ফক্স নিউজ’ টেলিভিশনকে বলেছেন যে, তিনি বারবার মত পাল্টাচ্ছেন না। নিউইয়র্কের ধনকুবের ট্রাম্প বলেছেন, “আমরা একটা ন্যায় সঙ্গত, কিন্তু দৃঢ় অভিবাসন নীতি মালা রাখবো”। সূত্র: ভয়েস অব আমেরিকা
যুক্তরাষ্ট্রে নদীতে ডুবে বাংলাদেশি ছাত্রের মৃত্যু

যুক্তরাষ্ট্রে নদীতে ডুবে বাংলাদেশি ছাত্রের মৃত্যু

ডেস্ক নিউজ: যুক্তরাষ্ট্রের জর্জিয়ার আটলান্টা শহরে নদীতে ডুবে আদিল চৌধুরী (১৮)নামে এক বাংলাদেশি ছাত্রের মৃত্যু হয়েছে।ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল কয়েক ঘণ্টা অনুসন্ধানের পর রাত সাড়ে ৮টায় তার লাশ উদ্ধার করে।নিহত আদিল চৌধুরী স্কুলের লেখাপড়া শেষে সম্প্রতি ভার্জিনিয়া ইউনিভার্সিটিতে ভর্তি হয়েছিলেন।আদিলের পৈত্রিক বাড়ি বাংলাদেশের সিলেটে। তার বাবা আলী চৌধুরী শেখর ও মা নানমতি চৌধুরী আটলান্টার শাম্বলি শহরে মেয়ে ইয়াসমিনকে নিয়ে বসবাস করেন। কোব কাউন্টি পুলিশের সার্জেন্ট ডানা পিয়েরস জানান, বুধবার আটলান্টার স্যান্ডি পয়েন্টের কাছে চাটাহুচি নদীতে বন্ধুদের সঙ্গে সাঁতার কাটতে গিয়ে নদীতে ডুবে যান আদিল।শুক্রবার দুপুরে লরেন্সভিল সিটির জর্জিয়া ইসলামিক সেন্টার মসজিদে আদিলের জানাজা অনুষ্ঠিত হয় বলে স্থানীয় সাংবাদিক রুমি কবীর জানান।জানাজা শেষে মসজিদের কবরস্থানেই আদিলকে দাফন করা হয়।

নিউইয়র্কে বাড়ছে হেইট ক্রাইম: আতঙ্ক বাংলাদেশী কমিউনিটিতে

ফয়জুল ইসলাম চৌধুরী নয়ন ::: বাংলাদেশী লোকজনের কাছে স্বপ্নের দেশ নামে খ্যাত যুক্তরাষ্ট্রে ক্রমাগত বেড়েই চলছে হেইট ক্রাইম। প্রতিদিনই যুক্তরাষ্ট্রের কোথাও না কোথাও বাংলাদেশী লোকজনের উপর হামলার খবর পাওয়া যায়। ফলে চরম আতংকে দিনযাপন করছেন বাংলাদেশী কমিউনিটির লোকজন। হামলাকারীদের গ্রেফতার এবং লোকজনের নিরাপত্তায় পুলিশের পক্ষ থেকে বিভিন্ন রকম আশ্বাস দেয়া হলেও কাজের কাজ কিছুই হচ্ছে না। বেশীর ভাগ ক্ষেত্রেই অপরাধীরা রয়ে যাচ্ছে ধরা ছোয়ার বাইরে। আবার কেউ কেউ গ্রেফতার হলেও আইনের বিভিন্ন ফাক ফোকর দিয়ে বেড়িয়ে আসছে অপরাধীরা। ফলে ক্রমাগত বেড়েই চলছে হামলার ঘটনা। গত ৫ আগষ্ট নিউইয়র্কের ওয়েষ্টচেষ্টার স্কয়ার সাবওয়ের নিকটে হেইট ক্রাইমের শিকার হন মোঃ আলী হায়দার (৪০)। সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, রাত প্রায় দশটায় মোঃ আলী হায়দার ও তার স্ত্রী বাসার নিকটে হাটছিলেন হঠাৎ করে চার যুবক কিছু বুঝে উঠার আগেই এলোপাতাড়ি কিল ঘুষি
নিউইয়র্কে সংবাদ সম্মেলনে মুসলিম-আমেরিকানদের নিরাপত্তার দাবি

নিউইয়র্কে সংবাদ সম্মেলনে মুসলিম-আমেরিকানদের নিরাপত্তার দাবি

নিজস্ব প্রতিবেদক: ইমামসহ দুই বাংলাদেশী হত্যার পর মুসলিম-আমেরিকানরা ভীতির মধ্যে দিনাতিপাত করছে ে ৩৬ ঘন্টার মধ্যে ঘাতককে গ্রেফতারের জন্যে নিউইয়র্কের পুলিশ বাহিনীর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানানোর পাশাপাশি ইমামসহ দুই বাংলাদেশীকে হত্যার মোটিভ উদঘাটিত না হওয়ায় প্রবাসী বাংলাদেশীসহ মুসলিম-আমেরিকানদের মধ্যে ভীতির সঞ্চার ঘটেছে। ১৮ আগস্ট বৃহস্পতিবার সকালে নিউইয়র্ক সিটি কাউন্সিলের সামনে নিহত ইমাম আলাউদ্দিন আকঞ্জি (৫৫) এবং তার সহকারি থারা উদ্দিন (৬৪) এর স্বজনসহ জুইশ, খ্রিস্টান এবং মুসলিম কম্যুনিটির শীর্ষস্থানীয় নেতৃবৃন্দ এক সংবাদ সম্মেলনে এ উদ্বেগের কথা ব্যক্ত করেন। তারা মসজিদ এবং মুসল্লীগণের যাতায়াত পথে টহল পুলিশের সংখ্যা বৃদ্ধির পাশাপাশি সিসিটিভির পরিমাণও বাড়ানোর আহবান জানান। গত ১৩ আগস্ট শনিবার ভর দুপুরে যোহর নামাজ শেষে ওজনপার্কে আল ফোরকান মসজিদ থেকে পায়ে হেঁটে বাসায় ফেরার পথে এক দৃর্বৃত্তের গুলিতে নিহত হন এ
ট্রাম্পকে নিয়ে রিপাবলিকানদের হতাশা

ট্রাম্পকে নিয়ে রিপাবলিকানদের হতাশা

  ষ্টাফ রিপোটার: যুক্তরাষ্ট্রে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ডোনাল্ড ট্রাম্পকে নিয়ে হতাশায় রিপাবলিকানরা। দলের সিনিয়র সদস্যরা এমন হতাশা প্রকাশ করেছেন। আবার কোন কোন সিনিয়র নেতা রিপাবলিকান ন্যাশনাল কমিটিকে (আরএনসি) ট্রাম্পের পিছনে আঠার মতো লেগে থাকার পরামর্শ দিয়েছেন। তারা বলেছেন, যদি তা করা না হয় তাহলে কংগ্রেসেও রিপাবলিকানরা হেরে যাওয়ার ঝুঁকিতে থাকবে। অনলাইন সিএনএনে এক প্রতিবেদনে এসব কথা লিখেছেন সাংবাদিক মানু রাজু ও দিরেদ্রি ওয়ালস। তারা লিখেছেন, ওয়াশিংটনে রিপাবলিকান দলের সিনিয়র সদস্যরা আরএনসি’কে পরামর্শ দিচ্ছেন। তারা বলছেন, ডোনাল্ড ট্রাম্পের পিছনে অর্থ সহায়তা অব্যাহত রাখতে। হিলারি ক্লিনটনের বিরুদ্ধে প্রতিদ্বন্দ্বিতা গড়ে তুলতে কমিটিকে এ কাজটি করতেই হবে। আর নাগলে নির্বাচনে এক করুণ পরিণতি আসতে পারে। তাতে কংগ্রেসের নিয়ন্ত্রণও হাত ফসকে যেতে পারে। আবার দলের সাবেক ও বর্তমান সিনিয়র কর্মকর্তা

নিউইয়র্কে নিহত ইমামের দ্বিতীয় পরিবারের খবর রাখেনি কেউ

হবিগঞ্জের চুনারুঘাট উপজেলার গোছাপাড়া গ্রামের ইমাম মাওলানা আলাউদ্দিন আকনজি আমেরিকার নিউইয়র্কে দূর্বৃত্তদের গুলিতে নিহত হওয়ার ৩দিন পরও তার দ্বিতীয় স্ত্রী সন্তানের খবর কেউ নেয়নি। এমনকি বৃহস্পতিবার (১৮ আগস্ট) সকাল সাড়ে ৯টায় বিমানযোগে আমেরিকা থেকে নিহত মাওলানা আলাউদ্দিন আকনজির লাশ ঢাকার আন্তর্জাতিক হযরত শাহজালাল বিমান বন্দরে পৌঁছবে পরে ওইদিন বিকাল সাড়ে ৩টায় হবিগঞ্জের কেন্দ্রীয় ঈদগাহ ময়দানে তার নামাজের জানাযা অনুষ্টিত হবে। তার সর্বশেষ নামাজের জানাযা বিকাল সাড়ে ৫টায় চুনারুঘাট উপজেলার আমুরোড হাই স্কুল এন্ড কলেজ মাঠে অনুষ্ঠিত হবার পর তাকে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হবে। এসবের কোনো খবর নিহত মাওলানা আলাউদ্দিন আকনজির দ্বিতীয় স্ত্রী কুলসুমা বেগম ও তাদের ৩ সন্তান শাহ জান্নাতুল ফেরদৌস ইমা আকনজি (১৫), শাহনূর উদ্দিন আকনজি (১২), শাহ কফিল উদ্দিন আকনজি (৭) জানেন না। নিউইয়র্কে গুলিতে নিহত মাওলানা আলাউ

নিউইয়র্কের ওজনপার্কে ইমাম ও মুসল্লি হত্যাকান্ডের ঘাতক আটক

নিউইয়র্কের ওজনপার্কের আল ফুরকান মসজিদের সম্মানিত ইমাম ও খতীব মরহুম মাওলানা আলা উদ্দীন আকুন্জি ও মুসল্লি মরহুম কাজী তারা উদ্দিন হত্যাকান্ডের ঘাতক কে আটক করেছে নিউইয়র্কের পুলিশ ডিপার্টমেন্ট । ঘাতকের নাম অস্কার মোরলেস। আজ সোমবার নিউইয়র্ক সময় রাত দশটার দিকে ইস্ট নিউইয়র্কের মীল্যার এভিনিউ থেকে ঘাতক কে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারের পর কুইন্সের একটি আদালতে তাকে হাজির করা হলে সে ইমাম ও মুসল্লি হত্যাকান্ডের দায় স্বীকার করে। নিউইয়র্কের পুলিশ ডিপার্টমেন্ট এর একটি নির্ভরযোগ্য সূত্রে তা জানা গেছে।

নিউইয়র্কে দুই বাংলাদেশি হত্যাকারীর ‘স্কেচ’ প্রকাশ করেছে পুলিশ

ফয়জুল ইসলাম চৌধুরী নয়ন, নিউইয়র্কঃ নিউইয়র্কে দুই বাংলাদেশী হত্যাকারী ঘাতকের স্কেচ প্রকাশ করেছে নিউেইয়র্ক পুলিশ। প্রত্যক্ষদর্শীর বিবরণ ও সিসি ক্যামেরার ফুটেজ বিশ্লেষণ করে এই স্কেচ তৈরি করা হয়েছে। শনিবার জোহরের নামাজের পর নিউ ইয়র্কের কুইন্সের ওজনপার্কের ‘আল ফোরকান জামে মসজিদ' থেকে বেরোনোর পর এর ইমামসহ দুজনকে গুলি করে হত্যা করা হয়। নিহতদের মধ্যে মাওলানা আলাউদ্দিন আকুঞ্জি (৫৫) ছিলেন ওই মসজিদের ইমাম। নিহত অপর ব্যক্তি থেরাউদ্দিন (৬৪) তার প্রতিবেশী। পুলিশ বলছে, এক ব্যক্তি পেছন থেকে তাদের মাথায় গুলি করে। ঘটনার পর অস্ত্র হাতে একজনকে দ্র“ত ওই এলাকা ত্যাগ করতে দেখেছেন প্রত্যক্ষদর্শীরা। এ স্কেচ সব জায়গায় ছড়িয়ে দিয়ে তার সম্পর্কে তথ্য চাওয়া হয়েছে নিউ ইয়র্ক পুলিশের পক্ষ থেকে। জানা গেছে ইমাম আলাউদ্দিন আকুঞ্জির লাশ তার দেশের বাড়ি হবিগঞ্জের চুনার“ঘাটে পাঠানো হবে। থেরা উদ্দিনকে দাফন করা হবে নিউইয়কে দ

নিউইয়র্কে ইমাম হত্যা ::: আতংক আর উদ্বেগে মুসলিম কমিউনিটি

সোহেল হোসাইন ::: প্রকাশ্য দিবালোক । তাও আবার এ ধর্মীয় পোশাক পরিহিত অবস্থায় দুটি হত্যাকান্ড যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কের কুইন্স এলাকায় গতকাল শনিবার ঘটে গেল । এঘটনার পরপরই যুক্তরাষ্ট্রসহ বিশ্বের অন্যান্য দেশের মিডিয়াগুলো উঠে যায় সংবাদ । এদিকে নিহতের পরিবার আর মুসলিম কমিউনিটিতে চলে ক্ষোভ, বিক্ষোভ- আর কান্না । ঘটনার পর থেকেই ঘটনাস্থল আর তৎপার্শ্ববর্তী এলাকাসহ পুরো নিউইয়র্কের সবকটি মুসলমান এবং বাঙ্গালী অধ্যুষিত এলাকায় আতংক বিরাজ করে । নেমে আসে শোকের আবহ । নির্মম হত্যার শিকার দুই বাংলাদেশীর নিহত হওয়ার খবর শুনেই ঘটনাস্থলে ছুটে যান প্রবাসের বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার মানুষ, যেখানে সবার ক্ষুদ্ধ প্রতিক্রিয়া ও সমবেদনা ফুটে ওঠে। নির্মম এই ঘটনার প্রতিবাদে বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করা হয় পাশাপাশি অবিলম্বে খুনিদের গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান শোকে স্তব্ধ ও ক্ষুব্ধ প্রবাসি বাংলাদেশী’সহ কমিউ