স্পেশাল রিপোর্ট

দেশের উন্নয়ন বাধাগ্রস্ত করতে পারবে না কোনো ষড়যন্ত্রই – সালমান এফ রহমান

দেশের উন্নয়ন বাধাগ্রস্ত করতে পারবে না কোনো ষড়যন্ত্রই – সালমান এফ রহমান

প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি খাত উন্নয়ন বিষয়ক উপদেষ্টা বেক্সিমকো গ্রুপের ভাইস চেয়ারম্যান সালমান এফ রহমান বলেছেন, আমরা আজ পৃথিবীর বুকে মাথা তুলে দাঁড়িয়েছি যার সবটুকু অবদান বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারের। আমরা আজ বিশ্ব দরবারে বাঙালি জাতি হিসেবে পরিচিতি পেয়েছি। দেশ স্বাধীন না হলে আমরা ভিখারি জাতি হিসেবে পড়ে থাকতাম। যুব সমাজকে মাদকমুক্ত রাখতে তিনি পরিবারের পাশাপাশি খেলাধুলা ও সংস্কৃতি চর্চার আহ্বান জানান। সালমান এফ রহমান বলেন, নবাবগঞ্জের সার্বিক উন্নয়নের জন্য ১ হাজার কোটি টাকা বাজেট নিয়ে বিভিন্ন প্রকল্প তৈরি করা হবে। দোহার ও নবাবগঞ্জ উন্নয়নের জন্য ব্যাপক প্রকল্প হাতে নেয়া হয়েছে। যা বাস্তবায়ন হলে পাল্টে যাবে দৃশ্যপট। বিএনপির দ্বারা দেশের উন্নয়ন সম্ভব নয় উল্লেখ করে তিনি বলেন, তাই জননেত্রী শেখ হাসিনাকে পুনরায় রাষ্ট্রনায়ক করতে হলে আমাদের ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে। বঙ্গবন্ধু স্বাধীনতা দিয়ে গেছেন তার সুযোগ্
রেল প্রকল্পে ও বিদ্যুৎ সরবরাহর উদ্বোধন করলেন হাসিনা-মোদি

রেল প্রকল্পে ও বিদ্যুৎ সরবরাহর উদ্বোধন করলেন হাসিনা-মোদি

বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে সহযোগিতার অংশ হিসেবে আজ বাংলাদেশের জাতীয় গ্রিডে ভারত থেকে আরো ৫০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ সরবরাহ শুরু হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গণভবন এবং ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি দিল্লী থেকে ভিডিও কনফারেন্সে যুক্ত হয়ে পশ্চিমবঙ্গের বহরমপুর গ্রিড থেকে কুষ্টিয়ার ভেড়ামারার আন্তঃবিদ্যুৎ সংযোগ গ্রিডে এ বিদ্যুৎ সরবরাহের উদ্বোধন করেন। এ ছাড়া, বংলাদেশ ও ভারতের প্রধানমন্ত্রী ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে আখাউড়া-আগরতলা ডুয়েল গেজ রেললাইন প্রকল্পের বাংলাদেশ অংশের নির্মাণ কাজও আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন। একই অনুষ্ঠানে দুই প্রধানমন্ত্রী মৌলবীবাজার জেলার কুলাউড়া-শাহবাজপুর রেল সংযোগ পুনর্বাসন প্রকল্পেরও নির্মাণ কাজ উদ্বোধন করেন। ভিডিও কনফারেন্সে পশ্চিম বঙ্গের মুখমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায় ও ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেব বক্তব্য রাখেন।
সিরীয় সৈন্যদের সঙ্গে কুর্দিদের সংঘর্ষ, নিহত ১৮

সিরীয় সৈন্যদের সঙ্গে কুর্দিদের সংঘর্ষ, নিহত ১৮

সিরিয়ার উত্তরপূর্বাঞ্চলীয় কামিশলি শহরে যুক্তরাষ্ট্রের সমর্থিত কুর্দি যোদ্ধাদের সঙ্গে সরকারি বাহিনীর সংঘর্ষে অন্তত ১৮ জন নিহত হয়েছেন। গতকাল শনিবার স্থানীয় সময় সন্ধ্যায় সামরিক বাহিনীর একটি বহর শহরটির কেন্দ্রস্থলে প্রবেশ করলে দুই পক্ষের মধ্যে তুমুল সংঘর্ষ হয়। বার্তা সংস্থা রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, কামিশলির ওই এলাকাটি তাদের নিয়ন্ত্রণে ছিল বলে দাবি করেছে কুর্দিদের ওয়াইপিজি মিলিশিয়া বাহিনীর অন্তর্ভুক্ত নিরাপত্তা বাহিনী। আসায়িশ নামে পরিচিত ওয়াইপিজির ওই অভ্যন্তরীণ নিরাপত্তা বাহিনী এক বিবৃতিতে বলেছে, 'তারা আমাদের নিয়ন্ত্রিত এলাকায় প্রবেশ করে বেসামরিকদের গ্রেপ্তার করে ও (সামরিক বাহিনীর) টহল দলের সদস্যরা আমাদের বাহিনীকে লক্ষ্য করে হামলা চালায়।' কুর্দি যোদ্ধাদের দাবি,  দুপক্ষের সংঘর্ষে তাদের সাত যোদ্ধা ও সিরীয় সামরিক বাহিনীর ১১ সদস্য নিহত হয়েছে। সিরিয়ার সরকারপন্থি সূত্রগুলো দেশটির রাষ
রোহিঙ্গাদের দেখতে আজ আসছে জাতিসংঘের প্রতিনিধিদল

রোহিঙ্গাদের দেখতে আজ আসছে জাতিসংঘের প্রতিনিধিদল

রোহিঙ্গাদের পরিস্থিতি সরেজমিন পরিদর্শন দেখতে আজ বাংলাদেশ সফরে আসছে জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদের উচ্চপর্যায়ের একটি প্রতিনিধি দল। দলটি প্রথমে বাংলাদেশ সফর করবেন। এরপর বাংলাদেশ থেকে মিয়ানমার যাবেন। প্রতিনিধি দলটি বিকেলে কুয়েত থেকে সরাসরি কক্সবাজারে অবতরণ করবেন। পরদিন রোববার তারা জিরো পয়েন্ট ও কুতুপালং ক্যাম্প পরিদর্শন করবেন। এ সময় তারা রোহিঙ্গাদের সঙ্গে সরাসরি কথা বলবেন। সোমবার সকালে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাতের পর বাংলাদেশ থেকে মিয়ানমারের উদ্দেশে যাত্রা করবেন। প্রতিনিধি দলে জাতিসংঘে নিযুক্ত যুক্তরাজ্যের স্থায়ী প্রতিনিধিসহ ১০ জন স্থায়ী প্রতিনিধি, পাচঁজন উপ স্থায়ী প্রতিনিধিসহ প্রায় ৩০ জন প্রতিনিধি থাকবেন। তাদের কাছে রোহিঙ্গা সমস্যা সমাধানে জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদের সরাসরি হস্তক্ষেপ কামনা করবে বাংলাদেশ। সরকারের নীতি নির্ধারকরা মনে করেন, এ সমস্যার মূল কারণ রোহিঙ্গাদের নিজ দেশে
ভাষার প্রতি ভালোবাসা

ভাষার প্রতি ভালোবাসা

মোবাইল অপশনে গিয়ে রেডিও চালু করতেই মনটা বিষিয়ে উঠলো। দেশের একটি অন্যতম জনপ্রিয় এফএম থেকে বাংলা ভাষাকে যেভাবে যাচ্ছেতাইভাবে উপস্থাপন করতে শুনলাম। মন চাইছিল না আর রেডিও শুনতে। মনের মধ্যে ক্ষোভ ফুঁসে ওঠে। অবাক লাগে এসব গণমাধ্যম কিভাবে নিজের ভাষা-সংস্কৃতিকে এভাবে প্রকাশ্যে জবাই দেয়। নিজ ভাষাকে বিকৃত করে উপস্থাপন করা কোন ধরনের শৈল্পিক কাজ, জবাব আছে কি আপনাদের কাছে?   ভণ্ডামির এখানেই শেষ নয়, মহান ভাষার মাসে এদের আবার ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা ভালোবাসা আর দেশপ্রেম উপচে পড়ে। এ উপলক্ষে নানা অনুষ্ঠানের আয়োজন করে তারা। আর অন্যদিকে সারা বছর নিজ ভাষার গলায় করাত চালায়। বারো জাতের সংমিশ্রণে বাংলার নিজস্ব সত্তা কালে কালেই পরচর্চার জাতাকলে পিষ্ট হচ্ছে। তবে আমি বলছি না, অন্য ভাষায় কথা বলা যাবে না, অন্য ভাষা শেখা যাবে না, জানা যাবে না। আমার মতে, এগুলো কেবল ব্যক্তিগত দক্ষতা বৃদ্ধির জন্য কিন্তু তার
সবার চোখ খালেদার রায়ে

সবার চোখ খালেদার রায়ে

কী হবে বৃহস্পতিবার! কার পক্ষে যাবে রায়? সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার সত্যিই কি সাজা হবে? সাজা হলে, তার ধরন কী হতে পারে? এমন সব প্রশ্ন নিয়েই জাতি তাকিয়ে আছে খালেদার রায়ের দিকে।   রায়ের তারিখ ঘোষণার পর থেকেই টানটান উত্তেজনা জনমনে। সময় ঘনিয়ে আসতেই সেই উত্তেজনার পারদ যেন ঊর্ধ্বমুখী। রায়কে ঘিরে আওয়ামী লীগ-বিএনপি মুখোমুখি অবস্থানে। রাজনীতির মাঠে রায় নিয়ে আলোচনায় গুরুত্ব পাচ্ছে জাতীয় নির্বাচনও। নির্বাচনে খালেদা জিয়াকে অযোগ্য ঘোষণা করতেই সরকার এ মামলায় বিশেষ গুরুত্ব দিচ্ছে, এমন অভিযোগ বিএনপির নেতাকর্মীদের।   অন্যদিকে সরকারি দল আওয়ামী লীগ বলছে, খালেদা জিয়ার রায়কে কেন্দ্র করে বিএনপি বিশেষ রাজনীতি করতে চাইছে।       তিনবারের প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার এ রায়কে কেন্দ্র করে এখন উত্তেজনা মিডিয়াপাড়াতেও। রায়ের খবরেই মিডিয়ায় চলছে শ
মৌলভীবাজারের জুড়ীতে মরহুম জননেতা জনাব এম. এ. মুমিত আসুক সাহেব ও ডাঃ কাজী আকমল হোসেনের স্মরণ সভা

মৌলভীবাজারের জুড়ীতে মরহুম জননেতা জনাব এম. এ. মুমিত আসুক সাহেব ও ডাঃ কাজী আকমল হোসেনের স্মরণ সভা

মাহবুবুল আলম শামীম ::: গত ২৬ এ জানুয়ারি ২০১৮ ইংরেজি শুক্রবার সন্ধ্যায়, মৌলভীবাজারের জুড়ী উপজেলার পশ্চিম জুড়ী ইউনিয়নে সূর্যতরূণ ক্লাবের উদ্যোগে মরহুম জননেতা জনাব এম. এ. মুমিত আসুক ও মরহুম ডাঃ কাজী আকমল হোসেন সাহেবের স্মরণ সভায় বিভিন্ন সামাজিক ও রাজনৈতিক দলের ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত থেকে এই দুইজন মরহুম গুণীজনের অতীত ইতিহাস ও অবদানের কথা স্মরণ করেন। উক্ত স্মরণ সভায় জুড়ী উপজেলা চেয়ারম্যান জনাবা গুলশান আরা মিলি প্রধান অতিথি হিসেবে এবং অন্যান্য বিশেষ অতিথির মত আমাকেও উপস্থিত থেকে এই দুইজন কীর্তিমান ব্যক্তিকে স্মরণ করে দুটি কথা বলার সুযোগ হয়েছিল। অন্যান্য রাজনৈতিক দলের নেতৃবৃন্দের সাথে জুড়ী উপজেলা জাতীয় পার্টির সদস্য সচিব সুরমান আহমদ চৌধুরীও বক্তব্য প্রদান করেন। আমরা এই দুইজন মরহুমের জান্নাত নাসিব কামনা করি। পাশাপাশি আমার এই সূর্যতরূণ ক্লাবের মহৎ উদ্যোগ কে অভিনন্দন জানাই এবং উপদেষ্টা জনাব
ইমিগ্রেশন : বাংলাদেশী কিশোরদের আমেরিকায় আসার লোমহর্ষক কাহিনী

ইমিগ্রেশন : বাংলাদেশী কিশোরদের আমেরিকায় আসার লোমহর্ষক কাহিনী

অপ্রাপ্ত বয়স্ক বাংলাদেশীরাও স্বপ্নের দেশে পাড়ি জমাচ্ছে দালালকে মোটা অর্থ দিয়ে। বিভিন্ন দেশ ঘুরে মেক্সিকো হয়ে দুর্গম সীমান্ত পথে যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশের সময় প্রায় সকলেই ধরা দিচ্ছে। আর যাদের দুর্ভাগ্য, তারা ভয়ংকর প্রাণীর পেটে কিংবা পানিতে ডুবে মারা যাচ্ছে। সাম্প্রতিক সময়ে এমসি করুণ পরিণতির শিকার হয় বাংলাদেশি আরমান শেখ। পানামা খাল পাড়ি দেয়ার সময় সে ভেসে যায় ¯্রােতে। বেশ কয়েক সপ্তাহ পর তার অর্ধ গলিত লাশ উদ্ধার করে সীমান্ত পুলিশ। এরপর কফিনে বন্দি হয় আরমান ও তার পরিবারের সুখ-স্বপ্ন। আরমানের মৃত্যু সংবাদ গোপন থাকেনি। তারপরও এ পথে পা বাড়া্েনা বন্ধ হয়নি। যুবক-যুবতীর পাশাপাশি কিশোর-কিশোরীরাও প্রিয় মাতৃভ’মি ছাড়ছে দালালের খপ্পরে পড়ে। মাথাপিছু ২৫ থেকে ৩০ লাখ টাকা দালালকে প্রদানের পাশাপাশি পকেট খরচ বাবদ আরো কয়েক হাজার ডলার লাগছে জীবন-স্বপ্নের এ জার্নিতে। যদিও যুক্তরাষ্ট্রে ঢুকলেই কিংবা ইমিগ্রেশন পুলিশে ধ
আমাকে ক্ষমা করে দিন, আমি আমার ভুল বুঝতে পেরেছি ::: তসলিমা নাসরিন

আমাকে ক্ষমা করে দিন, আমি আমার ভুল বুঝতে পেরেছি ::: তসলিমা নাসরিন

মুক্তমনা নির্বাসিত নারীবাদী লেখিকা তসলিমা নাসরিন বলেছেন, “এক সময় আমি ব্যক্তিত্ববানদের পেছনে ঘুরেছি। ব্যক্তিত্বহীনরা আমার পেছনে ঘুরেছে। আমি দৈহিক সম্পর্কে নেশাগ্রস্ত হয়ে পড়ি। সহজেই বুড়ো, মাঝ বয়সী ও প্রবীণ বন্ধুদের নিয়ে দেহজ খেলায় মেতে উঠতাম। কিন্তু এখন দেহজ খেলায় মত্ত থাকার বয়স আর নেই। সুখের পায়রারা কেউ আজ আর আমার পাশে নেই।” তসলিমা আরো বলেন, প্রায় দেড় যুগ ধরে তিনি নির্বাসনে দিনযাপন করছেন। মৌলবাদীদের আর্শীবাদপুষ্ট বিএনপি সরকারও তাকে দেশে ফিরতে দেননি। স্বাধীনতার পক্ষের শক্তি হিসেবে দাবী করা আওয়ামী লীগ সরকারও তাকে দেশে ফেরার সুযোগ দেননি। তিনি এখন ক্লান্ত। দেশে ফিরতে চান। দেশেই বাকিটা জীবন কাটাতে চান। তসলিমা নাসরিন আগের মতো এখন আর লিখতেও পারছেন না বা লিখছেন না। ‘উতল হাওয়া, ‘আমার মেয়ে বেলা’, ‘ভ্রমর কইও যাইয়া’, বা ‘ক’ -এর মতো বই আর আসছে না। আগের মতো কাব্যও নেই, কবিতাও না। একাধিক স্বামী ও এক

ভারত থেকে মাংস আমদানি বন্ধের দাবি

ভারত থেকে মাংস আমদানি ও গরুর হাটের চাঁদাবাজি বন্ধের দাবি জানিয়েছে ঢাকা মেট্রোপলিটন মাংস ব্যবসায়ী সমিতি। রোববার দুপুরে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির ছোট মিলেনায়তনে এক সংবাদ সম্মেলনে সংগঠনের ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব রবিউল আলম এ দাবি জানান। তিনি বলেন, মাংস আমদানির জন্য দেশের জনগণ কোনো সুবিধা পাচ্ছে না, মাংসের দামও কমেনি। এর ফলে প্রধানমন্ত্রীর ঘোষিত চামড়া প্রোডাক্ট অব দি ইয়ার এখন হুমকির মুখে। হাজার হাজার কোটি টাকা খরচ করে আধুনিক চামড়া শিল্পনগরী গড়ে তোলা হয়েছে। সেখানে মাংস আমদানি হলে রপ্তানি ধ্বংস হবে। মাংস ব্যবসায়ী সমিতি আরো দাবি করে, গাবতলী গরুর হাটের ইজারাদার ইজারার শর্ত মানছে না, আইনও মানছে না। ইচ্ছেমত অবৈধ চাঁদাবাজি করছে। এ বিষয়ে ঢাকা সিটি করপোরেশনে শত শত অভিযোগ করেও কোনো প্রতিকার পাওয়া যায়নি। মাংস ব্যবসায়ীরা চাঁদাবাজির শিকার হওয়ায় অতিরিক্ত মূল্য জনগণের কাছ থেকে নেওয়া হচ্ছে। রবিউল আলম ঢাক