জীবনের প্রয়োজনে

বাংলাদেশ বিশ্ব অর্থনীতিতে দৃষ্টান্ত স্থাপন করবে

বাংলাদেশ বিশ্ব অর্থনীতিতে দৃষ্টান্ত স্থাপন করবে

বাংলাদেশ ও সুইজারল্যান্ডের দ্বিপক্ষীয় সম্পর্কের ওপর জোর দেয়ার পাশাপাশি অর্থনৈতিক উন্নয়ন ও সাংস্কৃতিক সহযোগিতা আরও জোরদার করা জরুরি। ২০১০ সালের তুলনায় বর্তমানে দুই দেশের মধ্যে বাণিজ্যিক লেনদেন বেড়েছে দ্বিগুণ। উন্নয়ন সহযোগিতায় সুইজারল্যান্ড এবং বাংলাদেশের সম্পর্ক দীর্ঘদিনের। সুইস উন্নয়ন সহযোগিতার ক্ষেত্রে বাংলাদেশ একটি অগ্রাধিকারপ্রাপ্ত দেশ। এ সম্পর্ক আরও নিবিড় হবে সুইজারল্যান্ডের প্রেসিডেন্ট আঁলা বেরসের এবারের সফরের মাধ্যমে।   সোমবার পরিকল্পনামন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল এসব কথা বলেন। বাংলাদেশ বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ আয়োজিত ও দ্য ফেডারেশন অব বাংলাদেশ চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ড্রাস্ট্রি আয়োজিত বাংলাদেশ সুইজারল্যান্ড ব্যবসায়ী ফোরাম অনুষ্ঠানের বিশেষ অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ সফররত সুইস ফেডারেশন প্রেসিডেন্ট আঁলা বেরসে।
রাখাইনের উন্নয়নে ভারত-মিয়ানমারের চুক্তি

রাখাইনের উন্নয়নে ভারত-মিয়ানমারের চুক্তি

সহিংসতায় বিধ্বস্ত রাখাইনের উন্নয়ন ও পরিস্থিতি স্বাভাবিক করার লক্ষ্যে মিয়ানমারের সঙ্গে একটি চুক্তি স্বাক্ষর করেছে প্রতিবেশি ভারত। সাম্প্রতিক সহিংসতায় লাখ লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে পালিয়ে এসেছে রাখাইন থেকে। এর মাঝেই বুধবার ভারত-মিয়ানমারের ওই চুক্তি স্বাক্ষর হয়েছে।   বুধবার দেশটির রাজধানী নেইপিদোতে ভারতের পররাষ্ট্র সচিব এস জয়শঙ্কর ও মিয়ানমারের সামাজিক কল্যাণ, ত্রাণ ও পুনর্বাসন উপ-মন্ত্রী ইউ সোয়ে অং ওই চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন।   গত আগস্টে রাখাইনে ব্যাপক সহিংসতা ছড়িয়ে পড়ার পর সেখানকার মানুষের আর্থ-সামাজিক ও জীবন-জীবিকার উন্নয়নে এই প্রথম কোনো দেশের সরকারের সঙ্গে মিয়ানমার সরকারের পারস্পরিক অংশীদারিত্ব চুক্ত স্বাক্ষর হলো।     রাষ্ট্রীয় সফরে বর্তমানে মিয়ানমারে রয়েছেন ভারতের পররাষ্ট্রসচিব এস জয়শঙ্কর। ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বলছে, রাখাইন রাজ্যের স্বাভাবিক পরিস
ধূমপানে হারিয়ে যাচ্ছে পুরুষ

ধূমপানে হারিয়ে যাচ্ছে পুরুষ

জীবনের প্রয়োজনে
পুরুষের রক্তকোষ থেকে ওয়াই ক্রোমোজোম হারিয়ে যাচ্ছে বলে প্রমাণ পেয়েছেন সুইডেনের গবেষকরা। তারা দাবি করছেন, তাদের এই গবেষণা ধূমপানে নারীর তুলনায় পুরুষের মৃত্যুহার বেশি হওয়ার কারণ জানতে সাহায্য করবে। ফিনল্যান্ডের গবেষকদের একটি দল এরই মধ্যে দেখিয়েছে, যেসব পুরুষের রক্তকোষের ওয়াই ক্রোমোজোম হারিয়ে যায়, তাদের ক্যানসারে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি বেড়ে যায়। তবে ঠিক কী কারণে এটা ঘটে, সে প্রশ্নের উত্তর এখনো বের করতে পারেননি তারা। সাম্প্রতিক গবেষণাসংক্রান্ত এ নিবন্ধ প্রকাশিত হয়েছে সায়েন্স সাময়িকীতে। গবেষকরা জানিয়েছেন, ছয় হাজারের বেশি পুরুষের রক্তের নমুনা পরীক্ষা করে দেখেছেন তারা। এ ছাড়াও জীবনযাপনের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট বিষয়, বয়স, রক্তচাপ, ডায়াবেটিস কিংবা মদ্যপানের অভ্যাসের বিষয়গুলো বিবেচনায় নিয়ে তারা গবেষণা করেছেন। গবেষকরা বলছেন, পুরুষ যতো বেশি ধূমপান করেন, ততোই তাদের রক্তকোষ থেকে ওয়াই ক্রোমোজোম হারিয়ে যেত
গ্যাস-বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন না করার দাবিতে রাস্তায় তারাপুরের জনতা

গ্যাস-বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন না করার দাবিতে রাস্তায় তারাপুরের জনতা

জীবনের প্রয়োজনে
সিলেঠ প্রতিনিধি: কথিত দানবীর রাগীব আলীর বিচার ও তারাপুর এলাকার বসতবাড়ির গ্যাস-বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন না করার দাবিতে রাস্তায় নেমে এসেছে জনতা। রবিবার সকাল থেকে নগরীর সুবিদবাজার, পাঠানটুলা ও মদিনামার্কেট পনিটুলা এলাকায় অবস্থান নিয়ে তারাপুরের লোকজন এ দাবি জানাচ্ছেন। জেলা প্রশাসন তারাপুর মৌজায় বসবাসকারীদের ১৩ আগস্টের মধ্যে স্বেচ্ছায় বাসা-বাড়ি ছেড়ে যাওয়ার নোটিশ দিয়েছিল। বেধে দেয়া সময়ের মধ্যে চলে না গেলে গ্যাস ও বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্নের ঘোষণাও দেয় জেলা প্রশাসন। আজ থেকে জেলা প্রশাসন গ্যাস ও বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্নে নামতে পারে এমন আশঙ্কায় তারাপুর এলাকার লোকজন রাস্তায় নেমে আসে। রাজপথে নেমে আসা লোকজনের দাবি- রাগীব আলী জালিয়াতির মাধ্যমে তারাপুর চা বাগান লিজ নিয়েছেন তা তাদের জানা ছিল না। রাষ্ট্রের সাথে রাগীব আলীর মামলা চলছে এ বিষয়েও সাধারণ মানুষ ওয়াকিবহাল ছিলেন না। রাগীব আলী তার দালালদের মালিক
ঈশ্বরদীর খাদ্য গুদামে চাল সংগ্রহ অভিযান উদ্বোধন

ঈশ্বরদীর খাদ্য গুদামে চাল সংগ্রহ অভিযান উদ্বোধন

স্বপন কুমার কুন্ড,পাবনা প্রতিনিধি: ঈশ্বরদীর দুটি খাদ্য গুদামে গতকাল বুধবার সরকারের আমন মৌসুমে চাউল সংগ্রহ অভিযান শুরু হয়েছে। বেলা বারোটায় শহরের এলএসডি গুদামে ফিতা কেটে চাউল সংগ্রহ অভিযান উদ্বোধন করেন উপজেলা চেয়ারম্যান মোখলেছুর রহমান মিন্টু। সংরক্ষণ ও চলাচল কর্মকর্তা বোরহান উদ্দিনের সভাপতিত্বে এসময় বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক জয়নাল আবেদীন। অন্যান্য অতিথিদের মধ্যে ছিলেন, চাউল কল মালিক সমিতির সভাপতি ফজলুর রহমান মালিথা, জুলমত হায়দার, সাদেক আলী বিশ্বাস, মিজান মহলদার, সাইদার রহমান বিশ্বাস, আকাল উদ্দিন সরদার প্রমূখ। উদ্বোধন কালে উপজেলা চেয়ারম্যান মোখলেছুর রহমান মিন্টু বলেন, ন্যায় ও নিষ্ঠার সাথে সরকারের এই চাউল সংগ্রহ অভিযান সম্পন্ন করতে হবে। চাউল সংগ্রহে কোন ঘুষ-দূর্ণিতি ও চাঁদাবাজী চলবে না বলে তিনি সকলকে হুসিয়ার করেন। চাউল মালিকদের মানসম্মত ভালো চাউল সরবরাহের জন্য তিনি আহব্বান জা

বাসা-বাড়ীতে বিদুৎ ও গ্যাস বিচ্ছিন্ন না করার দাবীতে জেলা প্রশাসকের কাছে তারাপুরবাসী স্মারকলিপি

জীবনের প্রয়োজনে
ডেস্ক রিপোর্ট: সম্প্রতি একটি মামলার প্রেক্ষিতে এলাকাবাসীকে বসতভিটা থেকে উচ্ছেদ এবং গ্যাস ও বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্নের জন্য গত ২ আগস্ট জেলা প্রশাসক স্বাক্ষরিত গণবিজ্ঞপ্তি জারি করা হয়। বিজ্ঞপ্তি খবরে এলাকার লোকজন চরম উদ্বিগ্ন ও আতঙ্কিত। হঠাৎ করে বাসাবাড়ির বিদ্যুৎ ও গ্যাস সংযোগ বন্ধ করে দিলে চরম মানবিক বিপর্যয় নেমে আসবে বলে দাবি করেন তারাপুরবাসী। তারাপুর সংলগ্ন অসহায় মানুষের বাসা-বাড়ীতে বিদুৎ ও গ্যাস বিচ্ছিন্নর না করার দাবীতে জেলা প্রশাসক‘র কাছে স্মারকলিপি প্রদান করেন তারাপুরবাসী। গতকাল সোমবার বেলা ১২টায়-তারাপুর থেকে একটি মিছিল বের হয়ে সিলেট জেলা প্রশাসক‘র কার্যলয়ে এসে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মো: শহিদুল ইসলাম‘র কাছে বিভিন্ন দাবী-দাওয়া নিয়ে তারাপুরবাসী স্মারকলিপি প্রদান করেন। স্মারকলিপি প্রদান পর অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক তারাপুরবাসীকে শান্তনা দিয়ে বলেন,প্রশাসনের পক্ষে থেকে যতটুকু সহযোগিতা করার তা

ডাক্তারের ভুল চিকিৎসায় রোগীর মৃত্যু

জীবনের প্রয়োজনে
বিভাগীয় প্রতিনিধি: বরিশাল নগরীর বহুল আলোচিত ও সমালোচিত চিকিৎসক হারুন অর রশিদের অবহেলায় ফের রোগী মৃত্যুর অভিযোগ উঠেছে। বৃহস্পতিবার নগরীর বান্দ রোডের সেবা ক্লিনিক এন্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টারে রেহানা বেগম নামের রোগীর মৃত্যুর ঘটনা ঘটে। মৃত্যু হেনারা ঝালকাঠীর নলছিটির চরকয়া এলাকার এনায়েত সিকদারের স্ত্রী। হেনারার বোনের ছেলে শহিদুল ইসলাম জানান, নাকে পলি পাস থাকার নলছিটি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের অবসরপ্রাপ্ত নাক-কান-গলা বিভাগের চিকিৎসক হারুন অর রশিদের প্রাইভেট চেম্বার নগরীর পুলিশ লাইন সড়কে নিয়ে আসে তার দালাল চক্র। ডা. হারুন রোগীকে দেখে তার নাকে অপারেশনের জন্য নগরীর বান্দ রোডের সেবা ক্লিনিক এন্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টারে ভর্তির পরামর্শ দেন। তার পরামর্শ অনুযায়ী বুধবার রোগীকে সেবা ক্লিনিকে নিয়ে ভর্তি করা হয়। গতকাল বৃহস্পতিবার অপারেশন করার পর রোগীকে শর্য্যায় দেয়া হয়। সেখানেই তার মৃত্যু হয়। হেনারার বোনের
বরিশাল শেবাচিমে মহিলা সার্জারী ওয়ার্ডে ফ্লুক্লোক্স্রাসিলিন ইনজেকশনই ভরষা

বরিশাল শেবাচিমে মহিলা সার্জারী ওয়ার্ডে ফ্লুক্লোক্স্রাসিলিন ইনজেকশনই ভরষা

জীবনের প্রয়োজনে
বরিশাল প্রতিনিধি: এশিয়ার সর্ব বৃহৎ ঐতিহ্যবাহী বরিশাল শেরই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মহিলা সার্জারী ওর্য়াডে চিকিৎসা সেবা চলছে অনেকটা খুরিয়ে খুরিয়ে। এই ওর্য়াডে আসা জরুরূ ী বিভাগের কাটা ছিরা রোগীদের চিকিৎসা সেবা দেয়ার ক্ষেত্রে এক মাত্র ফ্লুক্লোক্স্রাসিলিন ইনজেকশনই এক মাত্র ভরষা। সেক্ষেত্রে হেক্সিসল,পভিসেপ সহ ব্যথা নাশক কেটোরোক গ্রুপ ও এন্টিবায়োটিক গ্রুফের সেফ্রাডিন এবং ওমিপ্রাজল গ্রুপের ইনজেকশ পর্যন্ত সাপ্লাই নেই এই ওর্য়াডে। ফলে সরকারী এই প্রতিষ্ঠানটিতে গরীব রোগীদের চিকিৎসা সেবা পাওয়া অনেকটা প্রাইভেট হাসপাতালের মতোই ব্যয়বহুল হয়ে পড়েছে। এ ব্যাপারে আলাপকালে নুপুর বেগম (ছন্দনাম) নামের একজন রোগী জানান, তিনি গত কাল এই ওর্য়াডে ভর্ত্তি হলে কতর্ব্যরত ডাক্তার তার স্বজনদের ল্যাকটোরিং ১ হাজার সিসি-১ টি,স্যালোরাইড ১ হাজার সিসি-১ টি, লিব্যাক ৫০০ এমজি -৬টি,ব্যথানাশক রোলাক-৩টি ,প্রলিন২.০সি/বি, টিটি ভ্য
সাবধান ৭ চরিত্রের সুন্দরী থেকে !

সাবধান ৭ চরিত্রের সুন্দরী থেকে !

জীবনের প্রয়োজনে, ফিচার
লাইফস্টাইল ডেস্ক : ভুল মানুষকে ভালোবেসে পস্তাতে হয় সবাইকে। কিন্তু কি করে বুঝবেন, কে আপনার ভালোবাসার রাজপ্রাসাদ ধুলোয় মিশিয়ে দিতে পারে? জেনে নিন, কোন ৭ ধরনের নারী সম্পর্কে সাবধানে থাকা জরুরী। নারীর প্রেমে পড়ার কোনও নির্দিষ্ট কারণ খুঁজে পায় কি পুরুষ? কেউ রূপে মজেন, কেউ বা রসবোধে, আবার কেউ তার নিষ্পাপ কথায় আকৃষ্ট হয়ে অজান্তেই আত্মসমর্পণ করে ফেলেন। প্রেমে পড়ার আগে চোখ-কান একটু খোলা রাখা ভালো। জেনে নিন, কোন ৭ ধরনের নারীকে ভালোবাসার আগে একটু সমঝে চললে আখেরে আপনারই লাভ হবে। ১) মেরামত প্রয়োজন এই রকম মেয়েদের প্রায় নিখুঁত বলা চলে। তবে তারা নিজেদের সঠিক মূল্যায়ন করতে পারেন না। কনফিডেন্সের দিক থেকে তাই খানিক পিছিয়ে থাকেন। জগতের যাবতীয় আক্রমণের জবাব দেন নিজেকে নিয়ে নানান রসিকতার মাধ্যমে। কিন্তু আপনার চোখে তো তিনিই সেরা! মনে হতেই পারে, আপনার নজরে তার রূপটি যদি একবার আয়নায় দেখানো যেত...। সাবধ
মালালা যেভাবে কোটিপতি

মালালা যেভাবে কোটিপতি

কোটিপতি হওয়ার স্বপ্ন কে না দেখে। অনেকেই সেই স্বপ্ন দেখতে দেখতে বুড়ো হয়ে যান। তবুও অধরায় থেকে যায় কোটিপতির জীবন। তবে কেউ কেউ আবার মেঘ না চাইতেই বৃষ্টি পান। কোটিপতি কী, সেটা বুঝার বয়স হয়ে উঠার আগেই হয়ে উঠেন কোটিপতি। এই যেমন মালালা ইউসুফজাই। বয়স মাত্র ১৮ বছর, অথচ এর মধ্যেই কোটি কোটি টাকার মালিক হয়ে উঠেছেন পাকিস্তানের এই কিশোরী। সেটিও আবার স্রেফ বই বিক্রি আর বক্তৃতার পয়সায়! নোবেল বিজয়ী মালালা মাত্র তিন বছরে এত বেশি সম্পদ আয় করেছেন যে ইচ্ছে করলেই তাকে মিলিওনিয়ারদের তালিকাভুক্ত করা যায়। এ অর্থের বেশিরভাগই এসেছে তার জীবনীগ্রন্থ ‘আই অ্যাম মালালা’ বিক্রি থেকে। এ খবর দিয়েছে ব্রিটিশ ট্যাবলয়েড দ্য ডেইলি মেইল। ডেইলি মেইল জানায়, সালার্জাই লিমিটেড কোম্পানি মালালার জীবনীগ্রন্থের স্বত্বটি দেখভাল করে। বই বিক্রি থেকে তাদের মোট মুনাফা এসেছে ১১ কোটি ৩৯ লাখ ৪৯ হাজার টাকা। এই কোম্পানিতে মালালা ও তার বাব