করোনা ইস্যু দেখিয়ে ৭ লক্ষাধিক ভারতীয়কে দেশে ফেরত পাঠাচ্ছে ওমান!

প্রকাশিত:শুক্রবার, ০৮ মে ২০২০ ০৪:০৫

করোনা ইস্যু দেখিয়ে ৭ লক্ষাধিক ভারতীয়কে দেশে ফেরত পাঠাচ্ছে ওমান!

ভারতীয় RSS ও BJP হিন্দুরা যেভাবে করোনা ইস্যুতে মুসলমানদের পিটিয়ে মেরে ফেলছে। ত্রাণ দিচ্ছে না। ত্রাণ নিতে গেলে ‘জয় শ্রীরাম’ বলতে বাধ্য করাচ্ছে। বিবাহিত অবিবাহিত নারীদের ইজ্জত আব্রু নিয়ে ছিনিমিনি খেলছে।

অন্তত দেরিতে হলেও আরব বিশ্বের নজর কেড়েছে। যার শুরুয়াত করেছে সংযুক্ত আরব আমিরাত থেকে অতপর ওমান অচিরেই এই পদক্ষেপ গ্রহণ করবে আরব বিশ্ব।

 

সংযুক্ত আরব আমিরাতের মতো একইভাবে। ওমান থেকে করোনা ইস্যু দেখিয়ে ৭লাখ ভারতীয়কে ফেরত দেশে পাঠাবে ওমান সরকার।ওমান করোনা ইস্যু দেখিয়ে ৭ লক্ষাধিক ভারতীয়কে দেশে ফেরত পাঠাচ্ছে।

করোনায় রোজা রেখে, বোরকা পরেই মন্দির জীবাণুমুক্ত করছেন মুসলিম তরুণী ইমরানা

রোজা রেখে, বোরকা পরেই মন্দির জীবাণুমুক্ত করছেন এক ভারতীয় মুসলিম তরুণী
রাহবার: করোনা মহামারী চলাকালীন সময়ে এই রমজানে মাথা থেকে পা পর্যন্ত বোরখায় ঢেকে মন্দির পরিস্কারে কাজ করছেন এক তরুণী। ঘটনাটি ভারতের উত্তর দিল্লিতে। খবর এনডিটিভি বাংলা’র।

 

মানব সেবায়রত ৩২ বছর বয়সী এই তরুণীর নাম ইমরানা সাইফি। এতরুণীর উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়েছে উত্তর দিল্লির নেহেরু বিহার।

জানা গেছে, তিন সন্তানের জননী ইমরানা রোজা রেখেই জীবাণুনাশক-স্প্রে নিয়ে ঘুরছেন উত্তর দিল্লির প্রতিটি প্রান্ত।

ইমরানার পরিবার সূত্রে জানা যায়, সপ্তম শ্রেণীর পর আর পড়াশোনা চালিয়ে নিয়ে যেতে পারেননি এই তরুণী। এই সঙ্কটের মুহূর্তে মানুষের পাশে থাকতে নিজে উদ্যোগ নিয়ে ৩ সদস্যের একটা দল তৈরি করেন তিনি।

 

স্থানীয়দের দাবি, “বরাবর মানবতার পক্ষে লড়াই করেন ইমরানা। মাস তিনেক আগে নাগরিকত্ব বিল নিয়ে যখন উত্তাল দিল্লি, তখনও ধর্মের ভেদাভেদ না রেখে আর্তদের পাশে এসে দাঁড়িয়েছিলেন ইমরানা সাইফি।”

ইমরানা বলেছেন, “এই সঙ্কটকালে আমরা মন্দির-মসজিদ ভেদাভেদ করছিনা। যেখানেই দেখছি জীবাণুমুক্ত করার প্রয়োজন, ঢুকে পরে স্প্রে করে দিচ্ছি। এখনও পর্যন্ত কোনও মহল থেকে বাধা আসেনি। আমি ভারতের সম্প্রীতি বজায় রাখতে চাই। আমি দেখাতে চাই আমরা সবাই এক, একসঙ্গেই বাঁচতে চাই।”

 

 

এই সংবাদটি 1,228 বার পড়া হয়েছে

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন।
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •