চুক্তি স্বাক্ষর করেছে মেটা ও মাইক্রোসফট

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার, ১১ নভে ২০২১ ১০:১১

চুক্তি স্বাক্ষর করেছে মেটা ও মাইক্রোসফট

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ডেস্কঃ 

মেটা’র সঙ্গে চুক্তি স্বাক্ষর করেছে মাইক্রোসফট। এর মাধ্যমে একীভূত হচ্ছে ফেসবুকের ওয়ার্কপ্লেস ও মাইক্রোসফট টিমস

মেটা’র সঙ্গে চুক্তি স্বাক্ষর করেছে মাইক্রোসফট। এর মাধ্যমে একীভূত হচ্ছে ফেসবুকের ওয়ার্কপ্লেস ও মাইক্রোসফট টিমস। বুধবার ফেসবুকের স্বত্বাধিকারী প্রতিষ্ঠান মেটা মাইক্রোসফটের সঙ্গে নতুন এই চুক্তি স্বাক্ষর করে।

ডিসেম্বর থেকে থেকে ফেসবুকের ওয়ার্কপ্লেসের কন্টেন্ট, মিটিং বা লাইভ স্ট্রিম মাইক্রোসফটের টিমস অ্যাপে দেখতে পারবেন ব্যবহারকারীরা। একইভাবে, ফেসবুক ওয়ার্কপ্লেস অ্যাপের মাধ্যমেও মাইক্রোসফট টিমস এর ভিডিও মিটিংগুলো দেখা যাবে। এজন্য অ্যাপ পরিবর্তন করার প্রয়োজন হবে না।

যোগাযোগের জন্য ব্যবহৃত সফটওয়্যারের বাজারের দুই প্রতিদ্বন্দ্বীকে এক করে দিয়েছে এই চুক্তি। যদিও ‘ওয়ার্কপ্লেস’ ও ‘টিমস’ পুরোপুরি একই ধরনের অ্যাপ না হলেও বেশকিছু বৈশিষ্ট্যগত মিল রয়েছে। পার্থক্যে হল ‘ওয়ার্কপ্লেস’ কিছুটা বিস্তৃত এবং কোনো নির্দিষ্ট প্রতিষ্ঠানের কর্মীদের মধ্যে যোগাযোগের জন্য ব্যবহৃত হয়। অন্যদিকে ‘টিমস’ হচ্ছে সহকর্মীদের মধ্যে তাৎক্ষণিক যোগাযোগের মাধ্যম।

 

‘ওয়ার্কপ্লেস’ এর প্রধান উজ্জ্বল সিং জানান, মূলত ‘ভোডাফোন’ ও ‘অ্যাকসেনচিউর’ এর মত বড় বড় ক্রেতাদের অনুরোধেই এই চুক্তি।

‘আমাদের ব্যবহারকারীরা কেবল পরিপূরক ফিচারগুলোই ব্যবহার করবে, প্রতিদ্বন্দ্বী ফিচারগুলো ব্যবহার করবে না। কিছু ব্যবহারকারী আছেন যারা শুধু ওয়ার্কপ্লেস ব্যবহার করেন, আবার অনেকে টিমস ব্যবহার করেন। এই একীভূতকরণ তাদের জন্যই, যারা দুটিই ব্যবহার করেন। এটি তাদের জন্য আরও সহজ হবে’—জানান উজ্জ্বল সিং।

 

প্রতিদ্বন্দ্বীদের থেকে মেটা’র ‘ওয়ার্কপ্লেস’ এখনো অনেক পিছিয়ে আছে। এ কারণে এই চুক্তিটি মেটার জন্য লাভজনক হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা।

একীভূত হচ্ছে ফেসবুকের ওয়ার্কপ্লেস ও মাইক্রোসফটের টিমস

গত মে মাসের তথ্যমতে ওয়ার্কপ্লেসে ৭ মিলিয়ন পেইড ব্যবহারকারী ছিল। অন্যদিকে গত জুন মাসের হিসেবে জানা যায়, মাস জুড়ে ২৫০ মিলিয়ন সক্রিয় ব্যবহারকারী টিমস ব্যবহার করেছে। এদিকে গত ২০১৯ সালের সেপ্টেম্বরের তথ্য অনুযায়ী ‘সেলসফোর্স’ এর মালিকানাধীন ‘স্ল্যাক’ এর দৈনিক সক্রিয় ব্যবহারকারী ছিল ১২ মিলিয়ন। এরপর আর কোনো তথ্য প্রকাশ করেনি তারা। এই সময়ের মধ্যে পেইড সেবাগ্রহণকারীর সংখ্যা ৩৯ শতাংশ বেড়ে গত জুনে ১৬৯,০০০ হয়েছে।

টিমস ছাড়াও মাইক্রোসফটের আরেক সেবা ‘ইয়ামার’ মেটার ‘ওয়ার্কপ্লেস’ সেবার সাথে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে। গত আগস্টে মাইক্রোসফটের দেওয়া তথ্যমতে, ইয়ামারের ব্যবহারকারী প্রতিমাসে দশ মিলিয়ন।

যদিও ওয়ার্কপ্লেস মাইক্রোসফটের অফিস ৩৬০, শেয়ারপয়েন্ট, অ্যাজিউর অ্যাক্টিভ ডিরেক্টরি, ওয়ানড্রাইভ এবং সর্বশেষ টিমসের সাথে একীভূত হয়েছে, তবে এটি এখনও ইয়ামারের সাথে সংযুক্ত হয়নি। মেটার ‘ওয়ার্কপ্লেস’ এর প্রধান উজ্জ্বল সিং আরও বলেন, ‘আমি বলব আমরা যোগাযোগের দিক দিয়ে সেরা আর টিমস তাদের জায়গায় অন্যতম সেরা, তাই এই দুইয়ের একীভূতকরণে পেশাজীবিদের সমস্যার  সমাধান হবে।’

এই সংবাদটি 1,225 বার পড়া হয়েছে

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন।
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •