দ্বিতীয় দীর্ঘতম ইনিংসে বাংলাদেশের রান পাহাড়

প্রকাশিত:শুক্রবার, ২৩ এপ্রি ২০২১ ০৪:০৪

দ্বিতীয় দীর্ঘতম ইনিংসে বাংলাদেশের রান পাহাড়

সাদা পোশাকে নিকট অতীতে বলার মতো কোনও অর্জন ছিল না বাংলাদেশের। ব্যক্তিগত দুই একটি অর্জন থাকলেও দলগত প্রাপ্তির খাতা মলিন। পাল্লেকেলেতে দল ফিরলো স্বরূপে। স্বস্তি এনে দিয়েছেন ব্যাটসম্যানরা। তাতে রানের পাহাড় গড়েছে বাংলাদেশ।

৭ উইকেটে ৫৪১ রানে ক্যান্ডি টেস্টের প্রথম ইনিংস ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ। দ্বিতীয় দিনের ৪৭৪ রানের সঙ্গে শুক্রবার (২৩ এপ্রিল) আরও ৬৭ রান যোগ করেছেন মুশফিকুর রহিম, লিটন দাশরা। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে এটি বাংলাদেশের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ সংগ্রহ, সব মিলিয়ে ষষ্ঠ।

 

২০১৩ সালে গলে বাংলাদেশ ৬৩৮ রান করেছিল যা দেশের টেস্টে সর্বোচ্চ রান। ওই ইনিংস তারা খেলেছিল ১৯৬ ওভারে। আর এবার খেললো ১৭৩ ওভার, যা বাংলাদেশের দ্বিতীয় দীর্ঘতম ইনিংস।

আগের দিনের দুই অপরাজিত ব্যাটসম্যান লিটন ও মুশফিক পেয়েছেন হাফ সেঞ্চুরির স্বাদ। তবে এদিন মন্থর গতিতে এগিয়েছে ব্যাটিং। বিশেষ করে মুশফিকের ব্যাটিং ছিল স্রোতের উল্টো। গতকাল দিনের খেলা শেষে কোচ রাসেল ডমিঙ্গো জানিয়েছিলেন, আক্রমণাত্মক ব্যাটিংয়ে দ্রুত রান তুলতে হবে ব্যাটসম্যানদের। সেই কাজ ব্যাটসম্যানরা করেছেন সামান্য। সকালের সেশনে ৬৭ রান তুলতে বাংলাদেশ খেলেছে ১৮ ওভার।

লিটন অষ্টম টেস্ট হাফ সেঞ্চুরি পাওয়ার পর বিশ্ব ফার্নান্ডোর বলে গালিতে ক্যাচ দেন। মেহেদী হাসান মিরাজ ৩ রানে ফেরেন সুরাঙ্গা লাকমলের বলে উইকেটের পেছনে ক্যাচ দিয়ে। তাইজুল ইসলামকে ফিরিয়ে বাঁহাতি পেসার বিশ্ব নেন নিজের চতুর্থ উইকেট। মুমিনুলের ইনিংস ঘোষণার সময় মুশফিক অপরাজিত থাকেন ৬৮ রানে। তাসকিনের ব্যাট থেকে আসে ৬ রান।

 

প্রথম দিন ব্যাটসম্যানদের জন্য কাজ সহজ করে দিয়েছিলেন তামিম ইকবাল। তবে বাঁহাতি ওপেনার মাত্র ১০ রানের জন্য সেঞ্চুরি পাননি। সাইফ হাসান ফেরেন শূন্য রানে। নাজমুল হোসেন শান্ত আন্তর্জাতিক অঙ্গনে প্রথম শতকের স্বাদ পান। তার ব্যাট থেকে আসে ১৬৩ রানের ঝকঝকে ইনিংস। মুমিনুলের জন্যও এ ম্যাচটি স্মরণীয়। ১২৭ রানের ইনিংসে তিনি বিদেশের মাটিতে প্রথম সেঞ্চুরির দেখা পেয়েছেন।

ব্যাটসম্যানরা ফিরিয়ে এনেছেন স্বস্তি। এবার বোলারদের কঠিন পরীক্ষা দেওয়ার পালা।

এই সংবাদটি 1,232 বার পড়া হয়েছে

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন।
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •