মেসির বহু পুরোনো ব্যালন ডি’অর জয় নিয়ে ‘প্রশ্ন’ তুলেছেন ডাচ ফুটবলার - BANGLANEWSUS.COM
  • নিউইয়র্ক, সন্ধ্যা ৬:৩৮, ২৪শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ


 

মেসির বহু পুরোনো ব্যালন ডি’অর জয় নিয়ে ‘প্রশ্ন’ তুলেছেন ডাচ ফুটবলার

newsup
প্রকাশিত ডিসেম্বর ৪, ২০২৩
মেসির বহু পুরোনো ব্যালন ডি’অর জয় নিয়ে ‘প্রশ্ন’ তুলেছেন ডাচ ফুটবলার

নিউজ ডেস্ক: ব্যালন ডি’অরসহ যেকোনো পুরস্কার ও শিরোপা জয় লিওনেল মেসির কাছে ডালভাত। আর্জেন্টিনার বিশ্বজয়ী ফুটবলারের ক্যাবিনেট যে পুরস্কারের ভাণ্ডার। প্রতি বছরই কোনো না কোনো শিরোপা, পুরস্কার তিনি পেয়েই পাচ্ছেন।

মেসি এখন পর্যন্ত তাঁর ক্যারিয়ারে ব্যালন ডি’অর জিতেছেন ৮ টি। ২০০৯ এ পেয়েছেন প্রথমবার। এরপর ২০১২ পর্যন্ত টানা জিতেছেন চতুর্থ ব্যালন ডি’অর। আর সর্বশেষ অষ্টম ব্যালন ডি’অর জিতেছেন ২০২৩ সালে। যার মধ্যে আর্জেন্টিনার বিশ্বজয়ী ফুটবলারের ২০১০ এর ব্যালন ডি’অর জয় যেন মেনে নিতে কষ্ট হচ্ছে ওয়েসলি স্নেইডারের। ২০১০ ফুটবল বিশ্বকাপে নেদারল্যান্ডস হয়েছে রানার্সআপ। ৫ গোল করে স্নেইডার যৌথভাবে সর্বোচ্চ গোলদাতা হয়েছেন সেই বিশ্বকাপে। একই সঙ্গে ইন্টার মিলানের হয়ে ২০০৯-১০ মৌসুমের চ্যাম্পিয়নস লিগ জিতেছেন ডাচ ফরোয়ার্ড। সেই চ্যাম্পিয়নস লিগে করেছেন ৩ গোল ও অ্যাসিস্ট করেছেন ৬ গোলে।

অন্যদিকে ২০১০ বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনা বাদ পড়েছে কোয়ার্টার ফাইনালে। সেই বিশ্বকাপে মেসি কোনো গোল পাননি। অ্যাসিস্ট করেছেন ১ গোলে। ২০০৯-১০ মৌসুমের চ্যাম্পিয়নস লিগে বার্সেলোনার হয়ে করেছেন ৮ গোল। সেবার ব্যালন ডি’অর পাওয়ার দৌড়ে প্রথম তিনে ছিলেন বার্সার তৎকালীন তিন তারকা মেসি, আন্দ্রেস ইনিয়েস্তা ও জাভি হার্নান্দেজ। স্নেইডার ছিলেন চার নম্বরে। মিশরের আলহাইয়া টিভিতে এক সাক্ষাৎকারে ডাচ ফরোয়ার্ড বলেন, ‘এখানে কিছুটা অবিচার হয়েছে যে আমি ২০১০ ব্যালন ডি’অর জিততে পারিনি আর মেসি সেটা জিতেছে। তবে আমি এমন না যে সেটা নিয়ে কান্নাকাটি করব।’

স্নেইডার ২০১০ বিশ্বকাপে রানার্সআপ হওয়া নিয়েও আফসোস করেছেন। ডাচ ফরোয়ার্ড বলেন, ‘ব্যালন ডি’অর হচ্ছে ব্যক্তিগত শিরোপা। আমার কাছে দলগত শিরোপাই মুখ্য। যদি আমাকে ব্যালন ডি’অর. চ্যাম্পিয়নস লিগ যেকোনো একটা বেছে নিতে হয়, আমি চ্যাম্পিয়নস লিগকে বেছে নেব। স্পেনের বিপক্ষে ২০১০ বিশ্বকাপের ফাইনাল আমাদের জেতা উচিত ছিল। তবে তারা (স্পেন) দুর্দান্ত খেলে আমাদের হারিয়েছে।’

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন।