রেজোয়ান সিদ্দিকী - BANGLANEWSUS.COM
  • নিউইয়র্ক, দুপুর ২:০৯, ১৩ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ


 

রেজোয়ান সিদ্দিকী

banglanewsus.com
প্রকাশিত জানুয়ারি ২৪, ২০২৪
রেজোয়ান সিদ্দিকী

মীযানুল করীম :: গত রোববার শিশুসাহিত্যিক খালেক বিন জয়নুদ্দীন মারা গেলেন। এর পরদিনই আমরা হারালাম গীতিকবি জাহিদুল হককে। তাদের বয়স হয়েছিল যথাক্রমে ৭০ ও ৭৬ বছর। পরদিন মঙ্গলবার রেজোয়ান সিদ্দিকী ৭১ বছর বয়সে চিরবিদায় নিলেন। রেজোয়ান সিদ্দিকী দৈনিক নয়া দিগন্তে নিয়মিত কলাম লিখতেন। তিনি অনেক সময়ে দুপুরে নয়া দিগন্তে অফিসে এসে খাওয়ার পরে লেখা শুরু করতেন। দৈনিক সংগ্রামসহ আরো কয়েকটি দৈনিক পত্রিকায়ও তিনি লিখতেন। তার লেখার একটি বিশেষ স্টাইল ছিল ভাষায় ও বক্তব্যে।
তিনি বলতেন, ‘আমি স্ত্রীর বাসায় থাকি। আমার বাসা নেই’। আসলে তার স্ত্রী রেসিডেনশিয়াল মডেলের শিক্ষিকা ছিলেন। তিনি স্ত্রীর অফিসিয়াল বাসায় থাকতেন। পরে কলাবাগান লেকসার্কাসে এসে বাসা নেন। তিনি লালমাটিয়ার বাসায় উঠতে পারেননি, আবাসিক শিল্পের দুর্দশার কারণে। সে কথাও একবার কলামে লিখে গেছেন। তার বাসাটি দীর্ঘদিনেও সম্পূর্ণ হয়নি। এমন অবস্থা অনেকেরই। তিনি রোহিঙ্গা শরণার্থীদের পরিপ্রেক্ষিতে তাদের এলাকা আরাকান সফরের উপরে লিখেছেন। তার লেখায় এক ধরনের পরিহাসপ্রিয়তা ছিল।

 

ড. রেজোয়ান সিদ্দিকীর জন্ম ১৯৫৩ সালের ১০ ফেব্রুয়ারি টাঙ্গাইলের এলাসিন গ্রামে। শিক্ষাজীবন শেষে ১৯৭২ সালের ফেব্রুয়ারিতে তদানীন্তন দৈনিক বাংলায় যোগ দিয়ে তার সাংবাদিকতা পেশা শুরু হয়। দৈনিক বাংলা বন্ধ হওয়ার পরে তিনি দৈনিক দিনকালে একটানা কাজ করেছেন। পরে তিনি দৈনিক আমার দেশ পত্রিকায় (অধুনা বিলুপ্ত) বার্তা সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। এরপর আবার দৈনিক দিনকালে যোগ দিয়ে ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব নেন। ১৯৯১ সালে প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার ডেপুটি প্রেস সেক্রেটারি ছিলেন। ২০০১ সালে খালেদা জিয়া সরকার ক্ষমতায় আসার পরে ড. রেজোয়ান সিদ্দিকী প্রেস ইনস্টিটিউটের মহাপরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। ড. রেজোয়ান সিদ্দিকী ছোটগল্পকার ও কলাম লেখক ছিলেন। উপন্যাস, গল্প, নাটক, বিজ্ঞান, প্রকৃতি-পরিবেশ, ফিকশন, অনুবাদ, সঙ্কলন সব কিছু মিলে অর্ধশতাধিক বই লিখেছেন। ‘কথামালার রাজনীতি’ তার লেখা গ্রন্থগুলোর অন্যতম।

 

 

সরকার কর্তৃক ডিক্লারেশন ও মুদ্রণের প্রকাশনা বাতিল হওয়ায় বন্ধ থাকা দৈনিক দিনকালের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক হিসেবে সর্বশেষ দায়িত্ব পালন করেন ড. রেজোয়ান হোসেন সিদ্দিকী। তিনি সাংবাদিক মহলে রেজোয়ান সিদ্দিকী হিসেবে পরিচিত ছিলেন। তার মৃত্যুতে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান, সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী গভীর শোক প্রকাশ করেছেন।

ড. রেজোয়ান সিদ্দিকী ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় প্রকাশনা সংস্থার পরিচালক মনোনীত হয়েছিলেন নিজ যোগ্যতার গুণে। কিন্তু বিশ্ববিদ্যালয়ের তদানীন্তন বৈরী প্রশাসনের কারণে তিনি যোগ দিতে পারেননি। শেষ জীবনে শত কর্মব্যস্ততার মধ্যেও কলাম লেখা চালিয়ে গেছেন। প্রেস ইনস্টিটিউটের মহাপরিচালক থাকাকালে তার কর্মতৎপরতার নজির সম্পর্কে সাংবাদিক মরহুম ফজলুল করিম লিখে গেছেন। তিনি ১৯৯১ সালে নেদারল্যান্ডস থেকে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত হন। আমরা তার রুহের মাগফিরাত কামনা করি এবং তার শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সহানুভূতি জানাই।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন।