যে কারণে অনেকেই টের পান না তারা ডায়াবেটিসে ভুগছেন - BANGLANEWSUS.COM
  • নিউইয়র্ক, রাত ১১:৫৯, ২২শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ


 

যে কারণে অনেকেই টের পান না তারা ডায়াবেটিসে ভুগছেন

newsup
প্রকাশিত ফেব্রুয়ারি ২৮, ২০২৩
যে কারণে অনেকেই টের পান না তারা ডায়াবেটিসে ভুগছেন

ডেস্ক নিউজ: টাইপ ২ ডায়াবেটিসে আক্রান্তদের প্রায়ই প্রথম দিকে কোনো উপসর্গ থাকে না। এমনকি অনেক বছর ধরে তাদের উপসর্গ নাও থাকতে পারে।

মেডলাইনপ্লাস. অর্গ এর তথ্য অনুসারে, রক্তে শর্করার মাত্রা বেড়ে গেলে বেশ কিছু লক্ষণ দেখা দেয় শরীরে, যা অনেকে টের পান আবার কেউ কেউ অবহেলা করেন-

>> মূত্রাশয়, কিডনি, ত্বক বা অন্যান্য সংক্রমণ বেড়ে যাওয়া
>> ক্ষত নিরাময়ে দেরি হওয়া
>> ক্লান্তি
>> ক্ষুধা
>> তৃষ্ণা বেড়ে যাওয়া
>> অতিরিক্ত প্রস্রাবের তাগিদ
>> ঝাপসা দৃষ্টি

দীর্ঘদিন ডায়াবেটিসে ভুগলে গুরুতর স্বাস্থ্য সমস্যা দেখা দিতে পারে। তবে প্রাথমিক অবস্থায় শনাক্ত ও নিয়মিত জীবনযাপন ও সঠিক চিকিৎসা নেওয়ার মাধ্যমে সহজেই ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব।

ডায়াবেটিস বা রক্তে শর্করার পরমিাণ বেড়ে গেলে শরীর পর্যাপ্ত ইনসুলিন তৈরি করে না। অথবা এটি যে ইনসুলিন তৈরি করে তা ব্যবহার করতে পারে না। ইনসুলিন একটি হরমোন।

এটি চিনিকে শক্তি হিসাবে ব্যবহার করতে কোষে প্রবেশ করতে সহায়তা করে। ইনসুলিন ছাড়াই আপনার রক্তে অত্যধিক চিনি সংগ্রহ করে। ডায়াবেটিস মূলথ ৩ প্রকার- টাইপ ১, টাইপ ২ ও গর্ভকালীন ডায়াবেটিস।

প্রি ডায়াবেটিস প্রায়ই টাইপ ২ ডায়াবেটিসের আগে ঘটে। রক্তে শর্করার মাত্রা স্বাভাবিকের চেয়ে বেশি হলে প্রি ডায়াবেটিস হয়। তবে ডায়াবেটিসের মতো বেশি নয়। প্রি ডায়াবেটিসে আক্রান্ত অনেক লোকের ১০ বছরের মধ্যে টাইপ ২ ডায়াবেটিস হয়।

মার্কিন প্রাপ্তবয়স্কদের ৩ জনের মধ্যে একজন প্রি ডায়াবেটিসে ভুগছেন। আর তাদের অধিকাংশই জানে না যে তারা কী ধরনের ঝুঁকির সম্মুখীন হতে চলেছেন। প্রি ডায়াবেটিস হৃদরোগ ও স্ট্রোকের ঝুঁকি বাড়ায়।

জীবনধারা পরিবর্তনের পাশাপাশি অতিরিক্ত ওজন কমানো ও শরীরচর্চার মাধ্যমে ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব। বিশেষ করে যারা দীর্ঘক্ষণ বসে থাকেন, তাদের উচিত দৈনিক আধা ঘণ্টা করে শরীরচর্চা করা।

ডায়াবেটিসের জটিলতাগুলোর মধ্যে আছে-

>> চোখের সমস্যা ও অন্ধত্ব
>> হৃদরোগ
>> স্ট্রোক
>> স্নায়ুতন্ত্রের সমস্যা
>> অঙ্গ হারানো
>> কিডনি রোগ
>> পুরুষত্বহীনতা
গর্ভকালীন ডায়াবেটিস ব্যতীত, ডায়াবেটিস একটি চলমান (দীর্ঘস্থায়ী) রোগ যা নিরাময় করা যায় না। এটি শরীরের প্রায় প্রতিটি অংশকে প্রভাবিত করে। এটি অন্যান্য গুরুতর রোগের কারণ হতে পারে।

এমনকি জীবনের জন্য হুমকিস্বরূপও হতে পারে। তাই শারীরিক কোনো লক্ষণকে অবহেলা না করে সঠিক চিকিৎসা নিন। ডায়াবেটিস সচেতনতা দিবস আজ। দিবসটির এবারের প্রতিপাদ্য- ‘ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণ সর্বক্ষণ: সুস্থ দেহ, সুস্থ মন’। ১৯৫৬ সালের ২৮ ফেব্রুয়ারি বাংলাদেশ ডায়াবেটিক সমিতি প্রতিষ্ঠা হয়। ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে সচেতন করে তুলতেই বাংলাদেশ ডায়াবেটিক সমিতি তার প্রতিষ্ঠা দিবসকে ডায়াবেটিক সচেতনতা দিবস হিসেবে পালনের উদ্যোগ নেয়।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন।