পেঁয়াজের ঝাঁজ কমলেও বেড়েছে মাছ-মুরগির দাম - BANGLANEWSUS.COM
  • নিউইয়র্ক, বিকাল ৪:০৫, ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ


 

পেঁয়াজের ঝাঁজ কমলেও বেড়েছে মাছ-মুরগির দাম

newsup
প্রকাশিত অক্টোবর ১৫, ২০২১
পেঁয়াজের ঝাঁজ কমলেও বেড়েছে মাছ-মুরগির দাম

অর্থনীতি ডেস্কঃ 

রাজধানীর বাজারগুলোয় পেঁয়াজের ঝাঁজ কিছুটা কমলেও বেড়েছে মাছ ও ব্রয়লার মুরগির দাম। সেপ্টেম্বরের মাঝামাঝি ব্রয়লারের দাম ছিল ১৬০ থেকে ১৬৫ টাকা। এখন ব্যবসায়ীরা ১৮০ থেকে ১৮৫ টাকায় বিক্রি করছেন ফার্মের মুরগি। গত সপ্তাহে ৮০ টাকা কেজি বিক্রি হওয়া পেঁয়াজ এখন বিক্রি হচ্ছে ৬৫ থেকে ৬৮ টাকায়।

জানা গেছে, পেঁয়াজ ও চিনির দাম নিয়ন্ত্রণে শুল্ক কমিয়েছে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর)। পেঁয়াজ আমদানির ক্ষেত্রে শুল্ক ১০ শতাংশ থেকে কমিয়ে ৫ শতাংশ নির্ধারণ করা হয়েছে। এখবরেই হঠাৎ করেই কমেছে মূল্য।

দেখা গেছে, বাজারে বিভিন্ন মাছের দাম ঊর্ধ্বমুখী। এক কেজি থেকে ১ হাজার ২০০ গ্রাম ওজনের রুইমাছ বিক্রি হচ্ছে ২৫০ থেকে ২৮০ টাকা কেজিতে। দেড় কেজির আশপাশের বোয়াল মাছের কেজি চাওয়া হচ্ছে ৬৫০ থেকে ৭০০ টাকা। কাতল মাছ ৪০০ টাকা। এমনকি ছোট আকারের পাঙ্গাস মাছের দামও দুই শ ছুঁই ছুঁই।

বাজারে এসেছে আগাম শীতের সবজি, বিক্রি হচ্ছে চড়া দামে। শিমের কেজি চাওয়া হচ্ছে ১০০ টাকা, ফুলকপি ও বাঁধাকপি বিক্রি হচ্ছে ৮০ থেকে ৯০ টাকা জোড়া। টমেটোর দাম ১২০ থেকে ১৩০ টাকার মধ্যে।

বাজারে আসা ক্রেতা তানভীর আহমেদ বলেন, ‘মুরগির দাম তো কমছেই না। মাসে বেতন পাই একবার, জিনিসপত্রের দাম বাড়ে দুই বার। প্রতি মাসে বেতন না বাড়লেও বাড়তি দামে বাজার করতে হচ্ছে। এভাবে বাঁচা দায়।’

কাওরান বাজারের মুরগীর ব্যবসায়ী রমজান বলেন, ‘বাজারে যোগান কম থাকায় দাম এখন বাড়তি। কিছুদিনের মধ্যে সরবরাহ বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে, তখন দাম কমবে।

সবজি ব্যবসায়ী রাজা মিয়া বলেন, ‘শীতের সবজি মাত্রই বাজারে এসেছে তাই দাম বেশি। শীত পুরোপুরি নেমে গেলে দাম কমবে।’

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন।