মার্কিন ভিসা নিষেধাজ্ঞার জালে আড়াই শতাধিক কর্মকর্তা - BANGLANEWSUS.COM
  • নিউইয়র্ক, সকাল ১১:০৭, ১৪ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ


 

মার্কিন ভিসা নিষেধাজ্ঞার জালে আড়াই শতাধিক কর্মকর্তা

newsup
প্রকাশিত মে ১৯, ২০২৪
মার্কিন ভিসা নিষেধাজ্ঞার জালে আড়াই শতাধিক কর্মকর্তা

ডেস্ক রিপোর্ট: নতুন করে ভিসা নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। বিরোধীদের ওপর দমনমূলক কর্মকাণ্ডের অভিযোগে উত্তর আমেরিকার দেশ নিকারগুয়ার ২৫০ এর অধিক সরকারি কর্মকর্তাকে ভিসা নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে দেশটি। মার্কিন এই ভিসা নিষেধাজ্ঞার আওতায় রয়েছেন পুলিশ, আধা-সামরিক বাহিনীর কর্মকর্তাসহ প্রসিকিউটর, বিচারক এবং সরকারি উচ্চশিক্ষা কর্মকর্তারা। দেশটির স্থানীয় সময় বুধবার (১৫ মে) মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতির বরাত দিয়ে এই খবর প্রকাশ করেছে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম রয়টার্স। গণমাধ্যমটির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, উত্তর আমেরকিার দেশ নিকারাগুয়ার সরকার বিরোধীদের ওপর দমনমূলক কর্মকাণ্ড এবং অবৈধ উপায়ে অভিবাসীদের যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশ ঠেকাতে ব্যর্থ হওয়ার দায়ে দেশটির সরকারি তিন সংস্থার আড়াই শতাধিক সরকারি কর্মকর্তার ওপর এ নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হয়েছে। মার্কিন প্রশাসনের জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে রয়টার্স বলছে, ভিসা নিষেধাজ্ঞার আওতায় আসা কর্মকর্তাদের মধ্যে পুলিশ এবং আধাসামরিক কর্মকর্তা, প্রসিকিউটর, বিচারক এবং সরকারি উচ্চশিক্ষা কর্মকর্তারা অন্তর্ভুক্ত রয়েছেন। সেই সঙ্গে নিকারাগুয়া হয়ে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে অবৈধ অভিবাসনের সুবিধার্থে চোরাচালান এবং মানবপাচার নেটওয়ার্কগুলো বৈধ পরিবহন পরিষেবাগুলিকে কীভাবে ব্যবহার করছে সে সম্পর্কে বিমান সংস্থা এবং ট্রাভেল এজেন্টদের অবহিত করার জন্য একটি যৌথ সতর্কতা জারি করা হয়েছে৷ হোমল্যান্ড সিকিউরিটি ডিপার্টমেন্ট এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, নিকারাগুয়া সরকারের পদক্ষেপগুলো অত্যন্ত উদ্বেগের বিষয়। প্রেসিডেন্ট ড্যানিয়েল ওর্তেগা এবং ভাইস প্রেসিডেন্ট রোজারিও মুরিলোর গৃহীত অভিবাসন নীতিমালা অবৈধ অভিবাসনের জন্য অনুমতিমূলক।রয়টার্স জানিয়েছে, নিকারাগুয়া সরকার বিষয়টি নিয়ে তাৎক্ষণিক মন্তব্যের বিষয়ে সাড়া দেয়নি।এর আগে, মানবাধিকার লঙ্ঘনের দায়ে নিকারাগুয়ার হাজারের অধিক কর্মকর্তার ওপর ভিসা নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র।
এর আগেও, নিকারাগুয়ার প্রেসিডেন্ট ড্যানিয়েল ওর্তেগার প্রশাসনের হাজারের অধিক শীর্ষ কর্তা-ব্যক্তিদের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে, যার মধ্যে দেশটির ভাইস প্রেসিডেন্ট রোজারিও মুরিলো, তার তিন সন্তান, বেশকিছু ঊর্ধ্বতন সরকারি কর্মকর্তা, পুলিশ ও সেনাবাহিনীর শীর্ষস্থানীয় ব্যক্তিরা রয়েছেন। ওর্তেগা সরকার সাম্প্রতিক বছরগুলোতে বিরোধী দলীয় রাজনীতিবিদ, সংবাদমাধ্যম, ব্যবসায়ী নেতা এবং ক্যাথলিক চার্চগুলোর ওপর ব্যাপক দমনপীড়ন চালিয়ে আসছে।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন।