গাজায় মানবিক সহায়তা পৌঁছাতে সীমান্ত খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত মিসরের - BANGLANEWSUS.COM
  • নিউইয়র্ক, দুপুর ১২:৫৫, ২৩শে জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ


 

গাজায় মানবিক সহায়তা পৌঁছাতে সীমান্ত খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত মিসরের

newsup
প্রকাশিত অক্টোবর ১৬, ২০২৩
গাজায় মানবিক সহায়তা পৌঁছাতে সীমান্ত খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত মিসরের

অনলাইন ডেস্ক: সাময়িকভাবে মিসর-গাজা (রাফাহ ক্রসিং) সীমান্ত খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্তে পৌঁছেছে সংশ্লিষ্ট পক্ষগুলো। গাজায় মানবিক সহায়তা পৌঁছাতে এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। রয়টার্সের প্রতিবেদনে এমনটা জানানো হয়েছে।

এক ফিলিস্তিনি কর্মকর্তার বরাত দিয়ে এনবিসি নিউজ জানিয়েছে, আজ সোমবার ( ১৬ অক্টোবর ) স্থানীয় সময় সকাল ৯টায় এই সীমান্ত খুলে দেওয়া হব। এবিসি নিউজ জানায়, সোমবার অল্প কয়েক ঘণ্টার জন্য এটি খুলে দেওয়া হবে।

এদিকে মার্কিন দূতাবাস বলেছে, ‘এটি স্পষ্ট নয় যে, কতক্ষণের জন্য ক্রসিং ট্রানজিট করার অনুমতি দেওয়া হবে। এটি শুধু সীমিত সময়ের জন্য খুলতে পারে।’

মিসরের প্রেসিডেন্ট আবদেল ফাত্তাহ আল-সিসির সঙ্গে সম্প্রতি বৈঠক করেন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিঙ্কেন। তিনি বলেন, ‘রাফাহ (সীমান্ত) আবারো খুলে দেওয়া হবে। আমরা জাতিসংঘ, মিসর, ইসরায়েল ও অন্যদের সঙ্গে আলোচনা করে একটি প্রক্রিয়া তৈরি করছি, যার মাধ্যমে দুর্দশাগ্রস্ত মানুষের কাছে সহায়তা পৌঁছে দেওয়া যায়।’

ব্লিঙ্কেন জানান, অভিজ্ঞ মার্কিন কূটনীতিক ডেভিড স্যাটারফিল্ডকে রোববার মধ্যপ্রাচ্যের মানবিক সহায়তার বিষয়গুলো দেখভাল করার জন্য বিশেষ প্রতিনিধি হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। তিনি আজ সোমবার মিসরে পৌঁছে এই উদ্যোগের বাস্তবায়ন করবেন।

প্রসঙ্গত, সীমান্তের কাছাকাছি অবস্থিত সিনাই উপদ্বীপে একাধিক দেশ থেকে আসা হাজারো টন ত্রাণসামগ্রী জমা করা হয়েছে। তবে এত দিন পর্যন্ত সুনির্দিষ্ট চুক্তির অভাবে এই ত্রাণ সেখানে পাঠানো সম্ভব হয়নি। ত্রাণ পাঠানোর পাশাপাশি কিছু বিদেশি পাসপোর্টধারীকেও গাজা থেকে রাফা ক্রসিংয়ের মাধ্যমে বের করে আনা হবে।

উল্লেখ্য, গত ৭ অক্টোবর ইসরায়েলের মাটিতে ফিলিস্তিনের স্বাধীনতাকামী দল হামাসের আকস্মিক হামলায় নিহত ইসরায়েলির সংখ্যা ১ হাজার ৪০০ ছুঁয়েছে। জবাবে ইসরায়েলও বিমান হামলা শুরু করে গাজা শহরে। হাজার হাজার বোমার আঘাতে ইতিমধ্যেই গাজা শহরের নিহতের সংখ্যা বেড়ে ২ হাজার ৬৭০ হয়েছে বলে জানিয়েছে স্থানীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। এক বিবৃতিতে মন্ত্রণালয় জানায়, নিহতদের মধ্যে ৭৫০ জন শিশু রয়েছে। এতে আহতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৯ হাজার ৬০০।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন।